শেষ ম্যাচের আগে দুঃসংবাদ টাইগার শিবিরে

স্পোর্টস ডেস্ক
স্পোর্টস ডেস্ক স্পোর্টস ডেস্ক
প্রকাশিত: ০৮:৪৮ পিএম, ০৯ নভেম্বর ২০১৯

টাইগারদের হেড কোচ রাসেল ডোমিঙ্গো ম্যাচ পূর্ববর্তী সংবাদ সম্মেলনে সাফ জানিয়ে গেলেন, এক-দুই ম্যাচ খারাপ করলেই কাউকে সরাসরি বাদ দেয়ার পক্ষপাতী নয় দল। বরং খেলোয়াড়দের নির্দিষ্ট একটা সময় দেখতে চান প্রধান কোচ।

কোচের এমন মন্তব্যের পর আশা করা হচ্ছিলো আগের দুই ম্যাচের একাদশ নিয়েই সিরিজ নির্ধারণী শেষ ম্যাচটি খেলবে বাংলাদেশ। কিন্তু অবস্থাদৃষ্টে মনে হচ্ছে, শেষ ম্যাচটিতে না চাইলেও দুইটি পরিবর্তন আনতে হবে বাংলাদেশ দলকে।

কেননা রোববারের ম্যাচের আগে আজ (শনিবার) অনুশীলনই করেননি প্রথম দুই ম্যাচের একাদশে থাকা অফস্পিনিং অলরাউন্ডার মোসাদ্দেক হোসেন সৈকত এবং বাঁহাতি পেসার মোস্তাফিজুর রহমান।

দলের সঙ্গে অনুশীলনের শুরুতে মোস্তাফিজ রানিং করলেও মোসাদ্দেক ড্রেসিংরুম থেকে নিচে নামেননি। কুচকির চোটে বিশ্রামে ছিলেন এ স্পিনিং অলরাউন্ডার। অন্যদিকে গোড়ালির পুরনো সমস্যা বাড়ায় অনুশীলনে ছিলেন না মোস্তাফিজ। রোববার শেষ টি-টোয়েন্টিতে তাদের দুজনকে পাওয়া যাবে কি না- তা নিশ্চিত করতে পারেনি দল সংশ্লিষ্ট কেউ।

দুজনের কেউই অবশ্য খুব একটা ফর্মে নেই। দুই ম্যাচে এক ওভারে করে বোলিং করেছেন মোসাদ্দেক। উইকেট পাননি একটিও। উল্টো দ্বিতীয় ম্যাচে টানা তিন ছক্কায় হজম করেছেন ২১ রান। ব্যাট হাতে প্রথম ম্যাচে নামার সুযোগ পাননি। দ্বিতীয় ম্যাচে ঝড়ো ফিনিশিং ছিলো যখন চাহিদা, তখন ৯ বলে করেছেন মাত্র ৭ রান।

অন্যদিকে দুই ম্যাচের একটিতেও পুরো ৪ ওভার করতে পারেননি মোস্তাফিজ। প্রথম ম্যাচে ২ ওভারে ১৫ রান খরচ করার পর আর তার হাতে বল দেননি অধিনায়ক মাহমুদউল্লাহ। দ্বিতীয় ম্যাচে ৩.৪ ওভারে তিনি হজম করেছেন ৩৫ রান।

এসএএস/এমকেএইচ

করোনা ভাইরাসের কারণে বদলে গেছে আমাদের জীবন। আনন্দ-বেদনায়, সংকটে, উৎকণ্ঠায় কাটছে সময়। আপনার সময় কাটছে কিভাবে? লিখতে পারেন জাগো নিউজে। আজই পাঠিয়ে দিন - [email protected]