রোহিতকেই টি-টোয়েন্টি অধিনায়ক চান সাবেক তারকা ক্রিকেটার

স্পোর্টস ডেস্ক
স্পোর্টস ডেস্ক স্পোর্টস ডেস্ক
প্রকাশিত: ১২:০০ এএম, ২৫ মে ২০২০

বিরাট কোহলির কাঁধ থেকে দায়িত্ব কিছুটা কমাতে ক্রিকেটের সংক্ষিপ্ত ফর্ম্যাটকে ভাগ করে দেওয়া হোক অধিনায়কত্ব । দীর্ঘদিন ধরেই এমনটা দাবি উঠছিল ভারতীয় ক্রিকেটের বিভিন্ন মহল থেকে। এবার ভারতীয় জাতীয় দলের সাবেক পেসার অতুল ওয়াসনও সেই দাবির সমর্থনে এগিয়ে এসে জানালেন টি২০ ফর্ম্যাটে অধিনায়কত্বের দায়িত্ব তুলে দেওয়া হোক রোহিত শর্মার কাঁধে।

সাবেক ক্রিকেটার অতুল ওয়াসন এ প্রসঙ্গে বললেন, ‘অধিনায়কত্ব ভাগ করে দেওয়ার কথা এবার ভাবার সময় এসেছে ভারতীয় ক্রিকেটে। তিন ফর্ম্যাটে অধিনায়কত্বের দায়িত্ব সামলানো সাঙ্ঘাতিক কঠিন কাজ। জানি বিরাট এই চাপটা সামলাতে পছন্দ করে। মনে হয় তিনটি ফরম্যাটেই দলকে নেতৃত্ব দিতে চায় সে; কিন্তু রোহিতও আমাদের দেখিয়ে দিয়েছে যে ওর মধ্যে নেতৃত্ব প্রদানের ক্ষমতাটা সহজাত।’

এ ছাড়া সাবেক এই ক্রিকেটার মনে করেন সাদা বলের ক্রিকেটে কোহলির চেয়ে ভালো অধিনায়ক হওয়ার ক্ষমতা রয়েছে রোহিতের মধ্যে। এ প্রসঙ্গে এখনও পর্যন্ত সাদা বলের দু’টি ফরম্যাটে হিটম্যানের অধিনায়কত্বের পরিসংখ্যান তুলে ধরেন অতুল।

রোহিত শর্মার নেতৃত্বে ১০টি ওয়ানডে ম্যাচ খেলেছে ভারত, যার মধ্যে জয় পেয়েছে ৮টিতে। পাশাপাশি রোহিতের অধিনায়কত্বে ১৯টি টি-টোয়েন্টি ম্যাচের মধ্যে ভারতের জয় এসেছে ১৫ ম্যাচে। রোহিতের অধিনায়কত্বে ২০১৮ একই বছরে নিদহাস ট্রফি এবং এশিয়া কাপ জোড়া শিরোপা ঘরে তুলেছিল ভারত।

আইপিলেও রোহিতের সাফল্য ঈর্ষা জাগানিয়া। ফ্র্যাঞ্চাইজি ক্রিকেট টুর্নামেন্টের ইতিহাসে সবচেয়ে সফল অধিনায়ক হিসেবে নিজেকে প্রতিষ্ঠা করেছেন রোহিত।

হিটম্যানের নেতৃত্বে মুম্বাই ইন্ডিয়ান্স যখন ৪বার শিরোপা জিতেছে, তখন কোহলির নেতৃত্বে ব্যাঙ্গালুরু ফ্র্যাঞ্চাইজির ভাঁড়ার এখনও শূন্য। তাই অতুল ওয়াসন বলছেন, ‘রোহিতের রেকর্ড ভীষণ ভালো। সে সামনে থেকে নেতৃত্ব দিতে জানে। মুম্বাই ইন্ডিয়ান্সের হয়ে সে এই কাজটা করেছে। তবে টেস্ট ক্রিকেটে কোহলিই বস।’

সবমিলিয়ে ওয়ানডে ক্রিকেটের দায়িত্বভার কোহলির হাতে থাকলেও টি-টোয়েন্টি ক্রিকেটের দায়িত্ব রোহিতের হাতে তুলে দিয়ে কোহলির চাপ কমানোর কথাই বলেছেন সাবেক এই ক্রিকেটার।

আইএইচএস

করোনা ভাইরাসের কারণে বদলে গেছে আমাদের জীবন। আনন্দ-বেদনায়, সংকটে, উৎকণ্ঠায় কাটছে সময়। আপনার সময় কাটছে কিভাবে? লিখতে পারেন জাগো নিউজে। আজই পাঠিয়ে দিন - [email protected]