নেট প্র্যাকটিসেই ক্যামেরার লেন্স ভাঙলেন আন্দ্রে রাসেল

স্পোর্টস ডেস্ক
স্পোর্টস ডেস্ক স্পোর্টস ডেস্ক
প্রকাশিত: ০৯:২৬ পিএম, ২২ সেপ্টেম্বর ২০২০

আইপিএল শুরু হয়ে গেলো চারদিন, এখনও মাঠে নামেনি কলকাতা নাইট রাইডার্স। পঞ্চম দিনে এসে পশ্চিম বাংলার মানুষের অপেক্ষার অবসান হচ্ছে। অবসান হচ্ছে শাহরুখ খান ভক্তদেরও। কারণ, বুধবার মাঠে নামতে যাচ্ছে তাদের প্রিয় দল কলকাতা নাইট রাইডার্স। প্রতিপক্ষ রোহিত শর্মার দল মুম্বাই ইন্ডিয়ান্স।

কলকাতা নাইট রাইডার্সের হয়ে মাঠে নামার জন্য ছটফট করছেন দলটির ক্যরিবীয় অলরাউন্ডার আন্দ্রে রাসেল। সে কারণে নেট প্র্যাকটিসেই জানান দিয়ে গেলেন, তিনি এসে গেছেন! অনুশীলনেই ক্যামেরার লেন্স ভেঙে দিলেন আন্দ্রে রাসেল। আর সেই ভিডিও ভাইরাল হয়ে গেছে মুহূর্তের মধ্যে।

ক্যারিবিয়ান প্রিমিয়ার লিগ (সিপিএল) খেলে গত ১১ সেপ্টেম্বর আবুধাবি এসে পৌঁছান রাসেল। এরপর কোভিড-১৯ প্রোটোকল মেনে ছয়দিনের বাধ্যতামূলক কোয়ারেন্টাইন পর্ব শেষে আইপিএল শুরুর আগের দিন থেকে আন্দ্রে রাসেল দলের সঙ্গে অনুশীলন শুরু করেন।

বুধবার মুম্বাই ইন্ডিয়ান্সের বিপক্ষে মাঠে নামার আগে নিজের অস্ত্রে শান দিয়ে নিলেন রাসেল। ব্যাটে-বলে নিজের শেষ প্রস্তুতি সারলেন তিনি। সেখানেই ধামাকাদার এক শটে তখন নেটে অগ্নিমূর্তি ধারণ করেছেন তিনি এবং স্ম্যাশিং সেই শটে ভেঙে ফেললেন ক্যামেরার লেন্স!

কলকাতা নাইট রাইডার্সের টুইটার হ্যান্ডেলে শটটির ভিডিও পোস্ট করা হয়েছে। সঙ্গে ক্যাপশনে লেখা হয়েছে, ‘আইপিএলের জন্য প্রস্তুত বিধ্বংসী রাসেল।’

ক্রিকেট ভিত্তিক ওয়েবসাইট ক্রিকইনফোর ‘স্মার্ট স্যাট’ প্রযুক্তির পরিসংখ্যান বলছে, আইপিএলের সবচেয়ে বিধ্বংসী ব্যাটসম্যান আন্দ্রে রাসেল। ভয়ঙ্কর, বিধ্বংসী, আগ্রাসী, আক্রমণাত্মক- একসঙ্গে অসংখ্য বিশেষণ জুড়ে দেওয়া যায় তার নামের পাশে।

দেওয়ালে পিঠ ঠেকে যাওয়া দলকে একা হাতে ম্যাচ জেতানোর ক্ষমতা রাখেন তিনি। প্রতিপক্ষ বোলারদের কাছে তিনি ত্রাস। এমনকি কয়েকদিন আগেই কেকেআর এর চিফ মেন্টর ডেভিড হাসি তো বলেই দিয়েছেন টি-টোয়েন্টি ক্রিকেটে প্রথম ডাবল সেঞ্চুরি করে দিতে পারেন রাসেল। আর নেটে রাসেলকে বল করতে ভয় পান বলেও জানিয়েছিলেন ভারতীয় চায়নাম্যান স্পিনার কুলদীপ যাদবও।

আইএইচএস/এমকেএইচ

করোনা ভাইরাসের কারণে বদলে গেছে আমাদের জীবন। আনন্দ-বেদনায়, সংকটে, উৎকণ্ঠায় কাটছে সময়। আপনার সময় কাটছে কিভাবে? লিখতে পারেন জাগো নিউজে। আজই পাঠিয়ে দিন - [email protected]