হোয়াটমোরের সেরা টেস্ট একাদশে সাঙ্গা-বোর্ডারদের সঙ্গে সাকিব

স্পোর্টস ডেস্ক
স্পোর্টস ডেস্ক স্পোর্টস ডেস্ক
প্রকাশিত: ০৯:৫৯ এএম, ০২ ডিসেম্বর ২০২০

জাদুকরি কোচ ডেভ হোয়াটমোরের ছোঁয়াতেই বদলে গিয়েছিল বাংলাদেশের ক্রিকেট। যে দলটিকে নিয়ে এক সময় হাসাহাসি হতো, সেই দলটিই বিশ্বক্রিকেটে সমীহ জাগানো এক শক্তিতে পরিণত হয় অস্ট্রেলিয়ান এই কোচের কোচিংয়ে।

বাংলাদেশে হোয়াটমোর কাজ করেছেন চার বছরের মতো। ২০০৩ সালে বিশ্বকাপে কানাডার মতো দলের কাছে হেরে প্রথম রাউন্ড থেকেই বিদায় নেয়া টাইগাররা রীতিমত চোখে অন্ধকার দেখছিল। এমনই কঠিন সময়ে বাংলাদেশের দায়িত্ব নেন হোয়াটমোর। এরপর এনে দিয়েছেন একের পর এক সাফল্য।

হোয়াটমোরের কোচিংয়েই বড় দলগুলোকে হারানো শুরু করে বাংলাদেশ। ২০০৭ বিশ্বকাপে তো গ্রুপপর্বে ভারতকে হারিয়ে প্রথমবারের মতো সুপার সিক্স নিশ্চিত করে টাইগাররা। সেখানে আবার হারিয়ে দেয় শক্তিশালী দক্ষিণ আফ্রিকাকে। ওই বিশ্বকাপ দিয়েই মূলত সাকিব আল হাসান, তামিম ইকবাল, মুশফিকুর রহীমের মতো তরুণদের চেনে ক্রিকেট বিশ্ব।

এরপর তারা আন্তর্জাতিক ক্রিকেটে ধীরে ধীরে প্রতিষ্ঠা লাভ করেছেন। সাকিব তো সব ফরমেটে বিশ্বসেরা অলরাউন্ডারও হয়েছেন। এই সাকিবকে হোয়াটমোরও আলাদা চোখে দেখেন। তার আমলে ২০০৬ সালে আন্তর্জাতিক অভিষেক হওয়া শিষ্যকে নিজের গড়া সেরা টেস্ট একাদশেও রেখেছেন অস্ট্রেলিয়ান এই কোচ।

হোয়াটমোর মূলত তার টেস্ট একাদশ গড়েছেন তাদের নিয়ে, যাদের নামের সঙ্গে কোনো না কোনোভাবে জড়িয়ে আছেন তিনি। হয়তো খেলেছেন কিংবা কোচ হিসেবে কাজ করেছেন। কোচ হিসেবে বাংলাদেশের মতো পাকিস্তান, শ্রীলঙ্কারও দায়িত্বে ছিলেন হোয়াটমোর। লঙ্কানদের তো বিশ্বকাপও জিতিয়েছেন।

স্বভাবতই তার একাদশে শ্রীলঙ্কার খেলোয়াড়ের আধিক্য। ছয়জন লঙ্কান ক্রিকেটার জায়গা পেয়েছেন হোয়াটমোরের সেরা একাদশে। বাংলাদেশ থেকে কেবল একজন, বিশ্বসেরা অলরাউন্ডার সাকিব। হোয়াটমোর তার সেরা টেস্ট একাদশে বিশেষজ্ঞ অলরাউন্ডার হিসেবে রেখেছেন তাকে। ব্যাটিং অর্ডার সাত নম্বরে।

ক্রিকইনফোর ‘ক্রিকেট মান্থলি’ সাময়িকীতে নিজের এই সেরা টেস্ট একাদশ প্রকাশ করেছেন হোয়াটমোর। যেখানে সাকিবকে নিয়ে অস্ট্রেলিয়ান কোচ লিখেছেন ‘আমি জানতাম সে দীর্ঘদিন বাংলাদেশের প্রতিনিধিত্ব করতে যাচ্ছে। সে যেভাবে ক্রিকেটটা খেলতে চেয়েছে, সেটিই এর কারণ। ওয়ানডেতে ও ছিল ভীষণ প্রতিদ্বন্দ্বিতাপূর্ণ। ব্যাটিং-বোলিংয়ে দক্ষতা আছে, সময় গড়িয়ে চলার সঙ্গে সে স্পিনার-ব্যাটসম্যান হিসেবে শীর্ষ অলরাউন্ডারও হয়েছে। আরও বেশি আত্মবিশ্বাসী হয়েছে। সে ত্রিমাত্রিক খেলোয়াড় এবং বিশ্বের সেরা অলরাউন্ডার।’

হোয়াটমোরের সেরা টেস্ট একাদশ : সনাৎ জয়াসুরিয়া, আজহার আলী, কুমার সাঙ্গাকারা, অরবিন্দ ডি সিলভা, মাহেলা জয়াবর্ধনে, অ্যালান বোর্ডার (অধিনায়ক), সাকিব আল হাসান, চামিন্দা ভাস, রডনি হগ, মুত্তিয়া মুরালিধরন, উমর গুল।

এমএমআর/পিআর

করোনা ভাইরাসের কারণে বদলে গেছে আমাদের জীবন। আনন্দ-বেদনায়, সংকটে, উৎকণ্ঠায় কাটছে সময়। আপনার সময় কাটছে কিভাবে? লিখতে পারেন জাগো নিউজে। আজই পাঠিয়ে দিন - [email protected]