কেন বিজয়ের পরিবর্তে জাকিরকে নেয়া হলো, ব্যাখ্যা দিলেন রিয়াদ

বিশেষ সংবাদদাতা
বিশেষ সংবাদদাতা বিশেষ সংবাদদাতা
প্রকাশিত: ০৭:১৫ পিএম, ০৪ ডিসেম্বর ২০২০

টসের পর শেরে বাংলার প্রেসবক্সে প্লেয়ার্স লিস্ট আসা মাত্র বিস্ময় আর গুঞ্জন। সে কি, এনামুল হক বিজয় নেই! তার পরিবর্তে তরুণ উইকেটরক্ষক কাম হার্ড হিটিং টপ অর্ডার জাকির হাসান।

তবে কি এনামুল হক বিজয় আহত? নাহ! খবর নিয়ে জানা গেলো- তিনি সুস্থ্যই আছেন। তাকে বাইরে রেখে কেন জাকিরকে খেলানো হলো? সে জল্পনা-কল্পনার অবসান ঘটালেন খোদ অধিনায়ক মাহমুদউল্লাহ রিয়াদ।

ম্যাচ শেষে জেমকন খুলনা অধিনায়ক জানিয়ে দিলেন কেন, কি কারণে এনামুল বিজয়কে রাখা হয়নি একাদশে। কেন তার জায়গায় নেয়া হলো জাকিরকে? মাহমুদউল্লাহ জানালেন, গত কদিন নেটে খুব ভাল ব্যাটিং করেছেন জাকির। তাই এনামুল হক বিজয়কে বিশ্রাম দিয়ে তাকে খেলানোর সিদ্ধান্ত। সুযোগ পেয়েই ফিফটি উপহার দিয়ে অধিনায়ক ও টিম ম্যানেজমেন্টের আস্থার প্রতিদান দিয়েছেন সিলেটের এ তরুণ।

নিষেধাজ্ঞা থেকে মুক্ত হয়ে সাকিব মাঠে নেমেছেন এক বছর পর। তবে এ আসরে অনেক ক্রিকেটারই আছেন, যারা ৭ থেকে ৮ মাস বিরতি দিয়ে আবার খেলতে নেমেছেন। তাদের অনেকের ব্যাটেই রান নেই। আর কেউ কেউ নিজেকে মেলেও ধরতে ব্যর্থ। তবে সেই ব্যর্থতার মিছিলে হঠাৎ উজ্জ্বল জাকির হাসান।

Jakir

সিলেটের এ তরুণ আজ শুক্রবার ছুটির দিনে ৪২ বলে ৬৩ রানের জ্বলজ্বলে ইনিংস উপহার দিয়ে ফরচুন বরিশালের বিপক্ষে জেমকন খুলনার বড় জয়ের রূপকার ও নায়ক। জাকিরকে খেলানো এবং নিজ দলের পারফরমেন্স সম্পর্কে তুলে ধরেন খুলনা অধিনায়ক মাহমুদউল্লাহ।

তিনি বলেন, ‘আমাদের পরিকল্পনা ছিল প্রথম দুই ওভার দেখে খেলা। শেষ কয়েকদিন ধরে সে নেটে খুব ভালো ব্যাটিং করছিল। তো আমি চিন্তা করলাম এনামুলকে একটি বিশ্রাম দেই। যাতে সে আবারো পুরনো ফর্মে ফিরে আসতে পারে। জাকির সেই সুযোগটাই নিয়েছে এবং দুর্দান্ত একটি ইনিংস খেলেছে এই ধরণের পরিবেশে। আমি মনে করি এটা বোলারদের জন্য উপযুক্ত ছিল কিন্তু সে কার্যকরী একটি ইনিংস খেলেছে।’

এ জয়কে টিম পারফরমেন্সের ফসল হিসেবে চিহ্নিত করা রিয়াদ মনে করেন, ইমরুল কায়েসের অভিজ্ঞতাও তার দলের সাফল্যে ভূমিকা রেখেছে। তার অনুভব ইমরুল রান গতি ঠিক রাখার কাজটি যথাযথভাবে করায় জাকিরের পক্ষে স্বচ্ছন্দে খেলা সহজ হয়েছে।

‘আমি মনে করে সবদিক দিয়েই এটি একটি অসাধারণ জয় ছিল। ব্যাটসম্যান এবং বোলাররা উভয়ই অলরাউন্ড পারফরম্যান্স দেখিয়েছে। এটাতে খুব ভালো দলীয় সমন্বয় ছিল। এটা দেখে খুবই সন্তুষ্ট আমি।

করি ইমরুলের অভিজ্ঞতা আমাদের বাড়তি পাওয়া। এই (ইমরুল -জাকির) পার্টনারশিপে সে খুব ভালো স্ট্রাইক রোটেট করে খেলেছে। তাই জাকির হাত খুলে খেলতে পেরেছে। আমাদের জন্য এটা খুব ভালো একটা পার্টনারশিপ ছিল। যে জন্য আমরা শেষ দিকে উইকেট হাতে রেখে বড় শটস খেলার সুবিধাটা নিতে পেরেছি।’

এআরবি/আইএইচএস/পিআর

করোনা ভাইরাসের কারণে বদলে গেছে আমাদের জীবন। আনন্দ-বেদনায়, সংকটে, উৎকণ্ঠায় কাটছে সময়। আপনার সময় কাটছে কিভাবে? লিখতে পারেন জাগো নিউজে। আজই পাঠিয়ে দিন - [email protected]