‘ভারত এমন উইকেট আবার তৈরি করলে আইসিসি সহ্য করবে না’

স্পোর্টস ডেস্ক
স্পোর্টস ডেস্ক স্পোর্টস ডেস্ক
প্রকাশিত: ০৯:১৮ পিএম, ২৮ ফেব্রুয়ারি ২০২১

আহমেদাবাদের মোতেরায় কী এমন উইকেট বানিয়েছে ভারত? যে টেস্ট শেষ হয়ে গেছে মাত্র দেড়দিনে। পুরো চারটি ইনিংস খেলা হলো এই ম্যাচে। কিন্তু ম্যাচটি শেষ হলো মাত্র দেড়দিনে। ভারত জিতেছে ১০ উইকেটের বিশাল ব্যবধানে।

ম্যাচের পর মোতেরার উইকেট নিয়ে তুমুল সমালোচনা চলছে এখনও। ভারত আইসিসির কাছ থেকে অবৈধ সুবিধা অর্জন করছে। না হয় এভাবে তারা উইকেট বানিয়ে অন্য দলের জন্য মরণফাঁদ তৈরি করে জয় তুলে নিচ্ছে- এটা খুবই ন্যাক্কারজনক ঘটনা।

সিরিজের এখনও শেষ টেস্ট বাকি। এই টেস্ট একই মাঠ আহমেদাবাদের মোতেরায় শুরু হবে ৪ মার্চ। কিন্তু সবারই শঙ্কা, শেষ টেস্ট যেহেতু মোতেরায়, তাহলে কী এবারও ঠিক একই উইকেট বানাবে ভারত?

ইংল্যান্ডের সাবেক অফ স্পিনার মন্টি পানেসার এ নিয়ে কড়া সতর্কবার্তা উচ্চারণ করেছেন। তিনি জানিয়ে দিয়েছেন, এবার যদি উইকেট নিয়ে উল্টা-পাল্টা কিছু করে ভারত, আগের মত উইকেট তৈরি করে তাহলে আইসিসি আর বিষয়টা সহ্য করবে না। তারা অবশ্যই এর বিরুদ্ধে অ্যাকশন নেবে।’

মন্টি পানেসার মানতেই পারছেন না, একটি টেস্ট মাত্র দেড়-দুই দিনে কিভাবে শেষ হয়ে যায়? তিনি জানিয়ে দেন, আইসিসির উচিৎ এ নিয়ে একটি ব্যাপক তদন্ত করা। উইকেট পরীক্ষা করা। পুওর আখ্যা দেয়া। শুধু তাই নয়, চতুর্থ টেস্টে যেন একই উইকেট তৈরি না করে ভারত- সে দিকেও যেন লক্ষ্য রাখে আইসিসি।

মন্টি পানেসার বলেন, ‘এটা হচ্ছে শনিবারে আমরা ইংল্যান্ডে ক্লাব ক্রিকেট যেভাবে খেলি, তেমন একটি ম্যাচ। যেখানে আমরা কোনো একটি দলকে ১০০ রানের মধ্যে অলআউট করে ফেলি। এরপরও এই রান তাড়া করা কষ্টকর হয়ে যেতো। কারণ উইকেট থাকতো খুবই টার্নিং। আমি মনে করি, বিশ্বের সবচেয়ে বড় স্টেডিয়াম, মোতেরা স্টেডিয়ামে মানুষ চায় টেস্ট ম্যাচটি পুরো ৫দিনেই অনুষ্ঠিত হোক। এত সুন্দর একটি স্টেডিয়ামে এভাবে মাত্র দুইদিনে টেস্ট শেষ হয়ে যাবে, তা মোটেও কাম্য নয়। যেখানে ৯০০ বলও খেলা হয়নি।’

আইসিসির এ ধরনের উইকেট সম্পর্কে নজর রাখা প্রয়োজন কি না, তা নিয়ে প্রশ্ন করা হলে পানেসার বলেন, ‘আমি মনে করি, পরের ম্যাচেও যদি একই ধরনের উইকেট তৈরি করা হয়, তাহলে সে বিষয়টাতে অবশ্যই আইসিসির নজর দেয়া প্রয়োজন।’

আইএইচএস/এমকেএইচ

করোনা ভাইরাসের কারণে বদলে গেছে আমাদের জীবন। আনন্দ-বেদনায়, সংকটে, উৎকণ্ঠায় কাটছে সময়। আপনার সময় কাটছে কিভাবে? লিখতে পারেন জাগো নিউজে। আজই পাঠিয়ে দিন - [email protected]