তামিম-রিয়াদের মধ্যে কোনো সমস্যা নেই: পাপন

ক্রীড়া প্রতিবেদক ক্রীড়া প্রতিবেদক
প্রকাশিত: ০৯:৪৩ পিএম, ১০ সেপ্টেম্বর ২০২১

বাংলাদেশ ক্রিকেট দলের টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপ স্কোয়াড ঘোষণার আগেই নিজেকে সরিয়ে নিয়েছিলেন দেশসেরা ওপেনার তামিম ইকবাল। ফলে বিশ্বকাপের জন্য চূড়ান্ত স্কোয়াড বাছাইয়ের ক্ষেত্রে তামিমকে বিবেচনা করতে পারেননি জাতীয় দলের নির্বাচকরা।

কিন্তু বৃহস্পতিবার দল ঘোষণার দিন চাউর হয় ভিন্ন আরেকটি খবর। সেটি হলো, অধিনায়ক মাহমুদউল্লাহ রিয়াদের প্রথম পছন্দের তালিকায় ছিল না তামিমের নাম। রিয়াদ চেয়েছেন নাইম শেখ, সৌম্য সরকার ও লিটন দাসকে নিয়েই বিশ্বকাপে যেতে।

যে কারণে অধিনায়কের পছন্দ বুঝতে পেরে দল থেকে বাদ পড়ার আগে সরে গিয়েছেন তামিম। এ খবর চাউর হওয়ার পর স্বাভাবিকভাবেই ক্রিকেটপ্রেমীদের মধ্যে শুরু হয় আলোচনা- তবে কি জাতীয় দলের ওয়ানডে ও টি-টোয়েন্টি অধিনায়কের মধ্যে কোনো দ্বন্দ্ব রয়েছে?

উত্তর দিয়েছেন বাংলাদেশ ক্রিকেট বোর্ডের (বিসিবি) সভাপতি নাজমুল হাসান পাপন। তিনি সাফ জানিয়েছেন, তামিম ও রিয়াদের মধ্যে কোনোপ্রকার ঝামেলা বা দ্বন্দ্ব নেই। জাতীয় দলের সঙ্গে থাকা ক্রিকেট বোর্ডের পরিচালকরাও কোনো সমস্যা খুঁজে পাননি। তাই এ বিষয়ে আলোচনার পক্ষপাতী নন বিসিবি প্রধান।

শুক্রবার নিউজিল্যান্ডের বিপক্ষে সিরিজের শেষ টি-টোয়েন্টি ম্যাচের পর পাপন বলেছেন, ‘প্রথম কথা হলো, ওয়ানডে অধিনায়কের সঙ্গে টি-টোয়েন্টি অধিনায়কের... আপনারা তামিমের সঙ্গে রিয়াদের সমস্যার কথার বলছেন বা আছে কিনা? এখন জৈব সুরক্ষা বলয় চলছে। (তাই আমার) দলের সঙ্গে থাকার কোনো সুযোগ নেই।’

তিনি আরও যোগ করেন, ‘তারপরও আমি যতটুকু দেখেছি, আমি কোনো সমস্যা দেখিনি। আমি জালাল (ইউনুস) ভাইকে জিজ্ঞেস করেছি, যিনি গিয়েছিলেন দলের সঙ্গে, আমি ববি ভাইকে জিজ্ঞেস করেছি। তারা কোনো সমস্যা খুঁজে পায়নি। তাই এই বিষয়টি নিয়ে মন্তব্য করার কারণই আমি দেখছি না।’

এসময় আরও একটি বিষয় পরিষ্কার করে দিয়েছেন পাপন। তা হলো, খবর ছড়িয়েছে তামিম যে বিশ্বকাপ থেকে সরে দাঁড়ানোর সিদ্ধান্ত নিয়েছেন, সেটি পুনর্বিবেচনার জন্য অনুরোধ করেছেন বিসিবি সভাপতি। কিন্তু আদতে এমন কোনো ঘটনা ঘটেনি।

এ বিষয়ে পাপনের ভাষ্য, ‘তামিমকে আমি অ্যাপ্রোচ করেছি, ও যেন ওর সিদ্ধান্ত রিভিউ করে বা ফেরত আসে- এরকম কোনো ঘটনা ঘটেনি। কারণ এটা সম্পূর্ণ ভুল তথ্য। তামিম এই সিদ্ধান্ত নেওয়ার আগে সবকিছু আমার সঙ্গে আলাপ করে নিয়েছে। ও যেখানে যা করেছে, আমার সঙ্গে আলাপ করেই নিয়েছে। সেখানে তাকে আমি আবার কীভাবে বলব সিদ্ধান্তটা রিভিউ করতে! আমি তো সম্মতি দিয়েছি তাকে।’

এসএএস/এমএমআর/এএসএম

করোনা ভাইরাসের কারণে বদলে গেছে আমাদের জীবন। আনন্দ-বেদনায়, সংকটে, উৎকণ্ঠায় কাটছে সময়। আপনার সময় কাটছে কিভাবে? লিখতে পারেন জাগো নিউজে। আজই পাঠিয়ে দিন - [email protected]