পোলার্ডদের শিরোপা স্বপ্ন ‘দেয়ালে’ চাপা

স্পোর্টস ডেস্ক
স্পোর্টস ডেস্ক স্পোর্টস ডেস্ক
প্রকাশিত: ০৯:৩৬ এএম, ১৫ সেপ্টেম্বর ২০২১

ক্যারিবিয়ান প্রিমিয়ার লিগে আগের মৌসুমে কোনো ম্যাচ না হেরেই চ্যাম্পিয়ন হয়েছিল ত্রিনবাগো নাইট রাইডার্স। এবারের আসরে তারা অপরাজিত ছিলো না। তবে প্রথম রাউন্ড শেষে ছিলো সবার ওপরেই। কিন্তু সেমিফাইনালেই থেমে গেছে কাইরন পোলার্ডদের শিরোপা স্বপ্ন।

অবশ্য থেমে গেছে বলার চেয়ে, চাপা পড়েছে বলাই শ্রেয়। সেইন্ট লুসিয়া কিংসের বাঁহাতি ব্যাটসম্যান মার্ক দেয়ালের ব্যাটেই মূলত চাপা পড়েছে ত্রিনবাগোর শিরোপা স্বপ্ন। আসরের প্রথম সেমিফাইনালে ২১ রানে জিতে শিরোপার কাছাকাছি পৌঁছে গেছে সেইন্ট লুসিয়া।

মঙ্গলবার রাতে সেইন্ট কিটসের ওয়ার্নার পার্কে দেয়ালের ৪৪ বলে ৭৮ রানের ঝড়ে ২০৫ রানের বড় সংগ্রহ দাড় করায় সেইন্ট লুসিয়া। জবাবে কাইরন পোলার্ড, সুনিল নারিন, ড্যারেন ব্রাভোদের মাঝারি ইনিংসের পর ১৮৪ রানেই গুটিয়ে গেছে ত্রিনবাগো।

২০৬ রানের বড় লক্ষ্য তাড়া করতে নেমে প্রথম ওভারেই সাজঘরে ফিরে যান ডানহাতি ওপেনার লেন্ডল সিমনস (৪)। তবু দমে যায়নি ত্রিনবাগো। সুনিল নারিন ১৭ বলে ৩০, কলিন মুনরো ২৩ বলে ২৮ রানের ইনিংস খেললে ৮ ওভার শেষে তাদের সংগ্রহ দাঁড়ায় ৮০ রান।

সেখান থেকে টেনে নেন ড্যারেন ব্রাভো, দীনেশ রামদিনরা। কিন্তু তারাও ইনিংস বড় করতে পারেননি। রামদিন ২৬ বলে ২৯, ব্রাভো ১৬ বলে ২৫ রান করে আউট হন। হতাশ করেন টিম সেইফার্ট (৮ বলে ১০ রান)।

শেষদিকে পুরো দায়িত্ব বর্তায় অধিনায়ক পোলার্ডের কাঁধে। তাও শুরুটাও ছিলো আশা জাগানিয়া। কিন্তু ১৬তম ওভারের শেষ বলে ১৩ বলে ২৬ রান করে সাজঘরে ফিরে যান তিনি। তখনই মূলত নিশ্চিত হয়ে যায় ত্রিনবাগোর পরাজয়। সেখান থেকে ৩ বল আগেই অলআউট হয়ে যায় তারা।

সেইন্ট লুসিয়ার পক্ষে একাই ৫ উইকেট নেন সাবেক দক্ষিণ আফ্রিকান ও বর্তমানে নামিবিয়ান অলরাউন্ডার ডেভিড উইসে। এর আগে ব্যাট হাতে অপরাজিত ৩৪ রানের সুবাদে তার হাতেই ওঠে ম্যাচসেরার পুরস্কার। এছাড়া কেমো পল ও ওয়াহাব রিয়াজের শিকার ২টি করে উইকেট।

এর আগে টস জিতে ব্যাট করতে নেমে সেইন্ট লুসিয়াও প্রথম ওভারেই হারায় ওপেনার রাহকিম কর্নওয়ালের উইকেট। আরেক ওপেনার আন্দ্রে ফ্লেচার উইকেটে অনেকক্ষণ থাকলেও ১৪ বল খেলে করেন মাত্র ৪ রান। যা দলের জন্য বরং ক্ষতিকরই ছিলো।

তবে ওপেনারদের ব্যর্থতা পুষিয়ে দিয়েছেন পরের ব্যাটসম্যানরা। তিন নম্বরে নামা বাঁহাতি ব্যাটসম্যান মার্ক দেয়াল খেলেন ৫ চার ও ৬ ছয়ের মারে ৭৮ রানের বিধ্বংসী ইনিংস। ১৪তম ওভারে নারিনের বলে আউট হওয়ার আগে মনে হচ্ছিল সহজেই সেঞ্চুরি তুলে নেবেন তিনি।

দেয়াল ফিরলেও থামেনি সেইন্ট লুসিয়ার রানের চাকা। পুরো আসরে দুর্দান্ত ফর্মে থাকা রস্টোন চেজ ২১ বলে ৩৬, ডেভিড উইসে ২১ বলে ৩৪ এবং এবারের সিপিএলে নিজের জাত চেনানো ১৭ বলে ৩৮ রানের টর্নেডো ইনিংস খেলেন। সেইন্ট লুসিয়া পৌঁছে যায় ৪ উইকেটে ২০৫ রানে।

এসএএস/জেআইএম

করোনা ভাইরাসের কারণে বদলে গেছে আমাদের জীবন। আনন্দ-বেদনায়, সংকটে, উৎকণ্ঠায় কাটছে সময়। আপনার সময় কাটছে কিভাবে? লিখতে পারেন জাগো নিউজে। আজই পাঠিয়ে দিন - [email protected]