আইপিএল দেখে বাড়তি স্পিনার নিয়েছিল বাংলাদেশ

ক্রীড়া প্রতিবেদক ক্রীড়া প্রতিবেদক
প্রকাশিত: ০৮:২১ পিএম, ২৪ অক্টোবর ২০২১

আশা জাগিয়েও হতাশার হারে শুরু হলো বাংলাদেশের সুপার টুয়েলভ। মোহাম্মদ নাইম শেখ ও মুশফিকুর রহিমের জোড়া ফিফটিতে ১৭১ রানের বড় সংগ্রহই পেয়েছিল টাইগাররা। কিন্তু লিটন দাসের জোড়া ক্যাচ মিসের সঙ্গে বোলারদের ছন্নছাড়া বোলিংয়ে ৭ বল আগেই ৫ উইকেটে ম্যাচ জিতে নিয়েছে শ্রীলঙ্কা।

প্রথম পর্বে কোনো ম্যাচ না খেলা বাঁহাতি স্পিনার নাসুম আহমেদকে এই ম্যাচের একাদশে রেখেছিল বাংলাদেশ। তাকে জায়গা দিতে বাদ দেয়া হয়েছে ডানহাতি পেসার তাসকিন আহমেদকে। পেসারের বদলে স্পিনার নেয়ার কারণ মূলত আরব আমিরাতে হওয়া সবশেষ আইপিএল।

ম্যাচ শেষে বাংলাদেশ অধিনায়ক মাহমুদউল্লাহ রিয়াদ জানিয়েছেন, আমিরাতে হওয়া আইপিএলের ম্যাচগুলো তারা দেখেছেন। সেখান থেকেই তাদের মনে হয়েছে শারজাহর উইকেটে স্পিনাররা সুবিধা পেতে পারে। তাই তাসকিনের জায়গায় নেয়া হয়েছে বাঁহাতি স্পিনার নাসুমকে।

পুরস্কার বিতরণী অনুষ্ঠানে মাহমুদউল্লাহ রিয়াদ বলেছেন, ‘আমরা আইপিএলের ম্যাচগুলো দেখেছি এবং মনে হয়েছে যে একজন বাড়তি স্পিনার থাকলে সাহায্য পাওয়া যাবে। স্পিনাররা ভালো করেছে কিন্তু আমরা কিছু সুযোগ হাতছাড়া করেছি। এখন সামনের ম্যাচের দিকে তাকিয়ে।’

শেষ পর্যন্ত ম্যাচ হারলেও প্রথম ইনিংসের পর বাংলাদেশের মনে হয়েছে ১৭১ রান অবশ্যই ডিফেন্ড করার মতো সংগ্রহ। কিন্তু ফিল্ডিংয়ে ভালো করতে না পারায় হারতে হয়েছে ম্যাচ। তবে ব্যাটসম্যানদের উজ্জ্বল পারফরম্যানসে আশার আলো দেখছেন টাইগার অধিনায়ক।

মাহমুদউল্লাহর ভাষ্য, ‘আমার মনে হয়েছে, ১৭১ রান ডিফেন্ড করার মতো সংগ্রহ। লিটন ও নাইম ভালো একটা শুরু এনে দিয়েছে। নাইম ইনিংস ধরে রেখেছে, মুশফিক দুর্দান্ত ইনিংস খেলেছে। আমরা দশম ওভার পর্যন্ত ম্যাচে ছিলাম। দশ ওভারের পর সবকিছু বদলে গেছে। পরের ম্যাচে এটি শুধরে নিবো।’

এসএএস/জিকেএস

করোনা ভাইরাসের কারণে বদলে গেছে আমাদের জীবন। আনন্দ-বেদনায়, সংকটে, উৎকণ্ঠায় কাটছে সময়। আপনার সময় কাটছে কিভাবে? লিখতে পারেন জাগো নিউজে। আজই পাঠিয়ে দিন - [email protected]