যে কারণে ঢাকাকে কুমিল্লা-বরিশালের চেয়ে এগিয়ে রাখছেন কোচ বাবুল

বিশেষ সংবাদদাতা
বিশেষ সংবাদদাতা বিশেষ সংবাদদাতা
প্রকাশিত: ০১:৫০ পিএম, ১৮ জানুয়ারি ২০২২

মাশরাফি বিন মর্তুজা, তামিম ইকবাল ও মাহমুদউল্লাহ রিয়াদ- বাংলাদেশের ক্রিকেটের তিন বড় নাম। জাতীয় দলকে প্রায় দেড় দশক সার্ভিস দেওয়া ‘পঞ্চপান্ডবের’ তিন পান্ডব নিজেদের মেধা, কৃতিত্ব ও অর্জনে সুপ্রতিষ্ঠিত। পারফরমার হিসেবে অতুলনীয়। ম্যাচ জেতানোর পর্যাপ্ত ক্ষমতাও আছে।

যারা আন্তর্জাতিক ও ঘরোয়া ক্রিকেটে অগণিত ম্যাচ জেতানো পারফরম্যান্স দেখিয়ে নিজেদের অনেক বড় পারফরমার হিসেবে মেলে ধরেছেন, এমন তিনজন এবার ঢাকায়। সঙ্গে আছেন বিশ্ব কাঁপানো অলরাউন্ডার আন্দ্রে রাসেল, আফগান মারকুটে ওপেনার শেহজাদ ও লঙ্কান টি-টোয়েন্টি স্পেশালিস্ট ইসুরু উদানা।

সবমিলিয়ে দলের কোচ মিজানুর রহমান বাবুল ঢাকাকে নিয়ে বেশ সন্তুষ্ট। তার চোখে, ‘ভালো দল হয়েছে ঢাকা। যে জায়গায় যেমন প্লেয়ার দরকার ছিল, সেটা আমাদের আছে। বাঁহাতি স্পিনার, অফস্পিনার সবই আছে। সব দিক থেকে মনে করি কালেকশন ভালো। দও ভাল।’

ঢাকার কোচ মনে করেন, তার দলের সবচেয়ে বড় শক্তির জায়গা হলো তিন অভিজ্ঞ পারফরমার মাশরাফি, তামিম ও রিয়াদের উপস্থিতি। এই তিন পারফরমার তার দলকে অন্য সব দলের চেয়ে এগিয়ে রেখেছে- এমন দাবি বাবুলের।

সেটা কেন? কাগজে কলমের শক্তিতে বরিশাল আর কুমিল্লাকেও বেশ সমৃদ্ধ ও শক্তিশালী মানছেন বাবুল, ‘দল হিসেবে বরিশাল ও কুমিল্লা অবশ্যই বেশ শক্তিশালী।’

তারপরও একটি বিশেষ কারণে ঢাকাকে এগিয়ে রাখতে চান বাবুল। সেটি কী? বাবুল মনে করেন তামিম, মাশরাফি ও রিয়াদ তার দলের বিরাট সম্পদ। অনেক বড় শক্তির আধার এবং তাদের দীর্ঘ অভিজ্ঞতা ঢাকার অনেক বড় সুবিধা।

বাবুলের দাবি, টি-টোয়েন্টি ফরম্যাটে অভিজ্ঞ ও পরিণত পারফরমাররা অনেক বেশি কার্যকর। তাদের অভিজ্ঞতা এ ফরম্যাটে অনেক কাজে দেয়। বিশেষ করে যখন ওঠানামার পালা চলে তখন সিনিয়র ও অভিজ্ঞ পারফরমাররা অনেক বেশি কার্যকর হন। দেখবেন উত্থান-পতনের সময়গুলো অভিজ্ঞ পারফরমারদের উপস্থিতি অনেক কাজে দেয়।’

‘আমার দলের তিন পারফরমার, মাশরাফি, তামিম ও রিয়াদ ক্যারিয়ারের অনেকটা পথ পাড়ি দিয়ে এসেছে। তাদের অভিজ্ঞতার ভাণ্ডার কত সমৃদ্ধ। ঘরোয়া ও আন্তর্জাতিক ক্রিকেটে কত শত ম্যাচ খেলেছে তারা। বিভিন্ন পরিবেশ-পরিস্থিতি মোকাবিলা করার পর্যাপ্ত অভিজ্ঞতায় পরিপূর্ণ তারা। সেই অভিজ্ঞতা আমার দলের বিরাট প্লাস পয়েন্ট। আমি বিশ্বাস করি সেই জায়গায় অন্য দলগুলোর চেয়ে বাড়তি সুবিধা পাবো, সুবিধাজনক অবস্থায় থাকবো।’

এসএএস/জিকেএস

করোনা ভাইরাসের কারণে বদলে গেছে আমাদের জীবন। আনন্দ-বেদনায়, সংকটে, উৎকণ্ঠায় কাটছে সময়। আপনার সময় কাটছে কিভাবে? লিখতে পারেন জাগো নিউজে। আজই পাঠিয়ে দিন - [email protected]