সাকিব থাকার পরও কাগজে-কলমে বরিশাল তিন নম্বর দল?

বিশেষ সংবাদদাতা
বিশেষ সংবাদদাতা বিশেষ সংবাদদাতা
প্রকাশিত: ০৯:০৬ পিএম, ১৮ জানুয়ারি ২০২২

মূল বহর আসার দু’দিন আগে নিউজিল্যান্ড থেকে দেশে ফিরে ১৬ জানুয়ারি থেকে বিপিএলে নিজ দল ফরচুন বরিশালের অনুশীলন পরিচালনায় মাঠে নেমে পড়েছেন খালেদ মাহমুদ সুজন। পাশাপাশি দেশে ফিরে মিডিয়ার সঙ্গেও বলেছেন অনেক কথা। যার প্রায় পুরোটা জুড়ে ছিল নিউজিল্যান্ড সফর।

নিউজিল্যান্ডের বিপক্ষে টাইগারদের প্রথম টেস্ট জয়ের সঙ্গে সিরিজ ড্র করে দেশে ফেরার গল্পই তিনি শুনিয়েছেন এসব সাক্ষাৎকারে। কিন্তু সে তুলনায় বিপিএল প্রসঙ্গ কিংবা নিজ দল ফরচুন বরিশাল নিয়ে সেভাবে কথাই বলেননি এ নিবেদিতপ্রান ক্রিকেট ব্যক্তিত্ব।

আজ মঙ্গলবার সন্ধ্যায় জাগো নিউজের সঙ্গে একান্তে কথা বলেছেন ফরচুন বরিশালের কোচ খালেদ মাহমুদ সুজন। বলার অপেক্ষা রাখে না, সুজনের দলের প্রধান চালিকাশক্তি বাংলাদেশ তথা টি-টোয়েন্টি ফরম্যাটের অন্যতম সেরা অলরাউন্ডার সাকিব আল হাসান।

সঙ্গে টি-টোয়েন্টি ফরম্যাটের ভয়ঙ্কর ওপেনার এবং বিপিএলে অনেক বেশি ভাল খেলা ক্রিস গেইল, অভিজ্ঞ ডোয়াইন ব্রাভো এবং আফগানিস্তানের রহস্যময় স্পিনার মুজিবুর রহমানের মত বিশ্ব কাঁপানো স্পিনারও এবার বরিশালে।

নিজ দল বরিশালকে কোথায় রাখতে চান খালেদ মাহমুদ সুজন? কাগজে কলমে তার দল কত নম্বর? তার চোখে অন্যতম ফেবারিট কারা? তাদের শক্তির জায়গা কী? এসব নিয়ে খোলামেলা কথাই বলেছেন সুজন।

নিজ দল সম্পর্কে তার মূল্যায়ন, ‘বরিশাল ভাল দল। খারাপ না। অন পেপার হিসেব করলে দুই-তিন নম্বরে আছি আমরা।’

তাহলে ‘অন পেপার’ এক নম্বর দল কে? ‘এটা বলা মুশকিল। কুমিল্লা আছে। ঢাকাও কম না।’

Shakib Al hasan

কুমিল্লাকে এগিয়ে রাখার কারণ? কুমিল্লার ফরেন কালেকশন বেশ ভাল। লোকালও ভাল প্লেয়ার আছে। ঢাকা টিমও ভাল আছে। সিনিয়র ও এক্সপেরিয়েন্স প্লেয়ারে ঠাসা।

‘তাহলে আপনার দলের শক্তির জায়গা কী? খালেদ মাহমুদ সুজনের ব্যাখ্যা, ‘আমার টিম ব্যালেন্সড। অনেক সুগঠিত একটি দল। আমার মনে হয়, আমাদের লোকাল লাইনআপও ভেরি স্ট্রং। ফরেন প্লেয়ারও আছে ভাল।’

ঠিক আক্ষেপ নয়, তবে নিজ দলের ফরেন কালেকশন নিয়ে কথা বলতে গিয়ে সুজন জানিয়ে দিলেন, তার দুই হেভিওয়েট ফরেন রিক্রুট ক্রিস গেইল আর মুজিবুর রহমানকে শুরু থেকে পাওয়া যাবে না।

গেইল-মুজিবের কেউই শুরুর দিকে আসতেছে না। ওরা শুরু থেকে আসলে হয়ত হিসেবটা অন্যরকম থাকতো। তবে আলজারি জোসেফ আর ডোয়াইন ব্রাভো আছে খারাপ না। আমাদের লোকাল সাইট খুব ভাল। লোকাল টিম অনেক স্ট্রং। মিডল অর্ডার ওয়ান অব দ্য বেস্ট মিডল অর্ডার।

গেইল-মুজিবরা কবে আসবেন? ‘গেইল থার্ড ম্যাচ থেকে হয়ত খেলতে পারবে। আর মুজিব ঢাকায় প্রথম পর্ব মিস করবে। মুজিবকে চিটাগাং পর্ব থেকে হয়ত পাবো।’

তাহলে ঢাকা ও কুমিল্লার মৌলিক শক্তির জায়গা কোথায়? একটু ভেঙ্গে বলবেন? সুজনের জবাব, ‘টিম হিসেবে সবগুলোই শক্তিশালী। ব্যালেন্সডও। ওই দুটি দলের ফরেন কালেকশন বেশ ভাল। কুমিল্লায় ফাফ ডু প্লেসি, মইন আলি আর সুনিল নারিনের মত অভিজ্ঞ ও সু’প্রতিষ্ঠিত পারফরমার আছেন। কুমিল্লার লোকাল লাইনআপও খারাপ না। মোস্তাফিজ আর লিটন দাসের মত অনেক ভাল মানের পারফরমার আছে।’

‘ঢাকায় মাশরাফি, তামিম আর রিয়াদ অবশ্যই অনেক ভাল এবং অভিজ্ঞ ও অতি কার্যকর প্লেয়ার। সঙ্গে আন্দ্রে রাসেলের মত বিশ্ব কাঁপানো প্লেয়ারও আছে।’

সেক্ষেত্রে বরিশালের কী অবস্থা? ‘আমাদের দলে সাকিব, সোহানের মত প্লেয়ার আছে। ‘সাকিবের কথা কি বলবো, টি-টোয়েন্টি ফরম্যাটের ওয়ার্ল্ড বেস্টদের কাতারে আছে। আর সোহানও এক্সাইটিং প্লেয়ার। ম্যাচ উইনার।’

এআরবি/আইএইচএস

করোনা ভাইরাসের কারণে বদলে গেছে আমাদের জীবন। আনন্দ-বেদনায়, সংকটে, উৎকণ্ঠায় কাটছে সময়। আপনার সময় কাটছে কিভাবে? লিখতে পারেন জাগো নিউজে। আজই পাঠিয়ে দিন - [email protected]