শুরুতেই ‘ব্যাটিংয়ে ধস’কে মানসিক সমস্যা বললেন সাকিব

ক্রীড়া প্রতিবেদক ক্রীড়া প্রতিবেদক
প্রকাশিত: ০৮:৩১ পিএম, ২৬ মে ২০২২

দক্ষিণ আফ্রিকায় প্রথম টেস্টের দ্বিতীয় ইনিংসে ৫৩ রানে অলআউট হয়েছিল বাংলাদেশ। পরে দ্বিতীয় টেস্টে দ্বিতীয় ইনিংসে খানিক 'উন্নতি' ঘটিয়ে টাইগাররা গুটিয়ে যায় ৮০ রানে। এর আগে পাকিস্তানের বিপক্ষে মিরপুর টেস্টের প্রথম ইনিংসেও ৮৭ রানে শেষ হয়েছিল বাংলাদেশের ইনিংস।

চলতি সিরিজের দ্বিতীয় ম্যাচে এতো অল্পতে অলআউট না হলেও, ব্যাটিং ধস ঠিকই হয়েছে টাইগারদের। ম্যাচের প্রথম ইনিংসে মাত্র ২৪ রানে পড়েছিল ৫ উইকেট। দ্বিতীয় ইনিংসে ১৪১ রানে পিছিয়ে থেকে খেলতে নেমে প্রথম চার ব্যাটার সাজঘরে ফিরে গেছেন মাত্র ২৩ রানের মধ্যে।

শুধু এই কয়েক ম্যাচ নয়, ব্যাটিং ধসের সঙ্গে বাংলাদেশের সম্পর্ক বেশ পুরোনো। টেস্ট ক্রিকেটে নিয়মিতই বাংলাদেশকে দ্রুত অনেক উইকেট হারাতে দেখা যায়। এর পেছনে মানসিক কারণ দেখছেন বিশ্বসেরা অলরাউন্ডার সাকিব আল হাসান। অবশ্য নির্দিষ্ট কিছু উল্লেখ করেননি তিনি, ধরিয়ে দিয়েছেন অনেকগুলো কারণ।

বৃহস্পতিবার মিরপুর টেস্টের চতুর্থ দিনের খেলা শেষে সংবাদ সম্মেলনে এসেছিলেন সাকিব। লঙ্কানদের ইনিংসে ঘূর্ণি জাদুতে ৫ উইকেট নিয়ে হাসিমুখেই সংবাদ সম্মেলন করার কথা ছিল তার। কিন্তু ব্যাটিংয়ে বাংলাদেশ দল ২৩ রানে ৪ উইকেট হারানোয় বেশি কথা বলতে হয়েছে ব্যাটিং ধস সম্পর্কে।

সাকিব বলেছেন, 'এটা হয়তো মানসিক ব্যাপার। এমন অবস্থাটা সবসময় কঠিন, যেকোনো ব্যাটারের জন্য কঠিন। তখন মাথার ভেতর অনেক কিছুই কাজ করে। ম্যাচের অনেকদিক মাথায় থাকে। ওই চাপটা সামলানো গুরুত্বপূর্ণ। যেটা আমরা করতে পারছি না। এটা আসলে ওই ব্যক্তিগত ক্রিকেটারই বলতে পারবে তারা কী অনুভব করছে।'

সাকিবের মতে, বাংলাদেশ দল ব্যর্থতার ভয় বেশি করে। তা না হলে ভালো কিছু আসাই সম্ভব হতো। তিনি বলেছেন, 'আমরা হয়তো ব্যর্থতায় ভয়টা বেশি করি। যদি ভুল করি তাহলে এই খারাপ ফলটা হবে, এটা হয়তো ভাবি। উল্টোভাবে যদি চিন্তা করি তাহলে অনেক সময় অনেক ভালো কিছুও আসতে পারে।'

তিনি আরও যোগ করেন, 'দুটি টেস্টই পাঁচ দিনে গিয়েছে। বেশ কিছুদিন ধরেই এই সমস্যাটা হচ্ছে। আমি যখন দলে ছিলাম না, তখনও এটা হয়েছে, এখনও হচ্ছে। আমরা সম্প্রতি অনেকবারই ব্যর্থ হয়েছি। এই জায়গায় উন্নতির সুযোগ আছে। তবে এখনও যেহেতু শেষ হয়ে যায়নি, শেষ না হওয়ার আগ পর্যন্ত তো শেষ বলাটা ঠিক না।'

এসএএস/আইএইচএস

করোনা ভাইরাসের কারণে বদলে গেছে আমাদের জীবন। আনন্দ-বেদনায়, সংকটে, উৎকণ্ঠায় কাটছে সময়। আপনার সময় কাটছে কিভাবে? লিখতে পারেন জাগো নিউজে। আজই পাঠিয়ে দিন - [email protected]