ইতিহাসে প্রথমবার এমন কাউকে দলে নিলো নিউজিল্যান্ড

স্পোর্টস ডেস্ক
স্পোর্টস ডেস্ক স্পোর্টস ডেস্ক
প্রকাশিত: ১০:৫২ এএম, ২১ জুন ২০২২

গত এপ্রিলে নিউজিল্যান্ডের বিপক্ষে তিন ম্যাচের ওয়ানডে সিরিজ খেলেছে নেদারল্যান্ডস। সেই সিরিজে নেদারল্যান্ডস দলে ছিলেন বাঁহাতি লেগস্পিনিং অলরাউন্ডার মাইকেল রিপন। যিনি তিন ম্যাচে ১০৯ রানের পাশাপাশি শিকার করেছিলেন তিনটি উইকেট।

মাত্র আড়াই মাসের ব্যবধানে সেই রিপন এবার হয়ে গেলেন নিউজিল্যান্ডের খেলোয়াড়। স্কটল্যান্ড ও নেদারল্যান্ডসের বিপক্ষে আসন্ন ওয়ানডে ও টি-টোয়েন্টি সিরিজের দলে নেওয়া হয়েছে রিপনকে। অর্থাৎ এবার নিউজিল্যান্ডের জার্সিতে নেদারল্যান্ডসের বিপক্ষে খেলবেন ৩০ বছর বয়সী এ অলরাউন্ডার।

পাশাপাশি তার সামনে রয়েছে ইতিহাস গড়ার হাতছানি। আসন্ন তিন সিরিজের যেকোনো একটিতে অভিষেক হলেও, নিউজিল্যান্ডের ৯২ বছরের ইতিহাসে প্রথম বাঁহাতি লেগস্পিনার হয়ে যাবেন তিনি। নিজেদের ক্রিকেট ইতিহাসে এর আগে কখনও কোনো বাঁহাতি লেগস্পিনার খেলায়নি কিউইরা।

jagonews24নিউজিল্যান্ডের বিপক্ষে নেদারল্যান্ডসের জার্সিতে রিপন

সবমিলিয়ে এখন পর্যন্ত নিউজিল্যান্ডের জার্সিতে খেলেছেন ড্যানিয়েল ভেট্টোরি, এজাজ প্যাটেল, মিচেল স্যান্টনারদের মতো ৩২ জন বাঁহাতি স্পিনার। তবে তারা সবাই ছিলেন অর্থোডক্স। রিপনকে দলে নিয়ে প্রথমবারের মতো বাঁহাতি লেগস্পিনার নেওয়ার নজির গড়লো নিউজিল্যান্ড।

২০১৩ সালে নিউজিল্যান্ড থেকে দক্ষিণ আফ্রিকায় পাড়ি জমান রিপন। সে বছরই নেদারল্যান্ডসের হয়ে অভিষেক হয়ে যায় তার। এখন পর্যন্ত ডাচদের হয়ে তিনি ১৮ ওয়ানডে ও ৯টি টি-টোয়েন্টি ম্যাচ খেলে ফেলেছেন। তার ক্যারিয়ারের পরের পথ রচিত হবে নিউজিল্যান্ডের জার্সিতে।

আইসিসির নীতিমালায় উল্লেখ রয়েছে, সহযোগী সদস্য দেশ থেকে যেকোনো খেলোয়াড় পূর্ণ সদস্য দেশে খেলতে পারবে। তবে পূর্ণ সদস্য দেশের হয়ে খেলার পর আবার সহযোগী সদস্য দেশে ফিরতে চাইলে তিন বছর অপেক্ষা করতে হবে। এ নিয়মটিই কাজে লাগিয়েছে কিউইরা।

নিউজিল্যান্ডের হয়ে অভিষেক হলে অধিনায়ক হিসেবে মিচেল স্যান্টনারকে পাবেন রিপন। আয়ারল্যান্ডের বিপক্ষে তিন ম্যাচের ওয়ানডে সিরিজে অধিনায়কত্ব করবেন টম লাথাম। সেই সিরিজের দলে রাখা হয়নি রিপনকে। এরপর স্কটল্যান্ড, আয়ারল্যান্ড ও নেদারল্যান্ডসের বিপক্ষে দায়িত্ব নেবেন স্যান্টনার।

jagonews24নিউজিল্যান্ডের ঘরোয়া ক্রিকেটে নিয়মিত মুখ এ বাঁহাতি লেগস্পিনার

আগামী মাসের শুরুতেই বেলফাস্টে আয়ারল্যান্ডের বিপক্ষে তিন ওয়ানডে খেলবে কিউইরা। এরপর এডনিবরায় গিয়ে স্কটল্যান্ডের বিপক্ষে রয়েছে দুই টি-টোয়েন্টি ও একটি ওয়ানডে খেলবে তারা। সবশেষ আমস্টারডামে গিয়ে ডাচদের বিপক্ষে দুইটি টি-টোয়েন্টি ম্যাচ রয়েছে কিউইদের।

আয়ারল্যান্ডের বিপক্ষে নিউজিল্যান্ডের ওয়ানডে স্কোয়াড
টম লাথাম (অধিনায়ক, উইকেটরক্ষক), ফিন অ্যালেন, মাইকেল ব্রেসওয়েল, ড্যান ক্লেভার, জ্যাকব ডাফি, লকি ফার্গুসন, মার্টিন গাপটিল, ম্যাট হেনরি, অ্যাডাম মিলনে, হেনরি নিকোলস, গ্লেন ফিলিপস, মিচেল স্যান্টনার, ইশ সোধি, ব্লেয়ার টিকনার ও উইল ইয়ং।

আয়ারল্যান্ড, স্কটল্যান্ড ও নেদারল্যান্ডসের বিপক্ষে নিউজিল্যান্ড স্কোয়াড
মিচেল স্যান্টনার (অধিনায়ক), ফিন অ্যালেন, মাইকেল ব্রেসওয়েল, মার্ক চ্যাপম্যান, ড্যান ক্লেভার, লকি ফার্গুসন, মার্টিন গাপটীল, অ্যাডাম মিলনে, ড্যারেল মিচেল, জিমিস নিশাম, গ্লেন ফিলিপস, মাইকেল রিপন, বেন সিয়ারস, ইশ সোধি ও ব্লেয়ার টিকনার।

এসএএস/জিকেএস

করোনা ভাইরাসের কারণে বদলে গেছে আমাদের জীবন। আনন্দ-বেদনায়, সংকটে, উৎকণ্ঠায় কাটছে সময়। আপনার সময় কাটছে কিভাবে? লিখতে পারেন জাগো নিউজে। আজই পাঠিয়ে দিন - [email protected]