‘এতদিন শুনতাম পাইপলাইনে ক্রিকেটার নেই, এখন এত এত খেলোয়াড়’

ক্রীড়া প্রতিবেদক ক্রীড়া প্রতিবেদক
প্রকাশিত: ০৯:২১ পিএম, ২৮ সেপ্টেম্বর ২০২২

নতুন টেকনিক্যাল কনসালটেন্ট শ্রীধরন শ্রীরাম দলের দায়িত্ব নেওয়ার পর অনেক বদল এসেছে। নতুন নতুন পজিশনে এক একজন ক্রিকেটারকে পরখ করা হচ্ছে। তার কোনো কোনোটা সাফল্যের মুখ দেখেছে, কোনোটা হয়েছে ব্যর্থ।

তবে সবমিলিয়ে বাংলাদেশ দলে এখন অনেকগুলো অপশন বের হয়েছে, মনে করছেন বিসিবি সভাপতি নাজমুল হাসান পাপন। তার মতে, পাইপলাইনে ক্রিকেটার নেই এমন কথা ছড়ানো হলেও এখন অনেক অনেক খেলোয়াড় দেখা যাচ্ছে।

আরব আমিরাতের বিপক্ষে সর্বশেষ দুই ম্যাচের টি-টোয়েন্টি সিরিজে ২-০ ব্যবধানে জিতেছে বাংলাদেশ। এই সিরিজে দলে বেশ পরীক্ষা-নিরীক্ষা করা হয়েছে। বিশেষ করে দুই মেকশিফট ওপেনার মেহেদি হাসান মিরাজ আর সাব্বির রহমানকে দুই ম্যাচেই খেলানো হয়েছে। মুশফিকুর রহিম, মাহমুদউল্লাহ রিয়াদ, সাকিব আল হাসানের মতো সিনিয়রদের ছাড়াই জিতেছে বাংলাদেশ।

গণমাধ্যমের সঙ্গে আলাপে পাপন বলেন, ‘এই যে এত খেলোয়াড়। এতদিন শুনতাম পাইপলাইনে ক্রিকেটার নেই। এবার তো সাকিবও খেললো না। নতুন কোচ এসে দেখতে চাচ্ছে। সবাইকে ট্রাই করতে চাচ্ছে। ওই সময় লিটন-রাব্বি-সোহান ইনজুরড ছিল, অপশন ছিল না। তো অন্যরা খেলেছে ওদের দেখে মনে হয়েছে ওদের ভবিষ্যত আছে।’

পাপন মনে করেন, এতদিন টিম কম্বিনেশনই দাঁড় করানো কঠিন হয়ে গিয়েছিল। তবে এখন নতুন ছেলেরা ভালো করায় অনেকগুলো অপশন পাওয়া গেছে। ব্যাটিং-বোলিং সব জায়গায়ই এখন ভালো ভালো বিকল্প আছে, দাবি বিসিবি সভাপতির।

তার ভাষায়, ‘দেখেন আমরা এখন সাকিব ছাড়া মোটামুটি সবাই একেবারে নতুন না হলেও পরের (জেনারেশন)। এর মধ্যে কয়েকটা ছেলের খেলা তো অসম্ভব ভালো লাগে। লিটন দাসের খেলা যেমন ভালো লাগত, এখনো লাগে, কিন্তু সবচেয়ে বড় কথা হচ্ছে আফিফের ব্যাটিং দেখতেই ভালো লাগে। তার মানে তো এই না যে সে প্রত্যেকদিন রান করবে, সেটা বলছি না। সোহানের খেলা দেখতে খুবই ভালো লাগে। মেহেদি হাসান মিরাজের মতো খেলোয়াড় যে টি-টোয়েন্টিতে আমরা নিতামই না কখনও, এখন সাংঘাতিক ইম্প্যাক্ট খেলার মধ্যে থাকে, হয় ফিল্ডিংয়ে, না হয় বোলিংয়ে না হয় ব্যাটিংয়ে। কোথাও না কোথাও সে কিছু একটা করছে। এখন অনেকগুলো অপশন।’

বিসিবি সভাপতি যোগ করেন, ‘বোলিং এ যদি যাই পেস বোলিংয়ে...আমি তো চিন্তা করছি ওরা খেলাবে কাকে! আমি এখনও সিউর না। মানে আগে যেমন অপরিহার্য কিছু নাম ছিল, এখন আর অপরিহার্য বলে কিছু নেই। শরিফুল খুবই ভালো বল করছে, তাসকিন ভালো বল করছে, এবাদতও ভালো বল করছে এবং আমার জানা মতে হাসান মাহমুদ যদি ফিট থাকে তাহলে নিশ্চিতভাবে ও খেলছে। অপশনগুলো অনেক বেশি এখন। এটা একটা ভালো দিক।’

এমএমআর/জিকেএস

পাঠকপ্রিয় অনলাইন নিউজ পোর্টাল জাগোনিউজ২৪.কমে লিখতে পারেন আপনিও। লেখার বিষয় ফিচার, ভ্রমণ, লাইফস্টাইল, ক্যারিয়ার, তথ্যপ্রযুক্তি, কৃষি ও প্রকৃতি। আজই আপনার লেখাটি পাঠিয়ে দিন [email protected] ঠিকানায়।