৫০ রানে পিছিয়ে থেকেও হার থেকে বেঁচে গেলো ভারত

স্পোর্টস ডেস্ক
স্পোর্টস ডেস্ক স্পোর্টস ডেস্ক
প্রকাশিত: ০৩:৪৩ পিএম, ৩০ নভেম্বর ২০২২

নিশ্চিত হারের মুখে ছিল ভারত। আর মাত্র দুটি ওভার খেলা হলেই হতো। ডাকওয়ার্থ লুইস পদ্ধতিতে যে ভারতের থেকে ৫০ রান এগিয়ে ছিল নিউজিল্যান্ড।

কিন্তু এতটা এগিয়ে থেকেও কপাল পুড়লো কিউইদের। ক্রাইস্টচার্চে সিরিজের তৃতীয় ওয়ানডেটি বৃষ্টির কারণে হয়ে গেছে পরিত্যক্ত। টানা দুই ম্যাচ পরিত্যক্ত হওয়ার পর ১-০ ব্যবধানে সিরিজ জিতেছে নিউজিল্যান্ড।

হ্যাগলি ওভালে টস জিতে বোলিং বেছে নিয়েছিল কিউইরা। ভারতীয় ব্যাটিং লাইনআপ দুমড়ে মুচড়ে দেন টিম সাউদি, অ্যাডাম মিলনেরা। শ্রেয়াস আয়ার আর ওয়াশিংটন সুন্দর ছাড়া কিউই গতিঝড়ের সামনে দাঁড়াতে পারেননি কেউ।

তিন নম্বরে আয়ার ৪৯ আর সাত নম্বরে নেমে ওয়াশিংটন সুন্দর খেলেন ৫১ রানের ইনিংস। এছাড়া অধিনায়ক শিখর ধাওয়ান করেন ২৮ রান। ৪৭.৩ ওভারে ২১৯ রানেই গুটিয়ে যায় ভারতের ইনিংস।

অ্যাডাম মিলনে আর ড্যারেল মিচেল নেন ৩টি করে উইকেট। দুটি উইকেট শিকার টিম সাউদির।

জবাবে ফিন অ্যালেন আর ডেভন কনওয়ের ওপেনিং জুটিতে ভালো সূচনা পায় নিউজিল্যান্ড। ৯৯ বলে তারা করেন ৯৭ রান। অ্যালেন খেলছিলেন ঝোড়ো গতিতে। বৃষ্টিতে খেলা বন্ধ হওয়ার একটু আগে উমরান মালিকের শিকার হন তিনি (৫৪ বলে ৫৭)।

কনওয়ে অপরাজিত ছিলেন ৫১ বলে ৩৮ রানে। কেন উইলিয়ামসন মাত্র এসেছেন উইকেটে। এমন সময় ঝমঝমিয়ে নামে বৃষ্টি। ১৮ ওভারে ১ উইকেটে ১০৪ রান ছিল নিউজিল্যান্ডের। ডাকওয়ার্থ লুইস পদ্ধতিতে ৫০ রানে এগিয়ে ছিল কিউইরা।

কিন্তু নিয়ম অনুযায়ী, কমপক্ষে ২০ ওভার করে খেলা হতে হবে এক ইনিংসে। দুই ওভার বাকি থাকতে খেলা বন্ধ হলে আর শুরু করতে পারেননি আম্পায়াররা। ফলে ৫০ রানে পিছিয়ে থেকেও হার থেকে বেঁচে যায় ভারত।

এমএমআর/জিকেএস

পাঠকপ্রিয় অনলাইন নিউজ পোর্টাল জাগোনিউজ২৪.কমে লিখতে পারেন আপনিও। লেখার বিষয় ফিচার, ভ্রমণ, লাইফস্টাইল, ক্যারিয়ার, তথ্যপ্রযুক্তি, কৃষি ও প্রকৃতি। আজই আপনার লেখাটি পাঠিয়ে দিন [email protected] ঠিকানায়।