‘স্টেডিয়ামের ধারণ ক্ষমতা এক লাখ হলে ভালো হতো’

বিশেষ সংবাদদাতা
বিশেষ সংবাদদাতা বিশেষ সংবাদদাতা
প্রকাশিত: ০৫:০৭ পিএম, ২৭ আগস্ট ২০১৮

দম ফেলার সময় নেই আরিফ হোসেন মুনের। বাংলাদেশ ফুটবল ফেডারেশনের (বাফুফে) কার্যনির্বাহী কমিটির সদস্য এবং নীলফামারী জেলা ফুটবল অ্যাসোসিয়েশনের (ডিএফএ) সভাপতি তিনি। বুধবার নীলফামারীর নবনির্মিত শেখ কামাল স্টেডিয়ামে হবে বাংলাদেশ ও শ্রীলংকার মধ্যকার ফিফা ফ্রেন্ডলি ম্যাচ। এ ম্যাচটি দিয়েই আন্তর্জাতিক ফুটবলে অভিষেক হচ্ছে এ স্টেডিয়ামের। বাংলাদেশ-শ্রীলংকা ম্যাচ ঘিরে নীলফামারীতে যেন এখন উৎসবের পরিবেশ।

ম্যাচ নিয়ে মধুর সমস্যায় পড়েছেন স্থানীয় ফুটবল সংগঠকরা। বিশেষ করে, আরিফ হোসেন মুন। সমস্যাটা হচ্ছে টিকিট। টিকিট প্রত্যাশিদের চাপে পারলে লুকিয়ে থাকেন দায়িত্বশীল কর্মকর্তারা। নীলফামারীর ফুটবলের বড় কর্তা হিসেবে আরিফ হোসেন মুনের ওপর দিয়েই ঝড়টা যাচ্ছে বেশি।

srilanka-team

চারদিকে টিকিটের জন্য হাহাকার। বাংলাদেশ-শ্রীলংকা ম্যাচের একটি টিকিট যেন সোনার হরিণ। টিকিটের অবস্থা জানতে চাইলে ফোনের অন্য প্রান্ত থেকে আরিফ হোসেন মুন বললেন, ‘যদি স্টেডিয়ামের দর্শকধারণ ক্ষমতা এক লাখ হতো, তাহলে কিছু মানুষ খেলা দেখতে পারতো।’

বোঝাই যাচ্ছে, বুধবারের ম্যাচ ঘিরে টিকিট প্রত্যাশিদের চাপ কতোটা! আরিফ হোসেন মুন জানিয়েছেন, স্টেডিয়ামের দর্শক ধারণ ক্ষমতা ২১ হাজারের কিছু বেশি। টিকিট ছাপানো হয়েছে ২১ হাজার কয়েকশ। ২৬, ২৭ ও ২৮ আগস্ট টিকিট বিক্রির জন্য নির্ধারিত দিন ছিল; কিন্তু ইতোমধ্যেই টিকিট প্রায় শেষ। মঙ্গলবার শেষ দিনের জন্য ৩ হাজার টিকিট রাখা হয়েছে। যাতে ওই দিনও কিছু দর্শক টিকিট কিনতে পারে।’

জাতীয় ফুটবল দলের সাবেক অধিনায়ক আরিফ হোসেন মুন বেশ উল্লসিত ম্যাচটি নিয়ে মানুষের আগ্রহ দেখে, ‘আমার অনেক ভালো লাগছে, মানুষ যেভাবে আগ্রহ নিয়ে ম্যাচটি দেখার অপেক্ষা করছে। সবার সহযোগিতা চাই, যাতে ভালোভাবে ম্যাচটি আয়োজন করতে পারি।’

srilanka-team

গ্যালারিরের টিকিটের মূল্য ১০০ টাকা, ভিআইপি এক হাজার। জেলা শহরের জন্য মূল্যটা কম নয়। তারপরও টিকিটের জন্য কাড়াকাড়িতে প্রমাণ করে, ঢাকার বাইরে ফুটবলের জনপ্রিয়তা এখনো আকাশচুম্বী।

এ ম্যাচের অতিথি দল শ্রীলংকা সকালে নীলফামারি পৌঁছে গেছে। স্বাগতিক বাংলাদেশ পৌঁছাবে মঙ্গলবার সকালে। ২৯ আগস্ট ম্যাচ শুরু হবে বিকাল ৪টায়। বাংলাদেশ টেলিভিশন ম্যাচটি সরাসরি সম্প্রচার করবে। ধারাবিরণী দেবে বাংলাদেশ বেতার।

আরআই/আইএইচএস/আরআইপি

আপনার মতামত লিখুন :