ফুটবল নিয়েই থাকতে চান আরিফ খান জয়

বিশেষ সংবাদদাতা
বিশেষ সংবাদদাতা বিশেষ সংবাদদাতা
প্রকাশিত: ০৭:৩৮ পিএম, ১৮ ফেব্রুয়ারি ২০১৯

এই তো আড়াই মাস আগেও আরিফ খান জয় ছিলেন সরকারের গুরুত্বপূর্ণ অংশ। শেখ হাসিনার নেতৃত্বাধীন আগের সরকারের যুব ও ক্রীড়া উপমন্ত্রীর দায়িত্বে ছিলেন তিনি। জাতীয় ফুটবল দলের সাবেক এ অধিনায়ক তার প্রিয় প্রাঙ্গন বঙ্গবন্ধু স্টেডিয়ামে এসেছিলেন রোববার। প্রেসবক্সের সামনের গ্যালারিতে বসে দেখেছেন মোহামেডান ও চট্টগ্রাম আবাহনীর মধ্যেকার প্রিমিয়ার লিগের ম্যাচ। এক সময়ের মন্ত্রী সামিল হলেন দর্শক কাতারে।

ক্রীড়া সাংবাদিকরা সাবেক যুব ও ক্রীড়া প্রতিমন্ত্রীকে আমন্ত্রণ করলে তিনি প্রেসবক্সে বসেই খেলা দেখেন। আলাপচারিতায় ফুটবলার জয় ফুটবলের সঙ্গে থাকারই কথা বললেন, ‘এখন থেকে আমাকে ফুটবলের কর্মকান্ডে দেখবেন।’

কিভাবে? আরিফ খান জয় জানালেন, ‘বিজ্ঞানী ওয়াজেদ মিয়া স্মৃতি সংসদকে আমি প্রিমিয়ার লিগ পর্যন্ত নিয়ে আসতে চাই। ওই প্রতিষ্ঠানটির মাধ্যমে আমি তৈরি করতে চাই নতুন ফুটবলার।’ বিজ্ঞানী ড.ওয়াজেদ মিয়া স্মৃতি সংঘ পাইওনিয়ার লিগ থেকে উঠেছে তৃতীয় বিভাগে।

আরিফ খান জয় ফুটবল খেলেছেন দর্শকভরা গ্যালারির সামনে। এখন সেই গ্যালারি বলতে গেলে দর্শকশূন্য। এটা তার কাছে খারাপ লাগারই বিষয়। দর্শক মাঠে না আসার কারণ হিসেবে তিনি ফুটবল তারকাশূন্য হয়ে যাওয়াকেই উল্লেখ করলেন, ‘শিল্পী ব্যতীত কোনো শিল্প টিকে থাকতে পারে না। মাঠে তারকা ফুটবলার না থাকলে দর্শক আসবে না।’

মোহামেডান টানা চার ম্যাচ হেরেছে শুনে দুঃখ প্রকাশ করে তিনি বলেছেন, ‘ক্লাবটির পরিচালনা পর্ষদকে আরো ভালোভাবে অনুধাবন করতে হবে যে মোহামেডানের মতো ক্লাব একটি দেশে একবারই জন্মায়। মোহামেডান তার সুনাম ও ঐতিহ্য অনুযায়ী মাঠে পারফরর্ম করতে পারছে না।’

আরআই/এমএমআর/এমএস