মেসিকে নিয়ে বলা কথা উল্টে দিলেন রোনালদো

স্পোর্টস ডেস্ক
স্পোর্টস ডেস্ক স্পোর্টস ডেস্ক
প্রকাশিত: ০৬:১২ পিএম, ১৯ সেপ্টেম্বর ২০১৯

লিওনেল মেসি আর ক্রিশ্চিয়ানো রোনালদোর মধ্যে সম্পর্কটা কেমন? বিশ্ব ফুটবলের সেরা দুই তারকা, শ্রেষ্ঠত্বের একটা লড়াই তো আছেই। মেসি-রোনালদো যখন আলাদা কোনো জায়গায় কথা বলেন, তখন দুজনের মধ্যেই কিছুটা ঈর্ষাপরায়ণতা কিংবা একে অপরের শ্রেষ্ঠত্ব নিয়ে সন্দেহ পোষণ করার প্রবণতা দেখা যায়।

তবে যখন তারা মুখোমুখি কোনো জায়গায় বসেন, তখন দেখে বোঝার উপায় নেই আসলেই তাদের মধ্যে কোনো শীতল দ্বন্দ্ব রয়েছে। দুজনকে মনে হয় যেন কতদিনের চেনা বন্ধু। হাসি, ঠাট্টা, খুনসুটি-কোনোকিছুরই কমতি থাকে না।

কদিন আগে উয়েফার বর্ষসেরা অনুষ্ঠানেই যেমন দেখা গেল। দুজন বসলেন পাশাপাশি চেয়ারে। কথা হলো, মত বিনিময় হলো। সমান পাঁচবার করে ব্যালন ডি'অর জেতা দুই তারকাকেই হাসিমুখে দেখা গেল।

মোনাকোয় রোনালদো বলেছিলেন, ‘আমরা ১৫ বছর ধরে এই মঞ্চ ভাগ করে নিচ্ছি। আমরা দু’জন ছাড়া আর কেউ নেই এত বছরে। আমাদের সম্পর্ক দারুণ। যদিও আমরা কোনও দিন এক সঙ্গে ডিনারে যাইনি, কিন্তু সেটা করতে ভবিষ্যতে দেখা যেতেই পারে।’

পাশে বসে থাকা মেসি মুচকি হেসেছিলেন। পরে মেসি আরেক সাক্ষাতকারে বলেন, রোনালদোর ওই প্রস্তাব নিয়ে তিনি ভেবেছেন। সুযোগ হলে একসঙ্গে বসে খাওয়ার ইচ্ছে আছে তারও।

তবে কি মেসি আর রোনালদো আসলেই খুব ভালো বন্ধু? তাদের মধ্যে দূরত্বটা কি শুধুই পেশাদারিত্বের? এবার রোনালদো যা বললেন, তাতে যে কারও ভুল ধারণা ভাঙতে বাধ্য।

সম্প্রতি সাংবাদিক পিয়ার্স মর্গ্যানকে দেওয়া এক সাক্ষাৎকারে রোনালদো বলেন, ‘উয়েফার অনুষ্ঠানে আমাদের কথা বলতে দেখে অনেকেই অবাক হয়ে গিয়েছিলেন। তবে আমরা দু’জন মোটেও বন্ধু নই। আমরা গত ১৫ বছর ধরে বিশ্বসেরার মঞ্চ শেয়ার করছি।’

রোনালদোর মুখের এই স্বীকারোক্তি বলে দেয়, বাইরে যতই সৌহার্দ্য দেখান, লড়াইটা তাদের আগের মতোই আছে। এখন দেখা যাক, মেসির পক্ষ থেকে কোনো জবাব পাওয়া যায় কি না।

এমএমআর/এমকেএইচ