সালাউদ্দিন থাকলে আবার ফিরবেন পল স্মলি

বিশেষ সংবাদদাতা
বিশেষ সংবাদদাতা বিশেষ সংবাদদাতা
প্রকাশিত: ০৯:৪০ পিএম, ২০ অক্টোবর ২০১৯

বাংলাদেশ ফুটবল ফেডারেশনের টেকনিক্যাল অ্যান্ড স্ট্র্যাটেজিক ডাইরেক্টর পল থমাস স্মলি এখন অতীত। তিন বছর কাজ করে রাতেই অস্ট্রেলিয়ার পথে উড়াল দিচ্ছেন তিনি। বিদায়ের সময় তিনি বলে গেছেন, ‘ব্যক্তিগত কারণ ও ক্যারিয়ারের নতুনত্বের জন্যই যাচ্ছি। তবে আবার ফিরতেও পারি।’

আবার যদি ফিরবেনই তাহলে চুক্তি কেন নবায়ন করলেন না? এর ব্যাখ্যা দিয়েছেন বাফুফে সভাপতি কাজী মো. সালাউদ্দিন, ‘আগামী এপ্রিলে বাফুফের নির্বাচন। তখন কি হবে কে জানে! সংক্ষিপ্ত সময়ের জন্য চুক্তি যথেষ্ট নয়। আর আমাদের মেয়াদ যেহেতু ৬ মাস আছে, তাই তার সঙ্গে আমরা চার বছরের চুক্তি করতে পারি না। ফেডারেশনের মধ্যেই অনেকে এ নিয়ে প্রশ্ন তুলেছেন।’

বাফুফে সভাপতি আগামীতে পল স্মলির সঙ্গে আরো কাজ করার প্রত্যাশার কথাও শুনিয়েছেন। সেটা কিভাবে? প্রথমত আগামী নির্বাচনে বাফুফে সভাপতি হিসেবে নির্বাচিত হতে হবে কাজী মো. সালাউদ্দিনকে। আর দ্বিতীয়ত তখন পল আসতে সম্মত হলে।

এই সম্মতিটা দিয়েই দেশের পথে বিমান ধরছেন পল স্মলি। স্পষ্টই বলে গেছেন কাজী মো. সালাউদ্দিন যদি সভাপতি থাকেন, তাহলে তিনি আবার আসবেন বাংলাদেশে।

পলতো বাংলাদেশের চাকরি ছেড়েই নতুন জায়গায় যোগ দিচ্ছেন। তাহলে মাত্র ৬ মাস পর তিনি কি করে ওই চাকরি ছেড়ে আসবেন? ‘আমি যেখানেই কাজ করতে চুক্তিবদ্ধ হবো, সেখান থেকে বিদায়ের বিষয়টি থাকবে উম্মুক্ত। আমি যখন চাইবো তখন বিদায় নিতে পারবো। তাই আমার আসতে কোনো সমস্যা হবে না’- বলেছেন পল স্মলি।

যার অর্থ পলের জন্য বাংলাদেশের ফুটবলের দরজা খোলাই থাকবে, যদি চতুর্থবারের মতো সভাপতি নির্বাচিত হতে পারেন কাজী মো. সালাউদ্দিন। দেখার অপেক্ষায় বাফুফে-পল বিচ্ছেদটা সাময়িক নাকি চিরদিনের? উত্তর জানা যাবে বাফুফের আগামী নির্বাচনের পর।

আরআই/আইএইচএস/জেআইএম