ফিফা-এএফসিতে নালিশের হুমকি তরফদার রুহুল আমিনের

বিশেষ সংবাদদাতা
বিশেষ সংবাদদাতা বিশেষ সংবাদদাতা
প্রকাশিত: ০৬:০৬ পিএম, ১৭ আগস্ট ২০২০

করোনাভাইরাসের কারণে স্থগিত হওয়া বাফুফের নির্বাচনের নতুন তারিখ নির্ধারণ হয়েছে ৩ অক্টোবর। তারিখ ঘোষণার পর আবার নড়েচড়ে বসেছেন বাফুফের নির্বাচনে অংশ নিতে কোমরবাঁধা সংগঠকরা।

কাজী মো. সালাউদ্দিন বিরোধীরা সোমবার এক ছাদের নিচে বসেছিলেন বাংলাদেশ জেলা ও বিভাগীয় ফুটবল অ্যাসোসিয়েশনের (বিডিডিএফএ) মহাসচিব এবং বাংলাদেশ ক্লাবস অ্যাসোসিয়েশনের (বিএফসিএ) সভাপতি তরফদার মো. রুহুল আমিনের নেতৃত্বে। করেছেন সংবাদ সম্মেলন।

সংবাদ সম্মেলনের মাধ্যমে সব পদে নির্বাচন করার ঘোষণা দেয়া হয়েছে। তবে সভাপতি পদে কেউ নির্বাচন করবেন কি না তা পরিষ্কার করা হয়নি। কে কোন পদে প্রতিদ্বন্দ্বীতা করবে তা খোলাসা করে উল্লেখ করা হয়নি।

তরফদার মো. রুহুল আমিন অভিযোগ করেছেন ভোটার তালিকায় অনিয়ম করা হয়েছে বলে। এই অনিয়ম দূর না করলে ফিফা-এএফসিতে নালিশ করবেন বলেও হুমকি দিয়েছেন চট্টগ্রাম আবাহনীর এই পরিচালক।

১৩৯ ভোটারের মধ্যে তিন জনকে নিয়ে জোর আপত্তি তোলেন তরফদার মো. রুহুল আমিন। এই তিন ডেলিগেট হলেন- ঢাকা জেলা ফুটবল অ্যাসোসিয়েশনের আবদুর রহিম, দি মুসলিম ইনস্টিটিউটের জাহাঙ্গীর আলম বাবুল এবং নবাবপুর ক্রীড়া চক্রের মীর নিজাম উদ্দীন আহমেদ।

ডেলিগেট ফরম বিতরণ কার্যক্রম এবং গ্রহণের ক্ষেত্রে যে যাচাই-বাছাই কমিটি গঠন কাজ করেছে বাফুফে তাদের গ্রহণযোগ্যতা নিয়েও প্রশ্ন তুলেছেন রুহুল আমিন, ‘নিরপেক্ষ লোক না দিয়ে ডেলিগেট যাছাই-বাছাই কার্যক্রম পরিচালনা করেছে বাফুফের কার্যনির্বাহী কমিটির তিন সদস্য। এমন লোক দিয়ে এই ডেলিগেট যাচাই-বাছাই কার্যক্রম পরিচালনা করে নির্বাচনকে প্রশ্নবিদ্ধই করেছে বাফুফে। ’

সংবাদ সম্মেলনে উপস্থিত ছিলেন বাফুফের সহসভাপতি মহিউদ্দিন আহমেদ মহি, আশিকুর রহমান মিকু, সিরাজ উদ্দিন মোহাম্মদ আলমগীর, শাকিল মাহমুদ চৌধুরী, আলিমুজ্জামান আলম, জাতীয় দলের সাবেক ফুটবলার আব্দুল গাফফার, আলফাজ আহমেদ, বিপ্লব ভট্টাচার্যসহ জেলা ও বিভাগীয় ফুটবল অ্যাসোসিয়েশন ও ফুটবল ক্লাবস অ্যাসোসিয়েশনের কর্তারা।

আরআই/আইএইচএস/এমকেএইচ

করোনা ভাইরাসের কারণে বদলে গেছে আমাদের জীবন। আনন্দ-বেদনায়, সংকটে, উৎকণ্ঠায় কাটছে সময়। আপনার সময় কাটছে কিভাবে? লিখতে পারেন জাগো নিউজে। আজই পাঠিয়ে দিন - [email protected]