মেসির অবসরের পর ‘টিভি ভেঙে ফেলবেন’ ইতালিয়ান কিংবদন্তি

স্পোর্টস ডেস্ক
স্পোর্টস ডেস্ক স্পোর্টস ডেস্ক
প্রকাশিত: ০১:২২ পিএম, ২৯ অক্টোবর ২০২০

সাধারণ দর্শক থেকে শুরু করে কিংবদন্তি ফুটবলার পর্যন্ত আর্জেন্টাইন জাদুকর লিওনেল মেসির গুণমুগ্ধ কোটি কোটি মানুষ। পায়ের জাদুতে তিনি যেন বশ করেছেন গোটা ফুটবল বিশ্বকে। আর এ কারণে মেসিকে সত্যিকারের জাদুকর, ফুটবলের হ্যারি পটার বলে আখ্যায়িত করলেন ইতালির কিংবদন্তি ফুটবলার ক্রিশ্চিয়ান ভিয়েরি।

বুধবার রাতে উয়েফা চ্যাম্পিয়নস লিগের ম্যাচে জুভেন্টাসের বিপক্ষে ২-০ গোলে জিতেছে লিওনেল মেসির বার্সেলোনা। ম্যাচের দ্বিতীয় গোলটি করেছেন মেসি। এছাড়া পুরো ম্যাচে বেশ কয়েকবার সুযোগ সৃষ্টি করেছিলেন তিনি। যা মুগ্ধ করেছে জুভেন্টাসের সাবেক তারকা খেলোয়াড় ভিয়েরিকে।

তাই তো ম্যাচ শেষে মেসির প্রশংসায় পঞ্চমুখ ৪৭ বছর বয়সী ভিয়েরি। তার মতে জুভেন্টাসের বিপক্ষে ম্যাচটিতে ৬-৭ গোল করতে পারত বার্সেলোনা। তা হয়নি বটে, তবে মাঠের খেলায় ঠিকই প্রশান্তি ছড়িয়েছেন মেসিরা। তাই মেসিকে হ্যারি পটার বলেছেন ভিয়েরি। একইসঙ্গে জানিয়েছেন, মেসির অবসরের পর আর টিভিই দেখবেন না তিনি।

ম্যাচ শেষে সিবিএস স্পোর্টসকে ভিয়েরি বলেন, ‘অসাধারণ বার্সেলোনা। কোনো লড়াই-ই ছিল না। তারা ছয় বা সাত গোল করতে পারত সহজেই। দুর্দান্ত ফুটবল খেলেছে।’

মেসির প্রশংসায় তিনি বলেন, ‘মেসি একজন জাদুকর। সে ফুটবলের হ্যারি পটার। যখন সে খেলা বন্ধ করে দেবে, আমি আমার টিভিগুলো বাইরে ছুঁড়ে ফেলব। তখন আর আমার টিভির কোনো প্রয়োজন থাকবে না। আমি তখন নেটফ্লিক্স দেখব। কারণ মেসি থেমে গেলে দেখার মতো আর কিছুই বাকি থাকবে না।’

বার্সেলোনার বিপক্ষে ম্যাচটিতে তিনবার অফসাইডে গোল করেন জুভেন্টাসের স্প্যানিশ ফরোয়ার্ড আলভারো মোরাতা। বাতিল হয় সবকয়টি। এর বাইরে একটি শটও লক্ষ্য বরাবর মারতে পারেনি জুভেন্টাস। বলা চলে, তেমন একটা পরীক্ষাই দিতে হয়নি বার্সার রক্ষণভাগকে। এ দলের খেলায় অত্যন্ত খুশি ভিয়েরি।

তার ভাষ্য, ‘আরেকটা ম্যাচ গেলো, আরেকটা সুন্দর পারফরম্যান্স দেখলাম। আমি জানি না, তারা কীভাবে রিয়াল মাদ্রিদের কাছে হেরে গিয়েছিল। জুভেন্টাসের বিপক্ষে ম্যাচটি দেখলেই বোঝা যায়, এ দল (বার্সা) চলতি বছর কারও বিপক্ষেই আর হারতে পারে না। তারা যেভাবে খেলেছে, হারা সম্ভবই নয়।’

এসএএস/পিআর

করোনা ভাইরাসের কারণে বদলে গেছে আমাদের জীবন। আনন্দ-বেদনায়, সংকটে, উৎকণ্ঠায় কাটছে সময়। আপনার সময় কাটছে কিভাবে? লিখতে পারেন জাগো নিউজে। আজই পাঠিয়ে দিন - [email protected]