দুই পেনাল্টি মিসের ম্যাচে ঘাম ঝরানো জয় বার্সার

স্পোর্টস ডেস্ক
স্পোর্টস ডেস্ক স্পোর্টস ডেস্ক
প্রকাশিত: ০৯:৫৪ এএম, ২২ জানুয়ারি ২০২১

আগের রাউন্ডে অ্যাটলেটিকো মাদ্রিদকে বিদায় করেই নিজেদের শক্তির জানান দিয়েছিল কোরনিয়া। তারপরও তৃতীয় সারির দলটিকে যেন গোণায় ধরতে চাননি বার্সেলোনা কোচ রোনাল্ড কোম্যান। নিষেধাজ্ঞার কারণে লিওলেন মেসি নেই। এর মধ্যে গোলরক্ষক মার্ক-আন্দ্রে স্টেগানসহ সেরা একাদশের কয়েকজনকে বাইরে রাখার ঝুঁকিটা নিয়েছিলেন বার্সা কোচ।

সেই ঝুঁকি কাল হয়েই দাঁড়াতে পারতো। দুটি পেনাল্টি মিসসহ অসংখ্য সুযোগ নষ্ট করে কোপা দেল রে'তে রীতিমত বিপদেই পড়তে যাচ্ছিল বার্সা। শেষ পর্যন্ত অতিরিক্ত সময়ের দুই গোলে নাটকীয় এক জয় (২-০) নিয়ে শেষ ষোলোয় পা রেখেছে রেকর্ড চ্যাম্পিয়নরা।

ম্যাচে দাপট দেখিয়েই খেলেছে বার্সা। কিন্তু কোরনিয়ার রক্ষণ দেয়াল আর গোলরক্ষক রামোন হুয়ানের দুর্দান্ত পারফরম্যান্সে ছিটকে পড়ার শঙ্কা তৈরি হয়েছিল তাদের। প্রতিপক্ষের মাঠে ম্যাচের ৩৯তম মিনিটেই প্রথম ‌‌‘কুফা’টা লাগে বার্সেলোনার।

ডি বক্সে রোনালদ আরাহো ফাউলের শিকার হলে পেনাল্টি পায় অতিথিরা। কিন্তু মিরালেম পিয়ানিচের স্পট কিক ডানদিকে ঝাঁপিয়ে পড়ে আটকে দেন কোরনিয়া গোলরক্ষক রামোন।

গোলের জন্য মরিয়া বার্সা এরপর অনেকগুলো সুযোগ নষ্ট করে। ৮০ মিনিটের মাথায় ফের পেনাল্টি পায় তারা। এবার ডি বক্সে ক্লেমো লংলে হন ফাউলের শিকার। পেনাল্টি কিক নেন উসমান ডেম্বেলে। কিন্তু তার শটে তেমন জোর না থাকায় সেটি পা দিয়ে সহজেই ঠেকিয়ে দেন রামোন।

৮৮ মিনিটে পিয়ানিচের বুলেট গতির আরেকটি শট কর্নারের বিনিময়ে রক্ষা করেন কোরনিয়া গোলরক্ষক। নির্ধারিত সময়ে গোলশূন্য ড্র নিয়েই মাঠ ছাড়ে দুই দল।

তবে অতিরিক্ত সময়ের শুরুতেই জালের দেখা পায় বার্সেলোনা। ৯২ মিনিটে ডি বক্সের বাইরে থেকে জোরালো এক শটে জাল কাঁপান ডেম্বেলে। খেলা শেষ হওয়ার আগমুহূর্তে (১২১ মিনিট) দলকে আরও এক গোল এনে দেন মার্টিন ব্রাথওয়েট। পেদ্রিকে বাধা দিতে এগিয়ে গিয়েছিলেন কোরনিয়া গোলরক্ষক, সুযোগ ফাঁকায় ব্রাথওয়েটকে বল দিয়ে দেন তিনি আর সেটি থেকে গোল আদায় করে নেন ডেনিশ ফরোয়ার্ড।

এমএমআর/জেআইএম

করোনা ভাইরাসের কারণে বদলে গেছে আমাদের জীবন। আনন্দ-বেদনায়, সংকটে, উৎকণ্ঠায় কাটছে সময়। আপনার সময় কাটছে কিভাবে? লিখতে পারেন জাগো নিউজে। আজই পাঠিয়ে দিন - [email protected]