কোচ নেই ব্রাদার্সে, ভরসা সেই ওয়াসিম ইকবাল!

বিশেষ সংবাদদাতা
বিশেষ সংবাদদাতা বিশেষ সংবাদদাতা
প্রকাশিত: ০৯:৪৪ পিএম, ২২ এপ্রিল ২০২১

হঠাৎ করে প্রিমিয়ার লিগের তারিখ ঘোষণা হওয়ায় বেশি বিপাকে পড়েছে ব্রাদার্স ইউনিয়ন। কারণ, তাদের কোচই আসতে পারছেন না আন্তর্জাতিক ফ্লাইট বন্ধ থাকায়। গত মৌসুমে ডাগআউটে থাকা ইরানী বংশোদ্ভূত জার্মান কোচ রেজা পার্কাসকে প্রিমিয়ার লিগের দ্বিতীয় পর্বের জন্য আনছে ব্রাদার্স। তবে কবে আসতে পারবেন তা নিশ্চিত নয়।

‘রেজা পার্কাসকে বলেছিলাম ঈদের পর আসতে। কারণ, আমাদের ধারণা ছিল লিগের দ্বিতীয় পর্ব ঈদের পরই শুরু হবে; কিন্তু বাফুফে হুট করে লিগ শুরুর সিদ্ধান্ত নেয়ায় ক্যাম্প শুরু করাইতো মুশকিল আমাদের জন্য। কোচের সঙ্গে যোগাযোগ করছি, ফ্লাইট চালু হলেই চলে আসবেন’- বলেছেন ব্রাদার্স ইউনিয়নের ফুটবল ম্যানেজার আমের খান।

লিগ ৩০ এপ্রিল শুরু হবে। তড়িঘড়ি করে প্রস্তুতিতে নামতে হচ্ছে ক্লাবগুলোকে। ঈদের আগে লিগ শুরুর আপত্তি জানিয়েছিল ব্রাদার্সসহ কয়েকটি ক্লাব; কিন্তু বেশিরভাগ ক্লাবের মতামতের ভিত্তিতে বাফুফের লিগ কমিটি ৩০ এপ্রিল খেলা শুরুর সিদ্ধান্ত নেয়। এখন কয়েকটি ক্লাবকে অনুশীলন শুরু করতে হচ্ছে লেজেগোবরে অবস্থার মধ্যে দিয়ে।

ফেডারেশন কাপে খারাপ করার পর লিগের জন্য ব্রাদার্স দায়িত্ব দিয়েছিল আবদুল কাইয়ুম সেন্টুকে। বেশিদিন বনিবনা হয়নি ব্রাদার্স-সেন্টুর মধ্যে। তাই লিগের প্রথম পর্বের গোটাচারেক ম্যাচ থাকতেই তাদেও বিচ্ছেদ।

তাহলে কার অধীনে অনুশীলন শুরু করতে যাচ্ছে ব্রাদার্স? ‘মিজানুর রহমান ডন ছিলেন সেন্টুর সহকারী হিসেবে। তিনি আছেন। আর রেজা পার্কাস না আসা পর্যন্ত আমরাই চালিয়ে নেবো। তাছাড়া আমাদের ওয়াসিম ভাই তো আছেনই (খন্দকার ওয়াসিম ইকবাল)।’

সাবেক তারকা ফুটবলার ওয়াসিম ইকবাল মাঝেমধ্যেই হাল ধরেন ব্রাদার্সের। কাগজ-কলমে ক্লাবের কোনো পদে না থাকলেও ওয়াসিম ইকবাল আসলে ব্রাদার্সেরই শুভাকাঙ্খী। ব্রাদার্স ক্লাব ও ওয়াসিম ইকবালের বাসার মধ্যে ঢিল ছোঁড়া দূরত্ব। বিকেলে ক্লাবের মাঠে তিনি চলে আসেন ফুটবল দলের অনুশীলন দেখতে। তো কোচের দায়িত্বে যেই থাকুন না কেন।

ম্যানেজার আমের খান বললেন, বিদেশি কোচ না আসা পর্যন্ত আপনি তো আছেন। দরকার হলেতো নেমে পড়বেন তাই না? ‘ব্রাদার্স মাঠ থেকে আমার বাসা পায়ে হেঁটে ৫ মিনিটের পথ। বিকেলে আমি এমনিতেই ওখানে থাকি। আমাকে ডাকতে হয় না। প্রয়োজনে সহযোগিতা করি। সবাই জানেন, ‘কেউ না থাকলে ওয়াসিম আছেন।’ আমাকে ডাকলো কি ডাকলো না, কোনো পদে রাখলো কি রাখলো না। ওসব চিন্তা করি না। আমি ব্রাদার্সের শুভাকাঙ্খী। ফুটবল দল নিয়ে আমেরের সঙ্গে প্রায়ই কথা হয়’- বলছিলেন ওয়াসিম ইকবাল।

ব্রাদার্সের আর্থিক সংকটের কথা উল্লেখ করে ক্লাবটির, ‘আপদকালীন কোচ’ বলেন, ‘উপদেশ দিলে অনেক দেয়া যায়। আসল সমস্যা তো টাকা। আমাদের এখন লক্ষ্য দলটিকে এবার কিভাবে সেভ করা যায়। এবার তো বেশি ভালো করা সম্ভব না। পরের মৌসুমে কি হবে সেটা পরেই দেখা যাবে। ক্লাবে কোনো সমস্যা দেখলেই আমি নিজের থেকে আলোচনা করি। ক্লাব অফিসিয়ালদের আমার ওপর বিশ্বাস আছে। যেভাবে দরকার হবে সেভাবেই ক্লাবের পাশে থাকবো।’

বিদেশি কোচ যতদিন না আসবেন ততদিন ব্রাদার্সের কোচিং দেখভাল করবেন ওয়াসিম ইকবাল। তার সঙ্গে থাকবেন সাবেক স্ট্রাইকার মিজানুর রহমান ডন।

আরআই/আইএইচএস/

করোনা ভাইরাসের কারণে বদলে গেছে আমাদের জীবন। আনন্দ-বেদনায়, সংকটে, উৎকণ্ঠায় কাটছে সময়। আপনার সময় কাটছে কিভাবে? লিখতে পারেন জাগো নিউজে। আজই পাঠিয়ে দিন - [email protected]