ফিফার দুই বছরে বিশ্বকাপ পরিকল্পনার তুমুল বিরোধী ইউরোপের ক্লাবগুলো

স্পোর্টস ডেস্ক
স্পোর্টস ডেস্ক স্পোর্টস ডেস্ক
প্রকাশিত: ০৯:৫৯ পিএম, ২৪ সেপ্টেম্বর ২০২১

ফিফা ফুটবল বিশ্বকাপের নিয়মটাই বদলে যেতে বসেছে। চার বছরের পরিবর্তে দুই বছর পরপর বিশ্বকাপ আয়োজন করা যায় কি না তা নিয়ে চলছে তুমুল আলোচনা। অবস্থার পরিপ্রেক্ষিতে দেখা যাচ্ছে দুই বছরের বিশ্বকাপের সিদ্ধান্তেই সিলমোহর পড়তে যাচ্ছে।

মাস তিনেক আগে দু’বছর পরপর বিশ্বকাপ আয়োজন করার ইচ্ছা প্রকাশ করেছিল ফিফা। কিন্তু ফিফার এই সিদ্ধান্ত মেনে নিতে পারছে না ইউরোপের ক্লাবগুলো।

গত বুধবার উয়েফা কংগ্রেসে এই প্রস্তাব নিয়ে আলোচনাও হয়েছে; কিন্তু তাতে খুব একটা সম্মতি নেই উয়েফার। বিশ্বকাপের নিয়ম পরিবর্তনের পক্ষপানি নয় তারা। শুধু তাই নয়, ইউরোপের ক্লাবগুলো ফিফার এই সিদ্ধান্তের কড়া সমালোচনা করেছে। তারা বলেছে, ফিফার এই সিদ্ধান্তের ফলে বিশ্বব্যাপি ক্লাব ফুটবলের ওপর ধ্বংসাত্মক প্রভাব পড়বে।

২৩৪টি ক্লাবকে নিয়ে গঠন করা হয়েছে ইউরোপিয়ান ক্লাব অ্যাসোসিয়েশন। যে অ্যাসোসিয়েশনের সভাপতি পিএসজি সভাপতি নাসের আল খেলাইফি। তিনি মনে করেন, আন্তর্জাতিক ম্যাচের ক্যালেন্ডার তৈরিতে ফিফা তাদের সঙ্গে কোনো আলোচনাই করেনি। এতে করে সামগ্রিকভাবে ফুটবলেরই ক্ষতি হবে।

ফিফা সভাপতি জিয়ানি ইনফান্তিনো চান দু’বছর অন্তর বিশ্বকাপ অনুষ্ঠিত হোক। এই নিয়ে গত মে মাস থেকে আলোচনাও শুরু হয়। ফিফার পক্ষ থেকে উয়েফাতে প্রস্তাব পাঠিয়ে দেয়া হয়েছে এরই মধ্যে।

এই প্রস্তাব নিয়ে চিন্তা-ভাবনা শুরু হয়েছে ইউরোপীয় ফুটবল মহলে। তবে দু’বছর অন্তর বিশ্বকাপ চায় না ইউরোপের ক্লাবগুলো। কারণ, পুরো মৌসুমের ফুটবল সূচি আগে থেকেই তৈরি থাকে। বিভিন্ন লিগ খেলে ক্লাবগুলো। এরমধ্যে বিশ্বকাপ খেলা কঠিন বলে দাবি করা হয়।

ইউরোপিয়ান ক্লাব অ্যাসোসিয়েশন শুক্রবার একটি বিবৃতি প্রকাশ করে। সেখানে তারা লিখেছে, ‘ফুটবলের এ ধরনের টুর্নামেন্ট আয়োজন করতে গেলে সব পক্ষের সমন্বয়ের প্রয়োজন হয়। অথচ এ ধরনের সিদ্ধান্ত নেয়া হচ্ছে ফিফার পক্ষ থেকে ইউরোপিয়ান ক্লাবগুলোর সঙ্গে করা মেমোরেন্ডাম অব আন্ডারস্ট্যান্ডিং (এমওইউ) - এর চূড়ান্ত বরখেলাপ। ক্লাবের সঙ্গে ফিফার এই সম্পর্কের অর্থই হচ্ছে গুরুত্বপূর্ণ পরিবর্তনগুলোতে ক্লাবগুলোকে সম্পৃক্ত রাখা। তাতে সব পক্ষ বসে একটা ভালো সিদ্ধান্ত নেয়া যাবে।’

আইএইচএস/

করোনা ভাইরাসের কারণে বদলে গেছে আমাদের জীবন। আনন্দ-বেদনায়, সংকটে, উৎকণ্ঠায় কাটছে সময়। আপনার সময় কাটছে কিভাবে? লিখতে পারেন জাগো নিউজে। আজই পাঠিয়ে দিন - [email protected]