শিরোপা লড়াই জিইয়ে রাখলো লিভারপুল

স্পোর্টস ডেস্ক
স্পোর্টস ডেস্ক স্পোর্টস ডেস্ক
প্রকাশিত: ০৮:৩৭ এএম, ১৮ মে ২০২২

লিভারপুল হারলেই সব হিসেব নিকেশ শেষ হয়ে যেতো। এক ম্যাচ হাতে রেখে শিরোপা নিশ্চিত হয়ে যেতো ম্যানচেস্টার সিটির। সেটা হলো না। পেপ গার্দিওলার দলকে শেষ ম্যাচ পর্যন্ত অপেক্ষায় রাখলো অলরেডরা।

মঙ্গলবার রাতে সাউদাম্পটনের মাঠে শুরুতে পিছিয়ে পড়েও ২-১ গোলের জয় তুলে নিয়েছে লিভারপুল। এই জয়ে শিরোপা লড়াইয়ে টিকে রইলো তারা।

৩৭ ম্যাচ শেষে লিভারপুলের পয়েন্ট ৮৯। সমান ম্যাচে ম্যানচেস্টার সিটির পয়েন্ট ৯০। দুই দলের শেষ ম্যাচটিই তাই এখন ঠিক করবে, ট্রফি কার হাতে উঠছে।

মঙ্গলবার রাতে সেন্ট মেরি স্টেডিয়ামে বল দখল থেকে শুরু করে সব কিছুতেই এগিয়ে ছিল লিভারপুল। ম্যাচে মোট ২৫টি শট নেয় তারা, যার ৫টি ছিল লক্ষ্যে। অন্যদিকে ৪ শট নিয়ে দুটি লক্ষ্যে রাখতে পারে সাউদাম্পটন।

দাপট দেখিয়ে খেলা ম্যাচে অবশ্য ১৩ মিনিটের মাথায় পিছিয়ে পড়েছিল লিভারপুল। বক্সের বাঁ দিক থেকে ডান পায়ের শটে বল জালে জড়িয়ে দেন সাউদাম্পটনের নাথান রেডমন্ড।

jagonews24

তবে বেশিক্ষণ সেই গোল ধরে রাখতে পারেনি সাউদাম্পটন। ২৭ মিনিটে দিয়েগো জটার অ্যাসিস্ট থেকে বক্সের ডান দিক থেকে শটে সমতা ফেরান তাকোমি মিনামিনো।

সমতায় ফেরার পর আক্রমণের ধার বাড়ায় রেডরা। জটা, ফিরমিনোরা একের পর এক সুযোগ তৈরি করেন। তবে প্রথমার্ধে আর ব্যবধান বাড়াতে পারেনি জার্গেন ক্লপের দল।

দ্বিতীয়ার্ধে ৪৯ মিনিটে জটার বাঁ পায়ের শট একটুর জন্য পোস্ট পায়নি। ৫৬ মিনিটে হার্ভে এলিয়ট আর ৬২ মিনিটে কুর্তিস জোনসের শটও ক্লোজ ছিল। অবশেষে সমতা ভাঙে লিভারপুল ৬৭ মিনিটে। কর্নার থেকে বল বক্সের মাঝখানে পেয়ে দারুণ হেডে গোল করেন জোয়েল মাতিপ।

এরপরও আক্রমণের পর আক্রমণ করে গেছেন ফিরমিরো, জোনসরা। তবে ব্যবধান আর বাড়ানো যায়নি। ২-১ গোলের জয় নিয়েই মাঠ ছাড়ে ক্লপের দল।

এমএমআর/জিকেএস

করোনা ভাইরাসের কারণে বদলে গেছে আমাদের জীবন। আনন্দ-বেদনায়, সংকটে, উৎকণ্ঠায় কাটছে সময়। আপনার সময় কাটছে কিভাবে? লিখতে পারেন জাগো নিউজে। আজই পাঠিয়ে দিন - [email protected]