কিংস-মোহনবাগানের আড়ালে দুই বাংলার ফুটবল লড়াই

বিশেষ সংবাদদাতা
বিশেষ সংবাদদাতা বিশেষ সংবাদদাতা
প্রকাশিত: ০৮:৩১ পিএম, ২০ মে ২০২২

গত ১৯ এপ্রিল কলকাতার যুব ভারতী ক্রীড়াঙ্গনে এএফসি কাপের প্লে-অফ ম্যাচে মুখোমুখি হয়েছিল দুই বাংলার দুই জনপ্রিয় ফুটবল ক্লাব আবাহনী ও মোহনবাগান। বাংলাদেশ প্রিমিয়ার লিগের ৬ বারের চ্যাম্পিয়ন আবাহনী সে ম্যাচে পেরে ওঠেনি স্বাগতিকদের সঙ্গে। হেরেছিল ৩-১ গোলে।

একমাস পর সেই মাঠেই শনিবার দুই বাংলার আরেকটি ফুটবল লড়াই। এবার ভারতের মোহনবাগানের প্রতিপক্ষ বাংলাদেশের বসুন্ধরা কিংস। বাংলাদেশ প্রিমিয়ার লিগের সর্বশেষ দুইবারের চ্যাম্পিয়নরা কী পারবে আবাহনীর হারের প্রতিশোধ নিতে?

এ ম্যাচটি কেবল দেশের ফুটবলের প্রতিশোধের বিষয় না, বিষয় বসুন্ধরা কিংসের এএফসি কাপের আঞ্চলিক সেমিফাইনাল খেলার সম্ভাবনা উজ্জ্বল করারও। মালদ্বীপের মাজিয়া স্পোর্টস অ্যান্ড রিক্রিয়েশন ক্লাবের বিপক্ষে প্রথম ম্যাচ জিতে একটা ভালো অবস্থানে রয়েছে অস্কার ব্রুজনের দল। প্রথম ম্যাচ জেতা যে কোন দলের জন্যই একটা শুভ সুচনা। সেই শুভ সূচনার ফলটাও তুলে নিতে চায় বাংলাদেশের কিংস।

যে চারটি দল নিয়ে ‘ডি’ গ্রুপটা সেখানে ধারে ও ভারে সবচেয়ে বড় দল মোহনবাগান; কিন্তু দলটির শুরু ভালো হয়নি মোটেও। নিজ দেশের ক্লাব গোকুলাম কেরালার কাছে ৪-২ গোলে বিধ্বস্ত হয়ে মিশন শুরু করা দলটির সামনে বড় চ্যালেঞ্জ বসুন্ধরা কিংস। বাংলাদেশ সময় বিকেল ৫টায় শুরু হতে যাওয়া ম্যাচটিতে পূর্ণ পয়েন্ট চাই স্বাগতিকদের। হারলে বা ড্র করলে তাদের পরের রাউন্ডে ওঠা কঠিন হয়ে যাবে।

বসুন্ধরা কিংস প্রথম ম্যাচে মাজিয়াকে হারিয়ে সুবিধাজনক অবস্থানে থেকেই মাঠে নামবে মোহনবাগানের বিপক্ষে। জিতে গেলে আঞ্চলিক সেমিফাইনালে ওঠার দরজটা প্রায় খুলেই যাবে কিংসের জন্য। বাংলাদেশ প্রিমিয়ার লিগের দলটি এবার সেই লক্ষ্য নিয়েই এএফসি কাপের মিশন শুরু করেছে। শুরুটা যেহেতু ভালো হয়েছে, শেষ দুটো ম্যাচেও ভালো করতে যায় বাংলাদেশের কিংসরা।

দিনের দ্বিতীয় ম্যাচে মুখোমুখি হবে গ্রুপের অন্য দুই দল মালদ্বীপের মাজিয়া স্পোর্টস অ্যান্ড রিক্রিয়েশন ক্লাব ও ভারতের গোকুলাম কেরালা।

আরআই/আইএইচএস/

করোনা ভাইরাসের কারণে বদলে গেছে আমাদের জীবন। আনন্দ-বেদনায়, সংকটে, উৎকণ্ঠায় কাটছে সময়। আপনার সময় কাটছে কিভাবে? লিখতে পারেন জাগো নিউজে। আজই পাঠিয়ে দিন - [email protected]