জিতলেই শেষ ষোলতে চ্যাম্পিয়ন ফ্রান্স

বিশেষ সংবাদদাতা
বিশেষ সংবাদদাতা বিশেষ সংবাদদাতা
প্রকাশিত: ০৫:০২ পিএম, ২৬ নভেম্বর ২০২২

ইনজুরির বড় ধরনের ধাক্কার পরও কাতার বিশ্বকাপে গতবারের চ্যাম্পিয়ন ফ্রান্সের সূচনা হয়েছে দুর্দান্ত। অস্ট্রেলিয়ার বিপক্ষে পিছিয়ে গিয়েও ৪-১ গোলের জয় নিয়ে শিরোপা ধরে রাখার মিশন শুরু করেছে এমবাপে-গ্রিজম্যানরা। শনিবার রাত ১০টায় দোহার ৯৭৪ স্টেডিয়ামে চ্যাম্পিয়নরা দ্বিতীয় ম্যাচ খেলতে নামছে ইউরোপের আরেক শক্তিশালী দল ডেনমার্কের বিপক্ষে।

ফ্রান্সের সামনে সমীকরণটা পরিষ্কার। জিতলেই নিশ্চিত হবে শেষ ষোলতে খেলা। হারলে বা ড্র করলে সামনে চলে আসবে নানান সমীকরণ। দিদিয়ের দেশমের দল ওই জটিল সমীকরণে পড়তে চাইবে না নিশ্চয়ই। পরপর দুই ম্যাচ জিতে তারা নিশ্চিত করতে চাইবে নকআউট পর্বের টিকিট।

ডেনমার্ক প্রথম ম্যাচে তিউনিশিয়ার বিপক্ষে গোলশূন্য ড্র করায় তাদের জন্য এই ম্যাচটা জেতা খুবই জরুরি। আর ফ্রান্স চাইলেই যে ডেমনার্ককে হারিয়ে দেবে তাও বলছে না অতীত। এই দুই দলের অতীত সাক্ষাতের পরিসংখ্যান বলছে তাদের মধ্যে হয় হাড্ডাহাড্ডি লড়াই। এক ম্যাচ ফ্রান্স জেতে তো পরের ম্যাচ ডেনমার্ক।

দুই দল এ পর্যন্ত মুখোমুখি হয়েছে ১৬ বার। জয়ের পাল্লাটা একটু ঝুলে আছে ফ্রান্সের দিকে। দুবারের বিশ্ব চ্যাম্পিয়ন ফ্রান্স জিতেছে ৮ বার, ৬ বার জিতেছে ডেনমার্ক। ড্র হয়েছে মাত্র দুটি ম্যাচ। তবে সর্বশেষ দুবারের সাক্ষাতের দুবারই ফ্রান্সকে হারিয়ে দিয়েছে ডেনমার্ক। এ বছর উয়েফা ন্যাশন্স লিগে দুই ম্যাচের প্রথমটিতে ডেনমার্ক জিতেছে ২-১ গোলে, দ্বিতীয় ম্যাচ ২-০ গোলে।

এই ম্যাচে একটি রেকর্ডের সামনে দাঁড়িয়ে দলের ফরোয়ার্ড জিরু। অস্ট্রেলিয়ার বিপক্ষে গোল করে তিনি ছুঁয়েছেন দেশের হয়ে সবচেয়ে বেশি ৫১ গোল করা থিয়েরি অঁরিকে।

এই ম্যাচে গোল পেলেই ফ্রান্সের জার্সিতে সবচেয়ে বেশি গোল করার মালিক হবেন এসি মিলানের এই ফরোয়ার্ড। এমবাপে, জিরু, গ্রিজম্যান, ডেম্বেলেরা কোচ দিদিয়ের দেশমকে স্বস্তি দিয়েছেন অস্ট্রেলিয়ার বিপক্ষে ম্যাচে। তবে ডেনমার্কের বিপক্ষে কোচ দেশম আরও সতর্ক হয়েই খেলাতে চান।

কোনো প্রতিপক্ষকেই ছোট করে দেখছেন না ফরাসি কোচ, ‘আধুনিক ফুটবলে ছোট দল বলে কোনো কথা নেই। ডেনমার্কের বিপক্ষে এর আগে আমরা সেটা দেখেছিলাম। সাম্প্রতিক সময়ে তাদের কাছে দুই ম্যাচ হারের বিষয়টা আমাদের মাথায় রাখতে হবে।’

আইএইচএস/

পাঠকপ্রিয় অনলাইন নিউজ পোর্টাল জাগোনিউজ২৪.কমে লিখতে পারেন আপনিও। লেখার বিষয় ফিচার, ভ্রমণ, লাইফস্টাইল, ক্যারিয়ার, তথ্যপ্রযুক্তি, কৃষি ও প্রকৃতি। আজই আপনার লেখাটি পাঠিয়ে দিন [email protected] ঠিকানায়।