অনুমতির অপেক্ষায় আইপিএল, আজই চূড়ান্ত হবে সব

স্পোর্টস ডেস্ক
স্পোর্টস ডেস্ক স্পোর্টস ডেস্ক
প্রকাশিত: ০২:২৬ পিএম, ০২ আগস্ট ২০২০

সংযুক্ত আরব আমিরাতে তোরোতম আইপিএল আয়োজন করার জন্য পুরোপুরি প্রস্তুত ভারতীয় ক্রিকেট বোর্ড (বিসিসিআই)। যদিও এখনও ভারতের কেন্দ্রীয় সকারের কাছ থেতে অনুমতি মেলেনি। আজই (রোববার) নিশ্চিত হয়ে যাবে আইপিএল আয়োজনের স্থান এবং সূচি। ক্রিকেটারদের স্বাস্থ্য ও জৈব সুরক্ষা বলয় তৈরি করার সম্ভাবনা নিয়েও বৈঠকে বসবে আইপিএলের গভর্নিং কাউন্সিল।

আজকের বৈঠক থেকে অনেক প্রশ্নের উত্তরও জেনে যাবে ফ্রাঞ্চাইজিগুলো। মূলতঃ আরব আমিরাতে প্রায় ১২০০ মানুষের জন্য মোট ৬০ হাজার নাইট রুম ভাড়া করা প্রয়োজন। এ বিষয়ে অগ্রগতি কি, সে সব নিয়েও আলোচনা হবে আজ।

আইপিএল গভর্নিং কাউন্সিলের বৈঠকে বিসিসিআই সভাপতি সৌরভ গাঙ্গুলি এবং কার্যনির্বাহী কমিটির বাকি সদস্যরাও যোগ দেবেন। মিটিংয়ে যোগ দেবেন ফ্রাঞ্চাইজিদের কর্মকর্তারাও।

মোট ১০ থেকে ১১টি বিষয় নিয়ে আলোচনা হবে বৈঠকে।

১) শেষ তিনটি বৈঠকের সিদ্ধান্ত নিয়ে শুনানি।

২) সরকারি নির্দেশের অপেক্ষা: সংযুক্ত আরব আমিরাতে ম্যাচ আয়োজন করার সরকারি অনুমতি এখনও পায়নি বোর্ড।

৩) সময় ও সূচি : ৫১ দিন ও অথবা ৫৩ দিনের প্রতিযোগিতা হতে পারে।

৪) চিনা স্পনসর: গতবারের মতো এবারও আইপিএলের স্পনসর হয়তো থাকছে চীনা মোবাইল প্রস্তুতকারক কোম্পানি। এসব নিয়েই বিস্তারিত আলোচনা হবে।

৫) স্ট্যান্ডার্ড অপারেটিং পদ্ধতি : ক্রিকেটারদের কয়েকদিন পরপর করোনা পরীক্ষা করা হবে। কিভাবে জৈবিক সুরক্ষা বলয় তৈরি করা যায়, তা নিয়ে আলোচনা হবে।

৬) কর্মকর্তারা যাতায়াত করবেন কি না : গভার্নিং কাউন্সিলের সদস্যেরা সে দেশের বিভিন্ন প্রান্তে যাতায়াত করার সুযোগ পাবেন কি না তা নিয়ে প্রশ্ন থাকছে।

৭) পরিবর্তিত ক্রিকেটারদের তালিকা: এখনও দক্ষিণ আফ্রিকার সীমান্ত বন্ধ। এবি ডি ভিলিয়ার্স, কাগিসো রাবাদারা খেলতে পারবেন কি না প্রশ্ন থাকছেই। তাদের পরিবর্তে ক্রিকেটার বাছাই হবে কি তা নিয়ে আলোচনা হবে।

৮) দুর্নীতি-দমন শাখা : আইপিএলে ফিক্সিং কিংবা যে কোনো ধরনের দুর্নীতি রুখতে ভারতীয় প্রতিনিধি উড়িয়ে নিয়ে যাওয়া হবে নাকি সে দেশেই সদস্যদের দায়িত্ব দেওয়া হবে তা নিশ্চিত নয়।

৯) চিকিৎসকদের দল : ভারতীয় বোর্ডের পক্ষ থেকে চিকিৎসকদের দল উড়ে যাবেন আরব আমিরাতে।

১০) জৈবিক সুরক্ষা বলয় তৈরি করার ভাবনা: ইংল্যান্ডে জৈবিক সুরক্ষা বলয় যারা তৈরি করেছেন। তাদের সঙ্গে আলোচনা হবে বৈঠকে।

১১ ) ক্রিকেটারদের পরিবারের সদস্যরা, বিশেষকরে স্ত্রী কিংবা বান্ধবী সঙ্গে থাকতে পারবেন কি না, তা নিয়েও আলোচনা হবে।

আইএইচএস/এমএস

করোনা ভাইরাসের কারণে বদলে গেছে আমাদের জীবন। আনন্দ-বেদনায়, সংকটে, উৎকণ্ঠায় কাটছে সময়। আপনার সময় কাটছে কিভাবে? লিখতে পারেন জাগো নিউজে। আজই পাঠিয়ে দিন - [email protected]