টিকটকের আদলে ভারতে ইউটিউবের শর্ট ভিডিও অ্যাপ

তথ্যপ্রযুক্তি ডেস্ক
তথ্যপ্রযুক্তি ডেস্ক তথ্যপ্রযুক্তি ডেস্ক
প্রকাশিত: ১১:০৫ এএম, ১৬ সেপ্টেম্বর ২০২০

টিকটকের প্রতিদ্বন্দ্বী হিসেবে একটি শর্ট ভিডিও অ্যাপ তৈরি করেছে ইউটিউব।

ইউটিউবের তৈরি এই শর্ট ভিডিও অ্যাপের বেটা ভার্সনের ট্রায়াল ভারতে চালানো হবে বলে জানিয়েছে প্রতিষ্ঠানটি।

এক প্রতিবেদনে ইউটিউবের পণ্য পরিচালনা বিভাগের ভাইস প্রেসিডেন্ট ক্রিস জেফ বলেন, ইউটিউবের এই অ্যাপ সেই সকল ভিডিও নির্মাতা এবং শিল্পীদের জন্যই করা হয়েছে, যারা কিনা মোবাইল ফোন দিয়েই স্বল্প দৈর্ঘ্যের এবং আকর্ষণীয় ভিডিও নির্মাণে আগ্রহী।

ইউটিউবের এই অ্যাপে একাধিক ভাবে ক্যামেরা ব্যবহারের ফিচার রয়েছে। গ্রাহকরা একটি ভিডিওতে একাধিক ভিডিও একসাথে যোগ করতে পারবেন, এমনকি ভিডিওর গতি কমাতে বাড়াতে পারবেন।

টিকটকের মত ফোনের লাইব্রেরি থেকে গান বা সুর নির্বাচন করে তা ভিডিওতে যোগ করতে পারবেন।

ইউটিউবের তৈরি এই শর্ট ভিডিও অ্যাপে আপলোড করা ভিডিওর সর্বোচ্চ সময়সীমা ১৫ সেকেন্ড পর্যন্ত সীমাবদ্ধ করা হয়েছে।

হ্যান্ডস ফ্রি রেকর্ডিংয়ে টাইমার এবং কাউন্টডাউনের ফিচার যোগ করেছে ইউটিউব।

অ্যাপটিতে ভিডিও নির্মাণের টুলস গুলো প্রায় চীনা প্রতিষ্ঠান বাইটড্যান্সের অ্যাপ্লিকেশন টিকটকের মত করেই দেওয়া হয়েছে।

ভারতে টিকটক নিষিদ্ধ ঘোষণার পরে গ্রাহকদের বিনোদনের চাহিদা পূরণে এবং ভারতে টিকটকের বাজার ধরতে প্রতিযোগী প্রতিষ্ঠানগুলোর পাশাপাশি উঠে পড়ে লেগেছে ইউটিউবও।

ভারত এবং চীন দেশ দু’টির অভ্যন্তরীণ এবং সীমান্তবর্তী কোন্দলকে কেন্দ্র করে চলতি বছরের জুনে দেশটিতে টিকটকসহ ৫৮টি চীনা অ্যাপ নিষিদ্ধ করেছে ভারত।

ভারতে টিকটক নিষিদ্ধ ঘোষণা করায় বিশ্বের সব থেকে বড় বৈশ্বিক বাজার হারিয়েছে প্রতিষ্ঠানটি। একমাত্র ভারতেই টিকটকের ১২ কোটিরও বেশি গ্রাহক ছিল।

আশরাফুল আলম খন্দকার/ এএ

করোনা ভাইরাসের কারণে বদলে গেছে আমাদের জীবন। আনন্দ-বেদনায়, সংকটে, উৎকণ্ঠায় কাটছে সময়। আপনার সময় কাটছে কিভাবে? লিখতে পারেন জাগো নিউজে। আজই পাঠিয়ে দিন - [email protected]