জোকস

আজকের কৌতুক : বাসর ঘরে মজার কাণ্ড

কৌতুক এক : বাসর ঘরে মজার কাণ্ড

রংপুরের এক ছেলের বিয়ে হয়েছে। বাসর রাত। বর-বউ ঘরের ভেতর। এদিকে বাসর ঘরে খাটের নিচে এক চোর বসে আছে। নবদম্পতি ঘুমালেই সব চুরির ধান্দা। এদিকে বাসর ঘরে বর বউকে জিজ্ঞাসা করে-বর: অ্যালাই মুই তোরে কী কং?বউ কোনো উত্তর দেয় না। কিছুক্ষণ যায়, আবার একই প্রশ্ন-বর: অ্যালাই মুই তোরে কী কং?

বউ আবার চুপচাপ। এভাবে রাত পেরিয়ে ভোর হয় হয় ভাব কিন্তু বউ আর প্রশ্নের উত্তর দেয় না। এদিকে খাটের নিচে চোর মহা বিরক্ত। একটু পর সকাল হয়ে যাবে। চুরি করা তো হবেই না প্রাণটা না যায়!

আবার বরের প্রশ্ন-বর: অ্যালাই মুই তোরে কী কং?রেগে মেগে চোর খাটের নিচে থেকে বলে উঠলো-চোর: অ্যালাই তুই অরে ‘মা’ ক।

আরও পড়ুন: আজকের কৌতুক: শুধু তোমাকেই ভালোবাসি

****

কৌতুক দুই : কৃপণ প্রেমিক-প্রেমিকা

এক কৃপণ ছেলের সঙ্গে এক কৃপণ মেয়ের প্রেম চলছে। একদিন রাতে মেয়েটি তার বয়ফ্রেন্ডকে আসতে বললতার বাসায়। মেয়ে: সবাই ঘুমিয়ে পড়লে আমি উপর থেকে একটা কয়েন ফেলবো। তুমি কয়েনের শব্দ পেলে চুপিচুপি উপরে চলে আসবে।

কথামতো রাতে সবাই ঘুমিয়ে পড়লে মেয়েটি নিচে কয়েন ফেললো। কয়েন পড়ার ঝনঝন শব্দ হলো। কিন্তু বয়ফ্রেন্ডের আসার আর নাম নেই। প্রায় এক ঘণ্টা পরে চুপিচুপি বয়ফ্রেন্ডের আগমন।মেয়ে: কী ব্যাপার? এতক্ষণ লাগালে যে? কয়েন ফেলার শব্দ পাওনি?ছেলে: পেয়েছি তো, কিন্তু অন্ধকারে কয়েনটা খুঁজতে খুঁজতে দেরি হয়ে গেলো।মেয়ে: আরে ধুর, আমি কি অত বোকা? কয়েনটা তো আমি সুতো দিয়ে বেঁধে নিচে ফেলে আবার উপরে তুলে নিয়েছি!

আরও পড়ুন: আজকের কৌতুক: অল্পের জন্য রক্ষা

****

কৌতুক তিন : যুবতী বানানোর মেশিন

জলিল মিয়ার বয়স ৫০, স্ত্রীর বয়স ৪০ আর ছেলের বয়স ১৮ বছর। তারা সবাই গ্রামে থাকে। জীবনে কোনদিন শহরে যায়নি।

একদিন তারা শহরে ঘুরতে এলো। ঘুরতে- ঘুরতে তারা এক শপিং মলে ঢুকলো। শপিং মলে হাঁটতে-হাঁটতে তারা ক্যাপসুল লিফটের সামনে এসে থামলো। তাদের তিনজনের মনেই এক প্রশ্ন- এটা কী জিনিস?

এমন সময় এক বৃদ্ধা এসে লিফটে ঢুকলো। লিফট বৃদ্ধাকে নিয়ে উপরে উঠে গেল। এটা দেখে তো মা-বাবা-ছেলে অবাক! কিছুক্ষণ পর এক তরুণী লিফটে চড়ে নেমে এলো। তারপর লিফট থেকে বের হয়ে চলে গেল। এতক্ষণে মুখ খুলল জলিল মিয়া-

জলিল: ও বল্টুর মা, এইডা তো দেহি যুবতী বানানোর মেশিন, তুমি শিগগির ঢোকো!

এইচএন/জেআইএম