ক্যাম্পাস

জাবির বিতর্কিত ছাত্র শৃঙ্খলা বিধির দুটি ধারা বাতিলের দাবি

জাহাঙ্গীরনগর বিশ্ববিদ্যালয়ের ছাত্র শৃঙ্খলা বিধিতে সংযোজিত নতুন দুটি ধারা বাতিলের দাবিতে উপাচার্য বরাবর স্মারকলিপি দিয়েছে বিশ্ববিদ্যালয়ে কর্মরত সাংবাদিকরা। বৃহস্পতিবার বিকেল ৪টায় উপাচার্যের কার্যালয়ে তার একান্ত সচিব সানোয়ার হোসেনর কাছে এই স্মারকলিপি দেয়া হয়।

স্মারকলিপিতে বলা হয়, ধারা দুটির মাধ্যমে শিক্ষার্থীদের গণমাধ্যম ও মত প্রকাশের স্বাধীনতায় হস্তক্ষেপ করা হয়েছে। ফলে দেশে গণমাধ্যম কর্মীদের জন্য প্রচলিত জাতীয় নীতিমালাকে বৃদ্ধাঙ্গুলি দেখানো হয়েছে।

ক্যাম্পাসে কর্মরত কোনো সাংবাদিকের সঙ্গে আলোচনা না করে প্রণীত এ ধারায় স্বাধীন সাংবাদিকতা ও মত প্রকাশের স্বাধীনতায় সরাসরি হস্তক্ষেপ করা হয়েছে। এর তীব্র নিন্দা ও প্রতিবাদ জানিয়ে অবিলম্বে ধারা দুটি বাতিলের দাবি জানানো হয়।

সম্প্রতি ছাত্র-ছাত্রী শৃঙ্খলা সংক্রান্ত অধ্যাদেশ হালনাগাদ করে দুটি নতুন ধারা যুক্ত করে বিশ্ববিদ্যালয় প্রশাসন। নতুন দুটি ধারা নিয়ে শিক্ষক, শিক্ষার্থী, কর্মরত সাংবাদিক এবং ছাত্র সংগঠনগুলো মধ্যে তীব্র ক্ষোভের সৃষ্টি হয়।

অধ্যাদেশের ৫ এর (ঞ) নং ধারায় বলা হয়, ‘অসত্য বা তথ্য বিকৃত করে বিশ্ববিদ্যালয় সংক্রান্ত কোনো সংবাদ বা প্রতিবেদন স্থানীয়/জাতীয়/আন্তর্জাতিক প্রিন্ট ও ইলেক্ট্রনিক সংবাদ মাধ্যমে/সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে প্রকাশ/প্রচার করা বা উক্ত কাজে সহযোগিতা করতে পারবে না।’

৫ এর (থ) নং ধারায় বলা হয়, ‘কোনো ছাত্র-ছাত্রী বিশ্ববিদ্যালয়ের কোনো ছাত্র-ছাত্রী, শিক্ষক, কর্মকর্তা, কর্মচারীর উদ্দেশে টেলিফোন, মোবাইল ফোন, ই-মেইল, ইন্টানেটের মাধ্যমে কোনো অশ্লীল বার্তা বা অসৌজন্যমূলক বার্তা প্রেরণ অথবা উত্ত্যক্ত করতে পারবে না।’

হাফিজুর রহমান/এমবিআর/এমকেএইচ