আন্তর্জাতিক

করোনা ঠেকাতে মদের দোকানে ইলেকট্রিক বেড়া

মহামারি করোনাভাইরাসের বিস্তার ঠেকাতে ব্রিটিশ এক মদ ব্যবসায়ী তার মদের দোকানের (বার) সামনে ইলেকট্রিক বেড়া দিয়েছেন। তার দাবি, ভয় পেয়ে সামাজিক দূরত্ব মেনে যাতে মানুষ সেবা নিতে পারে এজন্যই তিনি এমন ব্যবস্থা নিয়েছেন। খবর ব্রিটিশ সংবাদমাধ্যম বিবিসির।

বিবিসির প্রতিবেদনে বলা হচ্ছে, এমন কাজটি করেছেন জনি ম্যাকফ্যাডেন নামের এক মদ ব্যবসায়ী। তিনি দেশটির দক্ষিণ-পশ্চিমাঞ্চলের কর্নওয়াল কাউন্টির সেন্ট ডাস্ট শহরে স্টার ইন নামে একটি মদের দোকান পরিচালনা করেন। জনি বলছেন, সীমিত স্থানের কারণে তিনি আপাতত খাবার ও পানীয় বিক্রি করছেন।

জনি ম্যাকফ্যাডেন অবশ্য দাবি করছেন তিনি যে প্রতিবন্ধকতা তৈরি করেছেন সেটা ‘একেবারে সাধারণ একটি ইলেকট্রিক বেড়া, যেগুলো আবাদি জমিতে দেখতে পাবেন’। যদি এটা চালু করা থাকে তাহলে এর কাছাকাছি আসার ব্যাপারে মানুষের মনে একটা ভয় কাজ করবে। আর এটাই মূলত এর কার্যকারিতা।

ওই মদ ব্যবসায়ী বলছেন, মানুষকে স্বাভাবিকভাবে তিনি সামাজিক দূরত্ব মেনে চলার আহ্বান জানিয়েও যখন যথাযথ ফল পাচ্ছিলেন না তখনই এই ব্যবস্থা নেন। এটি দেওয়ার পর যে কাজ ভালোই করছে, সেই প্রসঙ্গে জনি বলছেন, ‘মানুষ এর থেকে দূরে থাকছে কারণে মানুষ আসলে ভেড়ার (ভীতু প্রাণী) মতো।’

তিনি আরও বলেন, ‘তারা (গ্রাহকরা) জানে এটা একটা বেড়া এবং তাই তারা এটা স্পর্শ করে দেখতেও চায় না যে এটা আসলেই বেড়া কি না অর্থাৎ সেটা কাজ করে কিনা।’ তার এই বেড়া দেওয়ার বিষয়টি নিয়ে অনেকে বেশ খুশি এবং অনেকে হাসাহাসিও করছেন বলে জানিয়েছেন জনি ম্যাকফ্যাডেন।

এসএ