মেসির জাদুতে সেমিফাইনালে বার্সেলোনা

স্পোর্টস ডেস্ক প্রকাশিত: ০৮:৪১ এএম, ১৭ এপ্রিল ২০১৯
মেসির জাদুতে সেমিফাইনালে বার্সেলোনা

প্রথম লেগে গোল পাননি। তবে প্রতিপক্ষের মাঠ থেকে পাওয়া ১-০ গোলের জয়ে সরাসরি অবদান ছিলো তার। দ্বিতীয় লেগে যেনো গোল না পাওয়ার আক্ষেপটাই মেটালেন বর্তমান বিশ্বের অন্যতম সেরা তারকা লিওনেল মেসি। আর তাতেই পুড়ে ছারখার ইংলিশ ক্লাব ম্যানচেস্টার ইউনাইটেড।

উয়েফা চ্যাম্পিয়নস লিগের শেষ আটের দ্বিতীয় লেগের ইংল্যান্ডের ঐতিহ্যবাহী ক্লাবটিকে ৩-০ গোলে হারিয়েছে বার্সেলোনা। দুই লেগ মিলে ৪-০ গোলের বড় ব্যবধানে সেমির টিকিট নিশ্চিত করেছে আর্নেস্ত ভালভার্দের দল। দ্বিতীয় লেগে জোড়া গোল করেছেন মেসি, সতীর্থ ফিলিপ্পে কৌতিনহোকে দিয়ে করিয়েছেন অন্যটি।

ঘরের মাঠে লিড পেতে খুব বেশি অপেক্ষা করতে হয়নি কাতালান ক্লাব বার্সেলোনাকে। ম্যাচের ১৬তম মিনিটে অসাধারণ দক্ষতায় দলকে এগিয়ে দেন অধিনায়ক মেসি। প্রতিপক্ষ অধিনায়ক অ্যাশনে ইয়ংয়ের কাছ থেকে বল কেড়ে নিয়ে একজনকে কাটিয়ে খানিক জায়গা বানিয়ে নিজের চিরচেনা বাম পায়ের শটের বল জালে জড়ান মেসি।

মিনিট চারেক পর আবার মেসি জাদু। এবার ডান পায়ের। তবে এতে গোলরক্ষক ডেভিড ডি গিয়ার দায়টাই বেশি। ডি-বক্সের বাইরে থেকে ডানপায়ের দুর্বল শট নেন মেসি, যা ছিল গোলরক্ষক বরাবর। কিন্তু রাখতে পারেননি গিয়া। তার হাতের নিচ দিয়ে জড়িয়ে যায় জালে। চলতি আসরের ১০ম এবং সবমিলিয়ে চ্যাম্পিয়নস লিগে মেসির এটি ১১০তম গোল।

messi

বিরতির ঠিক আগে স্কোরলাইন হতে পারতো ৩-০। মাঝমাঠে বল পেয়ে দারুণ ড্রিবলিং দুইজনকে কাটিয়ে ডি-বক্সের বাম পাশে জর্দি আলবার উদ্দেশ্যে পাস দেন মেসি। সেটি নিয়ন্ত্রণে নিয়ে ডান পাশে থাকা সার্জিও রবার্তোর উদ্দেশ্যে ক্রস দেন আলবা। দারুণ এক শট নেন রবার্তো। কিন্তু জালে ঢোকার মুহূর্তে সেটি ডি গিয়ার মুখে লাগলে গোলবঞ্চিত হয় বার্সেলোনা।

তবে দ্বিতীয়ার্ধে ফিরে ম্যাচের ৬১তম মিনিটে আর শেষ রক্ষা হয়নি রেড ডেভিলদের। এবার নিজের সুনিপুণ দক্ষতার ছাপ রাখেন ব্রাজিলিয়ান ফরোয়ার্ড কৌতিনহো। ডি-বক্সের বাইরে থেকে নিজের চিরচেনা ডান পায়ে বাঁকানো শটে ডি গিয়াকে ফাঁকি দেন তিনি। এতেই মূলত নিশ্চিত হয়ে যায় ম্যাচের ফলাফল।

তবু ম্যাচের শেষদিকে আসে উত্তেজনা। ৮৯তম মিনিটে বদলি খেলোয়াড় অ্যালেক্সিস সানচেজের হেডে ব্যবধান কমাতে পারতো ইউনাইটেড। কিন্তু বল জালে জড়ানোর ঠিক আগমুহূর্তে লাফিয়ে পড়ে সেটি প্রতিহত করেন বার্সা গোলরক্ষক টের স্টেগান। এর এক মিনিট পরই হ্যাটট্রিকের সম্ভাবনা জেগেছিল মেসির। তবে আর জোরালো শট ঠেকিয়ে দেন ডি গিয়া।

৩-০ গোলের সহজ জয় নিয়েই মাঠ ছাড়ে বার্সেলোনা। দিনের অন্য ম্যাচে আয়াক্সের কাছে ১-২ গোলে হেরে কোয়ার্টার ফাইনাল থেকেই বিদায় নিয়েছে ক্রিশ্চিয়ানো রোনালদোর জুভেন্টাস।

এসএএস/জেআইএম

আপনার মতামত লিখুন :

এই বিভাগের সর্বশেষ