1. Home/
  2. খেলাধুলা

নিজেদের ঘরের মাঠে খেলবে না রিয়াল

স্পোর্টস ডেস্ক | প্রকাশিত: ০৯:৩২ এএম, ০২ জুন ২০২০

করোনাভাইরাস পরিস্থিতি সামাল দিয়ে আগামী ১১ জুন থেকে ফের শুরু হতে চলেছে ইউরোপিয়ান ক্লাব ফুটবল অন্যতম জমজমাট আসর স্প্যানিশ লা লিগা। প্রথম ম্যাচে লড়বে সেভিয়া ও রিয়াল বেটিস। এ দফায় দুই রাউন্ডের সূচি ঘোষণা করেছে কর্তৃপক্ষ।

যেখানে টুর্নামেন্টের সবচেয়ে সফল দল রিয়াল মাদ্রিদের ম্যাচ দুইটি যথাক্রমে ১৪ ও ১৮ জুন, এইবার ও ভ্যালেন্সিয়ার বিপক্ষে। দুটিই তাদের হোম ম্যাচ, তবে একটি ম্যাচও নিজেদের হোমগ্রাউন্ড সান্তিয়াগো বার্নাব্যুতে খেলবে না রিয়াল।

শুধু এই দফার দুই রাউন্ডেই নয়, চলতি মৌসুমের বাকি কোন ম্যাচই বার্নাব্যুতে খেলবে না রিয়াল। এর বদলে ম্যাচগুলো হবে রিয়ালেন ট্রেনিং সেন্টার ভালদেবাসের দ্য আলফ্রেড ডি স্টেফানো স্টেডিয়ামে। যা মূলত রিয়ালের যুবদলের জন্য ব্যবহৃত হয়।

তবে করোনাভাইরাসের কারণে খেলা বন্ধ থাকার সময়টা কাজে লাগিয়ে বার্নাব্যুর সংস্কার কাজে হাত দিয়েছে রিয়াল। ফলে চলতি মৌসুমে আর এটিকে পাওয়া যাবে না। তাই ভালদেবাসের মাঠেই তারা নিজেদের হোম ম্যাচগুলো খেলবে।

এতে লাভ হচ্ছে ভালদেবাসেরও। কেননা শীর্ষপর্যায়ের ম্যাচ আয়োজনের জন্য ৬ হাজার ধারণক্ষমতার এ মাঠেও আধুনিকায়ন করা হবে। আগামী ১৪ জুন লা লিগার ম্যাচ শুরুর আগেই নতুন ফ্লাডলাইট, বিজ্ঞাপনী বোর্ড এবং ভিডিও এসিস্ট্যান্ট রেফারিংয়ের প্রযুক্তি স্থাপন করা হবে মাঠে।

রিয়ালের প্রেসিডেন্ট ফ্লোরেন্টিনো পেরেজ নিশ্চিত করেছেন এই খবর। রিয়ালের সমর্থকদের উদ্দেশে লেখা এক খোলা চিঠির মাধ্যমে এটি জানিয়েছেন পেরেজ।

তিনি লিখেছেন, ‘আমরা সিদ্ধান্ত নিয়েছি আলফ্রেড ডি স্টেফানো স্টেডিয়ামে বাকি ম্যাচগুলো খেলার। যেখানে আমরা হোম টিম হয়েই মাঠে নামব। এ সিদ্ধান্তের ফলে সান্তিয়ার্গো বার্নবাব্যুর উন্নয়ন কাজ দ্রুত শেষ করা সম্ভব হবে।’

বার্নাব্যুর সংস্কার কাজ শেষ হওয়ার কথা ছিল ২০২২ সালের মাঝামাঝি সময়ে। তবে এখন খেলা না চালানোর সিদ্ধান্তে সেটি আরও আগে শেষ হবে বলেই আশা বিশেষজ্ঞদের। ফলে এ মৌসুমে বার্নাব্যুতে খেলা না হলেও, সবাই সাদরে গ্রহণ করেছে এ সিদ্ধান্ত।

বার্নাব্যুর সংস্কার কাজের মধ্যে অন্যতম দুইটি বিষয় হলো অপসারণযোগ্য ছাদ এবং ফুটবল মাঠে সরানোর উপযোগী টার্ফ। যাতে এখানে অন্যান্য অনুষ্ঠানও সম্পন্ন করা যায়।

এসএএস/জেআইএম