সাগর পাড়ে মুশফিক-তামিমদের ক্রিকেট উৎসব

ক্রীড়া প্রতিবেদক
প্রকাশিত: ০৬:৩৮ পিএম, ২২ নভেম্বর ২০১৭
সাগর পাড়ে মুশফিক-তামিমদের ক্রিকেট উৎসব

আজ ২২ নভেম্বর কক্সবাজার সীগাল হোটেলের সম্মুখের বিচে ক্রিকেট খেললেন জাতীয় দলের তারকা ক্রিকেটাররা। তবে এই খেলাটা ছিল একটু ভিন্ন রঙয়ের, ভিন্ন ধরণের।

বরাবরই ক্রিকেটাররা ক্রিকেট খেলেন, আর দর্শকরা খেলা দেখেন গ্যালারিতে বসে কিংবা বাসার ড্রইং রুমে। পছন্দের তারকা ক্রিকেটাররা থেকে যান ধরা-ছোঁয়ার বাহিরে। তাই তারকাদের সাথে ভক্ত-দর্শকদের মেলবন্ধন তৈরী করা জন্য আয়োজন করা হয়েছিল এই ক্রিকেট ম্যাচের।

যেখানে দর্শকরা খুব কাছে থেকে দেখার সুযোগ পেয়েছেন পছন্দের ক্রিকেটারকে। শুধু তাইই নয়, অটোগ্রাফ, ফটোগ্রাফ আর সেলফি তোলার সুযোগও ছিলো এই আয়োজনে।

আর এই দারুণ আয়োজনের সুযোগ করে দিয়েছে 'গ্রামীন ফোন'। আর তাইতো এই ম্যাচের টাইটেল দেয়া হয়েছে-'গ্রামীন ফোন বিচ ক্রিকেট'। আর তাদের সাথে ছিল লাইভ টেকনোলজিস লিমিটেড। খেলোয়াড়দের সকল প্রকাশ সুযোগ সুবিধা প্রদান ও এই আয়োজনকে সুন্দর ও গোছানো করে তুলেছে লাইভ টেকনোলজি।

এই বিচ ক্রিকেট ম্যাচে অংশ নিয়েছেন তামিম ইকবাল, মুশফিকুর রহিম, সাব্বির রহমান, তাসকিন আহমেদ, সৌম্য সরকারসহ আরো কয়েকজন ক্রিকেটার। আর তাদের সাথে ক্রিকেট খেলেছেন, সময় কাটিয়েছেন, সেলফি তুলেছেন সারা বাংলাদেশের ৮০ জন ভক্ত-দর্শক।

যাদেরকে বাছাই করা হয়েছে একটি প্রতিযোগিতার মাধ্যমে। যার ক্যাম্পেইন করেছে লাইভ টেকনোলজি। পাশাপাশি বিজয়ী ভাগ্যবান ৮০ জনকে ঢাকা-কক্সবাজার আনা-নেয়া, থাকা-খাওয়া ও অন্যান্য সুযোগ-সুবিধার ব্যবস্থা করে দিয়েছে এই প্রতিষ্ঠানটি।

এ বিষয়ে লাইভ টেকনোলজির পরিচালক ইয়াসির আরাফাত বলেন, সাধারণ দর্শকদের ক্রিকেটারদের কাছাকাছি আসার সুযোগ করে দিয়েছে গ্রামীন ফোন। এই আয়োজনের ফলে ক্রিকেটের প্রতি সাধারণ দর্শকদের আগ্রহ আরো বাড়বে বলে মনে করেন তিনি। ভবিষ্যতে এমন আয়োজন আরো বড় পরিসরে করতে চান প্রতিষ্ঠানটির পরিচালক।

উল্লেখ্য, ইতিপূর্বে ২০১৪ ও ২০১৫ সালে দুটি বিচ ক্রিকেট ম্যাচের আয়োজন করেছিল লাইভ টেকনোলজি।

এমএমআর/জেআইএম