ভর্তি পরীক্ষার সময় ভাড়া নেবেন না রাজশাহীর মেস মালিকরা

বিশ্ববিদ্যালয় প্রতিবেদক
বিশ্ববিদ্যালয় প্রতিবেদক বিশ্ববিদ্যালয় প্রতিবেদক রাবি
প্রকাশিত: ০৯:১৬ পিএম, ২৪ সেপ্টেম্বর ২০২১

মানবতা দেখালেন রাজশাহীর মেস মালিকরা। রাজশাহী বিশ্ববিদ্যালয়ে (রাবি) ভর্তি পরীক্ষা দিতে আসা শিক্ষার্থীদের কাছ থেকে মেসে থাকা বাবদ প্রতিবছর টাকা নিলেও এবার এক টাকাও নেবেন না তারা।

শুক্রবার (২৪ সেপ্টেম্বর) রাজশাহী সিটি করপোরেশনের আয়োজনে ভর্তি পরীক্ষা উপলক্ষে সার্বিক প্রস্তুতিমূলক সভায় এ সিদ্ধান্তের কথা জানান মেস মালিকরা।

সভায় সভাপতিত্ব করেন মেয়র এ এইচ এম খায়রুজ্জামান লিটন। এ সময় উপস্থিত ছিলেন রাজশাহী বিশ্ববিদ্যালয়ের উপাচার্য অধ্যাপক ড গোলাম সাব্বির সাত্তার, রাজশাহী মহানগর পুলিশ (আরএমপি) কমিশনার আবু কালাম সিদ্দিক, রাজশাহী মেডিকেল কলেজ হাসপাতালের পরিচালক শামীম ইয়াজদানী প্রমুখ।

সভায় উল্লেখযোগ্য সিদ্ধান্তগুলো হলো- ভর্তি পরীক্ষাকে কেন্দ্র করে মেস ও গাড়ি ভাড়া বাড়ানো যাবে না, রাজশাহী বিশ্ববিদ্যালয়ের ২০টি গাড়ি লোকাল সার্ভিস দেবে, পরীক্ষা চলাকালীন কোনো ছাত্রছাত্রী অসুস্থ হলে তাৎক্ষণিকভাবে সেবা দিতে হবে, প্রশাসন কর্তৃক নিরাপত্তাব্যবস্থা নিশ্চিতকরণ, যানজট নিরসনে রাজশাহীর বাইরে থেকে যেসব বাস আসবে সেগুলো রাজশাহী সিটি করপোরেশনের বাইরে অবস্থান করবে এবং প্রতিটি ট্রেন রাজশাহী বিশ্ববিদ্যালয় স্টেশন যাত্রা বিরতি দেবে।

রাজশাহী মহানগর মেস মালিক সমিতির সভাপতি এনায়েতুর রহমান বলেন, রাজশাহী মহানগরীর একমাত্র শিল্প মেস বাণিজ্য। করোনাকালীন ১৮ মাস শিক্ষাপ্রতিষ্ঠান বন্ধ থাকায় আমাদের মেস ব্যবসায় ধস নেমেছে। কিন্তু মেস মালিকদের পরিবারের খাবারসহ মৌলিক চাহিদা বন্ধ থাকেনি। ব্যাংকের ঋণের সুদ, হোল্ডিং ট্যাক্স, স্টাফ বিলও বন্ধ থাকেনি। কিন্তু আমাদের আয় বন্ধ ছিল।

তিনি বলেন, করোনায় এতো কিছু আমাদের ক্ষতি হয়ে গেলো, তবুও ভর্তি পরীক্ষার আবাসন সঙ্কটে আমরা বুক পেতে দিয়েছি। আমরা রাজশাহীর মেস মালিকরা সিদ্ধান্ত নিয়েছি, মেসে অবস্থানরত বর্ডাররা তাদের রুমে নিজ নিজ এলাকার বা পরিচিত বা অপরিচিত একজন ভর্তি পরীক্ষার্থীকে রুমে রাখতে পারবেন।

‌‘যেহেতু কোভিডের কারণে বিশ্ববিদ্যালয়ের হল খোলা সম্ভব হয়নি, তাই উত্তরবঙ্গের শ্রেষ্ঠ বিদ্যাপীঠ রাজশাহী বিশ্ববিদ্যালয়ের ভর্তি পরীক্ষায় আবাসনের একটা ভয়াবহ সঙ্কট দেখা দিতো। দেশের বিভিন্ন প্রান্ত থেকে ছেলেমেয়েরা পরীক্ষা দিতে আসবে। তারা যেন কোনোভাবে বিপদে না পড়ে, সেই চিন্তাই আমরা করেছি। মহানগরীর মেস মালিকরা আতিথেয়তার হাত বাড়িয়ে দিয়েছে।’

সভায় মেস মালিকরা আরও জানান, ভর্তি পরীক্ষার্থীর সঙ্গে যদি কোনো অভিভাবক আসেন, তাহলে জনপ্রতি এক রাতের জন্য ২০০ টাকা মেস মালিককে দিতে হবে। যদি কোনো পরীক্ষার্থীর রাত্রিযাপনের ব্যবস্থা না হয়, তাহলে নিম্নের অভিযোগ নম্বরগুলোতে যোগাযোগ করলে থাকার ব্যবস্থা করে দেওয়া হবে।

প্রয়োজন ও অভিযোগ জানানোর মোবাইল নম্বর ০১৭২৯২৮৯৬২৮, ০১৭২৬৭৭৭৭৮৭ (অফিস নম্বর+বুথ), (০১৭৪৫১৬৬৬৬৯, রাজশাহী মেস মালিক সভাপতি এনায়েতুর রহমান), (০১৭১০৯৪৬৭৭১, সাধারণ সম্পাদক, রাজিব), (০১৭১১৫৭৮৭৭৭, কায়সার), (০১৭১৫১৩৮৪৮৫, বেলায়েত), ( ০১৭১৬৩৮৮৬৫০, সদস্য জাকির)।

সালমান শাকিল/এসআর/এএসএম

করোনা ভাইরাসের কারণে বদলে গেছে আমাদের জীবন। আনন্দ-বেদনায়, সংকটে, উৎকণ্ঠায় কাটছে সময়। আপনার সময় কাটছে কিভাবে? লিখতে পারেন জাগো নিউজে। আজই পাঠিয়ে দিন - [email protected]