মেঘনা সিমেন্ট ফ্যাক্টরিতে গ্যাস বিষক্রিয়ায় চীনা নাগরিকসহ নিহত ২

জেলা প্রতিনিধি
জেলা প্রতিনিধি জেলা প্রতিনিধি বাগেরহাট
প্রকাশিত: ১১:১৮ এএম, ০৭ আগস্ট ২০১৬

বাগেরহাটের মংলায় বসুন্ধরা গ্রুপের মেঘনা সিমেন্ট ফ্যাক্টরির একটি পুরনো পন্টুনের মধ্যে গ্যাস ঢুকে বিষক্রিয়ায় চীনা নাগরিকসহ দুইজন নিহত হয়েছেন। আহত হয়েছেন আরো দুইজন। রোববার দুপুরে এই ঘটনা ঘটে।

মংলা থানা পুলিশের ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) শেখ লুৎফুর রহমান ও মেঘনা সিমেন্ট ফ্যাক্টরির জেনারেল ম্যানেজার মেজর (অব.) শাকির আহমেদ জানান, সিমেন্ট ফ্যাক্টরিতে ব্যবহৃত একটি পুরনো পন্টুন সম্প্রতি বিক্রির জন্য নিলাম দেয় কর্তৃপক্ষ। চীনা নাগরিক মি. জ্যাং হংগু দুপুরে মেঘনা সিমেন্ট ফ্যাক্টরির চার শ্রমিককে সঙ্গে নিয়ে নিলামকৃত ওই পন্টুনটি দেখতে যায়। এসময় জ্যাং হংগু পন্টুনের ম্যানহোল খুলে ভিতরে প্রবেশ করেন।

টর্চলাইট দিয়ে ঘুরে দেখতে গিয়ে পন্টুনের ভিতরে তৈরি হওয়া গ্যাস বিষক্রিয়ায় দম বন্ধ হয়ে ঘুরে পড়ে যান মি. জ্যাং হংগু। সঙ্গে সঙ্গে মাথা ফেটে রক্তক্ষরণ হতে থাকে তার। আহত চীনা নাগরিক জ্যাং হংগুকে উদ্ধারের জন্য তার সঙ্গে থাকা মেঘনা সিমেন্ট ফ্যাক্টরির শ্রমিক মো. মাসুদ (৩৫) ম্যানহোল দিয়ে ভিতরে প্রবেশ করলে বিষাক্ত ক্রিয়ায় তারও মৃত্যু হয়।

নিহতদের ম্যানহোলের ভিতর থেকে উদ্ধার করতে গিয়ে শ্রমিক সাইদুর রহমান ও বেল্লাল আহত হন। আহতদের প্রথমে মংলা বন্দর হাসপাতালে চিকিৎসা দেয়া হয়। পরে উন্নত চিকিৎসার জন্য তাদের খুলনা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে পাঠানো হয়। নিহতদের মরদেহ ময়নাতদন্তের জন্য বিকেলে বাগেরহাট সদর হাসপাতাল মর্গে পাঠিয়েছে পুলিশ।

নিহত চীনা নাগরিক জ্যাং হংগু পদ্মা সেতুর নদীশাসন প্রকল্পে কাজ করতেন। আর নিহত মাসুদ মেঘনা সিমেন্ট ফ্যাক্টরির শ্রমিক। তার বাড়ি বাগেরহাটের রামপাল উপজেলার ঝনঝনিয়া গ্রামে।

শওকত আলী বাবু/এআরএ/এবিএস

করোনা ভাইরাসের কারণে বদলে গেছে আমাদের জীবন। আনন্দ-বেদনায়, সংকটে, উৎকণ্ঠায় কাটছে সময়। আপনার সময় কাটছে কিভাবে? লিখতে পারেন জাগো নিউজে। আজই পাঠিয়ে দিন - [email protected]