ঈদের সালামি দেয়ার লোভ দেখিয়ে দুই শিশুকে ধর্ষণ

জেলা প্রতিনিধি
জেলা প্রতিনিধি পাবনা
প্রকাশিত: ০৫:২২ পিএম, ১৪ জুন ২০১৮
প্রতীকী ছবি

পাবনার সুজানগরে ঈদের সালামি দেয়ার লোভ দেখিয়ে দুই শিশুকে ফুঁসলিয়ে বাড়ি থেকে ডেকে পাটখেতে নিয়ে পাশবিক নির্যাতনের অভিযোগ উঠেছে। বুধবার রাতে উপজেলার সৈয়দপুর গ্রামে এ ঘটনা ঘটে।

নির্যাতনের শিকার শিশুদের মধ্যে একজন ৪র্থ শ্রেণির ও অপরজন ৫ম শ্রেণির ছাত্রী। তাদেরকে গুরুতর অবস্থায় প্রথমে বেড়া হাসপাতালে ভর্তি করা হয়। পরে অবস্থার অবনতি হলে বৃহস্পতিবার সকালে পাবনা জেনারেল হাসপাতালে স্থানান্তর করা হয়।

ধর্ষণে অভিযুক্তরা হলেন- উপজেলার সৈয়দপুর গ্রামের আক্কাস শেখের ছেলে আমির হোসেন (৪৫) এবং একই গ্রামের জাফর খানের ছেলে শাহাদত খান (৪০)।

স্থানীয়রা জানায়, বুধবার ইফতারের পর আমির হোসেন ও শাহাদত খান মিলে শিশু দুটিকে ঈদের সালামি দেয়ার লোভ দেখায়। তারা শিশু দুটিকে কৌশলে বাড়ি থেকে একটু দূরে ডেকে নিয়ে যায়। পরে একটি পাটখেতে নিয়ে তাদের ওপর পাশবিক নির্যাতন চালায়। এ সময় শিশু দুটির চিৎকারে আশপাশের লোকজন ছুটে এসে তাদের উদ্ধার করে এবং দুই ধর্ষককে হাতেনাতে ধরে ফেলে। এ সময় উত্তেজিত এলাকাবাসী তাদের গণপিটুনি দিয়ে ছেড়ে দেয়। এরপর শিশু দুটির অভিভাবকরা এসে তাদের আহত অবস্থায় বেড়া হাসপাতালে ভর্তি করে। তাদের অবস্থার অবনতি হওয়ায় বৃহস্পতিবার সকালে তাদেরকে পাবনা জেনারেল হাসপাতালে স্থানান্তর করা হয়।

আমিনপুর থানা পুলিশের ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) হুমায়ুন কবির ঘটনার সত্যতা নিশ্চিত করে জানান, এ ঘটনায় মামলার প্রক্রিয়া চলছে। দোষিদের বিরুদ্ধে আইনানুগ ব্যবস্থা গ্রহণ করা হবে।

একে জামান/আরএআর/পিআর

আপনার মতামত লিখুন :