তাবলিগের মুসল্লি বেশে অস্ত্র কারখানায় র‌্যাবের অভিযান

জেলা প্রতিনিধি
জেলা প্রতিনিধি কক্সবাজার
প্রকাশিত: ০৭:৫৮ পিএম, ২২ জুলাই ২০১৮

কক্সবাজারে তাবলিগ জামাতের মুসল্লি বেশে একটি অস্ত্র কারখানায় অভিযান চালিয়েছে র‌্যাব। ওই কারখানা থেকে বিপুল পরিমাণ অস্ত্র ও অস্ত্র তৈরির সরঞ্জাম উদ্ধার করা হয়েছে। এ সময় অস্ত্র তৈরির দুই কারিগরকে গ্রেফতার করা হয়েছে।

মহেশখালী উপজেলার কালামারছড়া এলাকার দুর্গম পাহাড়ে শনিবার রাত ৯টা থেকে রোববার ভোর ৬টা পর্যন্ত এ অভিযান চালায় র‌্যাব।

গ্রেফতারকৃতরা হলেন- কালারমারছরা এলাকার মৃত বদরুদ্দুজার ছেলে মো. আব্দুল হাকিম (৩৮) ও এনামুল হকের ছেলে মো. শহিদুল্লাহ (৩২)।

র‌্যাব-৭ কক্সবাজার ক্যাম্পের ইনচার্জ মেজর মেহেদী হাসান বলেন, দীর্ঘ অভিযানে কালামারছড়ার বিভিন্ন পাহাড় চষে বেড়ানো অস্ত্রধারীদের সঙ্গে র‌্যাবের গুলিবিনিময় হয়েছে।

তিনি বলেন, গোপন সংবাদের ভিত্তিতে ছদ্মবেশে মহেশখালীর কালামারছড়া এলাকায় শনিবার রাত ৮টার দিকে অভিযান চালিয়ে দুই সন্ত্রাসীকে গ্রেফতার করা হয়। তাদের স্বীকারোক্তি মতে এলাকার গহীন অরণ্যে আরও একটি অভিযান চালায় র‌্যাব। কিন্তু র‌্যাবের উপস্থিতি টের পেয়ে ঘটনাস্থলে পৌঁছানোর আগে সন্ত্রাসীরা পালিয়ে যায়। ঘটনাস্থলে পৌঁছে একটি অস্ত্রের কারখানার সন্ধায় পায় র‌্যাব। হোয়ানক ও কালারমারছড়া ইউনিয়নের মাঝামাঝি এলাকার পাহাড়ে এই অস্ত্র তৈরির কারখানার অবস্থান। এই কারখানা থেকে ১২টি এসবিবিএল, ১টি ডিবিবিএল, ৭টি ওয়ান শুটার গান, ২৪ রাউন্ড তাজা কার্তুজ ও বিপুল পরিমাণ অস্ত্র তৈরির সরমঞ্জাম উদ্ধার করা হয়। গ্রেফতারকৃতদের বিরুদ্ধে আইনগত ব্যবস্থা নিয়ে মহেশখালী থানায় হস্তান্তর করা হয়েছে বলে জানান মেজর মেহেদী হাসান।

স্থানীয়রা জানায়, শনিবার সন্ধ্যা থেকে ছদ্মবেশে কালামারছড়া এলাকার অবস্থান নেয় র‌্যাব সদস্যরা। তাবলিগ জামাতের মুসল্লি বেশে একদল র‌্যাব সদস্য প্রথমে কালামারছড়া বাজার মাঠ এলাকায় অভিযান চালিয়ে দুইজনকে গ্রেফতার করে। পরে গহীন বনে অভিযানে যায়।

সায়ীদ আলমগীর/এএম/জেআইএম

আপনার মতামত লিখুন :