সুনামগঞ্জে আবারও বন্যার আশঙ্কা

জেলা প্রতিনিধি
জেলা প্রতিনিধি জেলা প্রতিনিধি সুনামগঞ্জ
প্রকাশিত: ০৯:৫৯ পিএম, ০৯ জুলাই ২০২০
ফাইল ছবি

সুনামগঞ্জে আবারও বন্যার পূর্বাভাস দিয়েছে জেলা প্রশাসন ও পানি উন্নয়ন বোর্ড। ঢাকা পানি উন্নয়ন বোর্ডের তথ্য মতে- উজান থেকে থেকে নেমে আসা পাহাড়ি ঢলের কারণে নদীর পানি বাড়তে শুরু করেছে। ইতোমধ্যে শহরের পাশ দিয়ে বয়ে যাওয়া সুরমা নদীর পানি আবারও বেড়ে নদীর পাড় ছুঁয়ে ফেলেছে। এভাবে পানি বৃদ্ধি পেতে থাকলে শহরের নিচু এলাকা দ্রুত পানির নিচে চলে যাবে। এতে করে আবারও ভোগান্তিতে পড়বে সাধারণ মানুষ।

সুনামগঞ্জ পানি উন্নয়ন বোর্ড জানিয়েছে, ভারতের মেঘালয়ে প্রচুর পরিমাণে বৃষ্টিপাত হচ্ছে। যার কারণে সুনামগঞ্জে আবারও বন্যার শঙ্কা দেখা দিয়েছে। এছাড়াও সুনামগঞ্জেও গত ২৪ ঘন্টা ১৩৫ মিলিমিটার বৃষ্টিপাত রেকর্ড করা হয়েছে। বৃহস্পতিবার (৯ জুলাই) সন্ধ্যায় ষোলঘর পয়েন্ট দিয়ে সুরমা নদীর পানি বিপৎসীমার ২৩ সেন্টিমিটার নিচ দিয়ে প্রবাহিত হচ্ছে। তবে বৃষ্টিপাত বাড়ার পর যদি পানি বাড়ে তাহলে সুরমা নদীর পানি বিপৎসীমার ওপর দিয়ে প্রবাহিত হয়ে শহরের নিচু এলাকায় পানি ঢুকে যেতে পারে।

জেলা প্রশাসনের পক্ষ থেকে এক বিজ্ঞপ্তিতে জানানো হয়েছে, বন্যা পূর্বাভাস ও সতর্কীকরণ কেন্দ্রের তথ্য মতে- উজানে ভারতের আসাম ও মেঘালয় অঞ্চলে সক্রিয় মৌসুমী বায়ুর প্রভাবে ৯ জুলাই অপার মেঘনা অববাহিকায় প্রধান নদী সূমহের পানি বৃদ্ধি পেতে পারে। বৃদ্ধির এই প্রবণতা ৪-৫ দিন স্থায়ী হতে পারে। এই সময়ে সুরমা-কুশিয়ারাসহ মেঘনা অববাহিকার অন্যান্য নদ-নদীর (যাদুকাটা, সোমেশ্বরী, ভুগাই-কংস) পানি কোথাও কোথাও বিপৎসীমা অতিক্রম করতে পারে এবং সুনামগঞ্জ জেলার নিম্নাঞ্চলে স্বল্পমেয়াদি বন্যা পরিস্থিতির সৃষ্টি হতে পারে। এ বিষয়ে সংশ্লিষ্ট সকলকে প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা গ্রহণের জন্য অনুরোধ জানানো হল।

সুনামগঞ্জ পানি উন্নয়ন বোর্ডের নির্বাহী প্রকৌশলী সহিবুর রহমান জানান, নদীতে পানি বৃদ্ধি অব্যাহত রয়েছে। এখনও বিপৎসীমার নিচে রয়েছে পানি। তবে ভারতে বৃষ্টিপাতের পরিমাণ বৃদ্ধি পেলে নদীর দুই কূল উপচে শহরের নিম্নাঞ্চলে পানি ঢোকার আশঙ্কা রয়েছে।

মোসাইদ রাহাত/আরএআর/এমকেএইচ

করোনা ভাইরাসের কারণে বদলে গেছে আমাদের জীবন। আনন্দ-বেদনায়, সংকটে, উৎকণ্ঠায় কাটছে সময়। আপনার সময় কাটছে কিভাবে? লিখতে পারেন জাগো নিউজে। আজই পাঠিয়ে দিন - [email protected]