সিরাজগঞ্জে যুবকের মৃত্যু, মায়ের দাবি ‘পিটিয়ে হত্যা’

জেলা প্রতিনিধি
জেলা প্রতিনিধি জেলা প্রতিনিধি সিরাজগঞ্জ
প্রকাশিত: ০৯:২১ পিএম, ২৬ জুলাই ২০২১
ফাইল ছবি

সিরাজগঞ্জের শাহজাদপুরে সোহেল রানা (৩৭) নামের এক যুবকের ‘অস্বাভাবিক’ মৃত্যু হয়েছে। সোমবার (২৬ জুলাই) দুপুরে উপজেলার পিপিডি হাসপাতালে চিকিৎসাধীন অবস্থায় তিনি মারা যান।

মৃত সোহেল রানা উপজেলার পৌর সদরের পুকুর পাড় মহল্লার আসাব আলীর ছেলে। তার মা মোছা. রোমি বেগমের দাবি, তার ছেলেকে পিটিয়ে হত্যা করা হয়েছে।

স্থানীয় সূত্রে জানা যায়, রোববার (২৫ জুলাই) সন্ধ্যায় সোহেল রানা বাড়ি থেকে বের হয়ে পাশের মার্কেটে গেলে কয়েকজন মিলে তাকে মারধর করেন। আহত সোহেল রানাকে এলাকাবাসী উদ্ধার করে প্রাথমিক চিকিৎসা দিয়ে বাড়িতে নিয়ে আসেন।

সোমবার (২৬ জুলাই) দুপুরে অসুস্থ হয়ে পড়লে স্থানীয় পিপিডি হাসপাতালে নিয়ে গেলে চিকিৎসাধীন অবস্থায় তিনি মারা যান।

অভিযোগ রয়েছে, প্রশাসনকে অবহিত না করে বিষয়টি ধামাচাপা দিতে তড়িঘড়ি করে মরদেহ দাফনের চেষ্টা করে একটি প্রভাবশালী মহল। কী কারণে এ হত্যা হয়েছে তা কেউ সুস্পষ্টভাবে বলতে পারেনি।

সোহেল রানার মা মোছা. রোমি বেগম অভিযোগ করে বলেন, ‘শাহজাদপুর পৌরসভার ৪ নম্বর ওয়ার্ড কাউন্সিলর নাজমুল হাসান, হৃদয় খান ও রানা আমার ব্যাটাকে মাইরা ফালাইছে। আমার ব্যাটা কী এমন কইছিল যার লাইগ্যা মাইরা ফালান লাগবে। আমি গরিব মানুষ কার কাছে বিচার চামু।’

রানার ভাতিজা শানিম অভিযোগ করে সাংবাদিকদের বলেন, ‘এ বিচার আমরা পাব না। কে বিচার করবে এ দেশে তাদের? যার গেছে সেই বোঝে। আমরা বিচারও পামু না তাই কাহুর কাছে বিচারও চাই না।’

সোহেল রানার মায়ের অভিযোগ যার বিরুদ্ধে, সেই কাউন্সিলর নাজমুল হাসানের বক্তব্য জানতে তার মোবাইল ফোনে কল করলেও বন্ধ পাওয়া যায়।

এ বিষয়ে শাহজাদপুর থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) সাহিদ মাহমুদ খান বলেন, ‘খবর পেয়ে ঘটনাস্থল থেকে নিহতের মরদেহ উদ্ধার করে থানা হেফাজতে রাখা হয়েছে। মঙ্গলবার সকালে ময়নাতদন্তের জন্য সিরাজগঞ্জ বঙ্গমাতা শেখ ফজিলাতুন্নেছা মুজিব জেনারেল হাসপাতালে পাঠানো হবে।’

ওসি আরও বলেন, ‘নিহতের হাঁটুতে আঘাতের চিহ্ন রয়েছে। কী কারণে এ মৃত্যু হয়েছে তা ময়নাতদন্তের পরে জানা যাবে। নিহতের পরিবার থেকে এখনো কোনো অভিযোগ দেয়নি। অভিযোগ দিলে প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা নেয়া হবে।’

ইউসুফ দেওয়ান রাজু/এসজে/এমকেএইচ

করোনা ভাইরাসের কারণে বদলে গেছে আমাদের জীবন। আনন্দ-বেদনায়, সংকটে, উৎকণ্ঠায় কাটছে সময়। আপনার সময় কাটছে কিভাবে? লিখতে পারেন জাগো নিউজে। আজই পাঠিয়ে দিন - [email protected]