ধর্ষণে গৃহকর্মীর সন্তান প্রসব, কৃষকলীগ নেতা কারাগারে

জেলা প্রতিনিধি
জেলা প্রতিনিধি জেলা প্রতিনিধি জামালপুর
প্রকাশিত: ০৪:২৯ পিএম, ২৪ নভেম্বর ২০২১

জামালপুরের বকশীগঞ্জে কৃষক লীগের এক নেতার ধর্ষণে গৃহকর্মীর সন্তান প্রসবের ঘটনা ঘটছে। এ ঘটনায় অভিযুক্ত কৃষক লীগ নেতা দেলোয়ার হোসেন দেলুকে (৬০) গ্রেফতার করেছে পুলিশ।

বুধবার (২৪ নভেম্বর) দুপুরে আদালতের মাধ্যমে তাকে কারাগারে পাঠানো হয়। গ্রেফতার দেলোয়ার উপজেলার সাধুরপাড়া ইউনিয়নের আর্চাকান্দি গ্রামের মৃত জহুরুল হকের ছেলে এবং ইউনিয়ন কৃষক লীগ সভাপতি।

স্থানীয় সূত্রে জানা যায়, ভুক্তভোগী কিশোরী এতিম। খুব ছোটকালেই বাবা মারা যান। অভাব অনটনের কারণে মেয়েটি কৃষক লীগ নেতা দেলোয়ার হোসেন দেলুর বাড়িতে গৃহপরিচারিকার কাজ শুরু করে। পরে বিয়ের প্রলোভন দেখিয়ে কিশোরীকে একাধিকবার ধর্ষণ করেন দেলোয়ার।

একপর্যায়ে কিশোরী অন্তঃসত্ত্বা হয়ে পড়ে। এরপর বাচ্চাটি নষ্ট করার জন্য কিশোরীকে প্রতিনিয়ত চাপ প্রয়োগ করতে থাকেন তিনি। বাচ্চাটি নষ্ট করতে কয়েক দফা হাসপাতালেও নিয়ে যাওয়া হয়।

মঙ্গলবার (২৩ নভেম্বর) বিকেলে পেটে ব্যথা নিয়ে হাসপাতালে আসে ওই কিশোরী। ডাক্তারের পরামর্শ নিয়ে ফেরার সময় হাসপাতালের বাথরুমে এক কন্যাসন্তানের জন্ম দেয় কিশোরীটি। বিষয়টি মুহূর্তেই চারদিকে ছড়িয়ে পড়ে এবং এলাকায় চাঞ্চল্য তৈরি হয়।

এ ব্যাপারে উপজেলা কৃষক লীগ সভাপতি আব্দুল মান্নান জাগো নিউজকে বলেন, আমি ঘটনাটি মঙ্গলবার রাত ১১টায় শুনতে পাই। বিষয়টি সাধারণ সম্পাদককে জানিয়েছি। আমরা বিষয়টি তদন্ত করছি। ঘটনা সত্যি হলে তার বিরুদ্ধে সাংগঠনিক ব্যবস্থা নেবো।

বকশীগঞ্জ থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) শফিকুল ইসলাম সম্রাট জাগো নিউজকে বলেন, ওই ঘটনায় একটি মামলা হয়েছে। আসামি দেলোয়ারকে গ্রেফতারের পর আদালতের মাধ্যমে কারাগারে পাঠানো হয়। ভিকটিম অসুস্থ, দু-একদিন পর সে আদালতে গিয়ে জবানবন্দি দেবে।

মো. নাসিম উদ্দিন/এসজে/জিকেএস

করোনা ভাইরাসের কারণে বদলে গেছে আমাদের জীবন। আনন্দ-বেদনায়, সংকটে, উৎকণ্ঠায় কাটছে সময়। আপনার সময় কাটছে কিভাবে? লিখতে পারেন জাগো নিউজে। আজই পাঠিয়ে দিন - [email protected]