পাহাড়খেকোদের বিরুদ্ধে ব্যবস্থা নিতে আদালতের নির্দেশ

জেলা প্রতিনিধি
জেলা প্রতিনিধি জেলা প্রতিনিধি কক্সবাজার
প্রকাশিত: ০৪:২৩ পিএম, ১১ আগস্ট ২০২২
ফাইল ছবি

কক্সবাজার সদর উপজেলার পিএমখালী ইউনিয়নের ছনখোলার ঘোনারপাড়া তেইনাকাটা এলাকায় সংরক্ষিত বনভূমির পাহাড় কাটার সঙ্গে জড়িতদের চিহ্নিত করে আইনি ব্যবস্থা নেওয়ার নির্দেশ দিয়েছেন কক্সবাজার পরিবেশ আদালত।

আগামী ২৫ আগস্টের মধ্যে পরিবেশ অধিদপ্তর কক্সবাজারের উপ-পরিচালককে তদন্ত করে আইনি ব্যবস্থা নিয়ে আদালতে প্রতিবেদন জমা দিতে বলা হয়েছে।

বৃহস্পতিবার (১১ আগস্ট) দুপুরে কক্সবাজার পরিবেশ আদালতের স্পেশাল ম্যাজিস্ট্রেট মোহাম্মদ এহছানুল ইসলাম সপ্রণোদিত হয়ে ওই আদেশ দেন।

এ বিষয়ে কক্সবাজার চিফ জুডিসিয়াল ম্যাজিস্ট্রেট আদালতের প্রশাসনিক কর্মকর্তা মোহাম্মদ শাহাজাহান ইলাহী নূরী বলেন, গত ৮ আগস্ট একটি জাতীয় দৈনিকে পিএমখালীর পাহাড় কাটা নিয়ে প্রতিবেদন প্রকাশিত হয়। ওই প্রতিবেদনটি বিচারকের নজরে আসে। ওই প্রতিবেদনের ওপর ভিত্তি করেই সপ্রণোদিত আদেশটি দিয়েছেন বিচারক।

তিনি বলেন, প্রতিবেদনে মাটি কেটে বিক্রি করা হচ্ছে তার সচিত্র প্রমাণ থাকলেও কে বা কারা বিক্রি করছে সেই বিষয়টি নেই। এটিকে গুরুত্ব দিয়ে প্রাথমিক অনুসন্ধানের মাধ্যমে অপরাধীদের চিহ্নিত, সাক্ষীদের জবানবন্দি গ্রহণ, ঘটনাস্থলের খসড়া মানচিত্র প্রস্তুত, পাহাড়ের কী পরিমাণ মাটি কাটা হয়েছে, তা নিরূপণ করার নির্দেশনাও দিয়েছেন আদালত।

প্রশাসনিক কর্মকর্তা আরও বলেন, এটির পরবর্তী তারিখ ২৫ আগস্ট। এর মধ্যে পরিবেশ অধিদপ্তর কক্সবাজারের উপ-পরিচালককে প্রতিবেদন জমা দেওয়ার নির্দেশনা রয়েছে।

এর আগে একই আদালতের কক্সবাজারের সিনিয়র জুডিশিয়াল ম্যাজিস্ট্রেট আসাদ উদ্দিন মো. আশিফ সপ্রণোদিতভাবে গত ২৮ জুলাই উখিয়ার বন খেকোদের তালিকা করার আদেশ দেন। সেই আদেশ নিয়ে কাজ করছে কক্সবাজার দক্ষিণ বনবিভাগ।

সায়ীদ আলমগীর/এমআরআর/এএসএম

পাঠকপ্রিয় অনলাইন নিউজ পোর্টাল জাগোনিউজ২৪.কমে লিখতে পারেন আপনিও। লেখার বিষয় ফিচার, ভ্রমণ, লাইফস্টাইল, ক্যারিয়ার, তথ্যপ্রযুক্তি, কৃষি ও প্রকৃতি। আজই আপনার লেখাটি পাঠিয়ে দিন [email protected] ঠিকানায়।