জ্বালানির মূল্যবৃদ্ধি

সবজি পরিবহনে ট্রাকপ্রতি বেড়েছে ৫ হাজার টাকা

জেলা প্রতিনিধি
জেলা প্রতিনিধি জেলা প্রতিনিধি ঝিনাইদহ
প্রকাশিত: ০৬:৪৫ পিএম, ১৪ আগস্ট ২০২২

দ্রব্যমূল্যের ঊর্ধ্বগতিতে নাভিশ্বাস উঠেছে জনজীবনে। তার ওপর জ্বালানি তেলের দামবৃদ্ধি এই দুর্ভোগের মাত্রাকে আরও বাড়িয়ে দিচ্ছে। এরই মধ্যে তার প্রভাব পড়তে শুরু করেছে সবজি বাজারে।

ঝিনাইদহ সদরের হলিধানী, ডাকবাংলো, গোয়ালপাড়া, শৈলকুপার শেখপাড়া, চড়িয়ারবীলসহ বিভিন্ন বাজার ঘুরে দেখা যায়- ঢাকা, চট্টগ্রাম, সিলেটসহ বিভিন্ন স্থানে সবজি পরিবহনে খরচ বেড়েছে ট্রাকপ্রতি গড়ে পাঁচ হাজার টাকা। এর ফলে ভোক্তা পর্যায়ে সবজির দামও বেড়ে যাচ্ছে। জ্বালানি তেলের দাম বাড়ার আগে ঢাকাতে এক ট্রাক সবজি পাঠাতে খরচ হতো গড়ে ১৮ হাজার টাকা যা এখন বেড়ে ২৩ হাজার টাকা পর্যন্ত দিতে হচ্ছে। এতে ব্যবসায়ীদের লভ্যাংশ যেমন কমে আসছে তেমনি দুর্ভোগে পড়ছেন তারা।

জেলা সদরের গোয়ালপাড়া বাজারের পাইকারি সবজি ব্যবসায়ী মজিবর রহমান বলেন, আমরা কৃষকের কাছ থেকে সবজি কিনে সেগুলো বড় বড় ব্যাপারীদের কাছে বিক্রি করতাম। ভালোই ব্যবসা হতো। কিন্তু তেলের দাম বাড়ার পরে ব্যাপারীরা আসতে চাচ্ছে না, একেবারেই তাদের সংখ্যা কমে গেছে। ফলে ব্যবসায়েও চলে আসছে মন্দা। আমরা ব্যক্তিগতভাবে তাদের কাছে ট্রাক ভাড়া করে পাঠাতে গেলেও বাড়তি চার থেকে পাঁচ হাজার টাকা গুনতে হচ্ছে।

অপর ব্যবসায়ী রবিউল ইসলাম বলেন, তেলের দাম বাড়ার কারণে সবজির বেচাবিক্রি কমে গেছে। গাড়ি ভাড়া দিয়ে পোষাতে পারছি না। জামালপুর, শেরপুর, ঢাকাসহ অন্যান্য জেলায় সবজি পাঠাতে বস্তাপ্রতি ৫০ টাকা বেশি গুনতে হচ্ছে। পরিবহন খরচ বেড়ে যাওয়ায় সবজির দামও কিছুটা বেড়েছে।

এদিকে, এসব কারণে হাতবদলের পর সবজির দাম বেড়েছে খুচরা বাজারেও। শহরের বাজারে গিয়ে দেখা গেছে, সব ধরনের সবজির দাম কেজিতে গড়ে ২০ টাকা করে বেড়েছে।

বাজারের খুচরা সবজির ব্যবসায়ী জসিম উদ্দিন বলেন, তেলের দাম বাড়ার সঙ্গে সঙ্গে ট্রাক ভাড়াসহ সব জিনিসের দাম বেড়েছে। সব ধরনের সবজি কিনতে হচ্ছে বেশি দামে। এ কারণে বিক্রিতেও দাম বেড়েছে।

আব্দুল্লাহ আল মাসুদ/এমআরআর

পাঠকপ্রিয় অনলাইন নিউজ পোর্টাল জাগোনিউজ২৪.কমে লিখতে পারেন আপনিও। লেখার বিষয় ফিচার, ভ্রমণ, লাইফস্টাইল, ক্যারিয়ার, তথ্যপ্রযুক্তি, কৃষি ও প্রকৃতি। আজই আপনার লেখাটি পাঠিয়ে দিন [email protected] ঠিকানায়।