বাংলাদেশের হয়ে সেলসম্যানের কাজ করতে চান মার্কিন রাষ্ট্রদূত

নিজস্ব প্রতিবেদক
নিজস্ব প্রতিবেদক নিজস্ব প্রতিবেদক
প্রকাশিত: ০৫:৪৪ পিএম, ০৫ ফেব্রুয়ারি ২০১৯

বাণিজ্যমন্ত্রী টিপু মুনশি বলেছেন, ‘মার্কিন রাষ্ট্রদূত আর্ল রবাট মিলার বাংলাদেশের বিষয়ে অনেক বেশি পজিটিভ। তিনি ব্যবসা-বাণিজ্যে বাংলাদেশের হয়ে সেলসম্যানের মতো কাজ করতে চান। তিনি বলেছেন, বিনিয়োগ আনতে আমি বাংলাদেশের জন্য কাজ করব।’

মঙ্গলবার সচিবালয়ে বাণিজ্যমন্ত্রীর সঙ্গে সাক্ষাৎ করেন মার্কিন রাষ্ট্রদূত আর্ল রবাট মিলার। সাক্ষাৎ শেষে মন্ত্রী সাংবাদিকদের এমন তথ্য জানান।

বাণিজ্যমন্ত্রী বলেন, ‘বাংলাদেশ থেকে যুক্তরাষ্ট্রে এক্সপোর্ট (রফতানি) হয় ছয় বিলিয়ন ডলার। তারা আমাদের দেশে এক্সপোর্ট (আমদানি) করেন মাত্র ১ দশমিক ৭ বিলিয়ন ডলার। আমরা মিলারকে এটার ভারসাম্য রক্ষায় সহযোগিতা চেয়েছি। তিনি আমাকে বলেছেন, কিভাবে বাংলাদেশে এক্সপোর্ট বাড়ানো যায় সেটা নিয়ে আমি কাজ করব।’

টিপু মুনশি বলেন, ‘আমি তাদের বলেছি, আমাদের দেশে বিনিয়োগ করে উৎপাদন বাড়ানোর জন্য। তারা এতে সম্মত হয়েছেন। বিদ্যুৎ ও কৃষি খাতে তারা বিনিয়োগ বাড়াবেন। মিলার আমাকে বলেছেন, আমি তোমাদের পক্ষে ভালো একজন সেলসম্যান হতে পারব।’

মন্ত্রী বলেন, ‘বাংলাদেশে ইউএস অ্যাম্বাসি আছে কিন্তু সেখানে ব্যবসা সংক্রান্ত কোনো প্রতিনিধি নেই। আমরা তাকে বলেছি। তিনি বলেছেন, আমি কথা বলে এ বিষয়ে এক কর্মকর্তার ব্যবস্থা করব। এটা হলে ব্যবসার সুযোগ-সুবিধা বাড়বে।’

‘আমাদের দেশের পোশাক শ্রমিকদের বেতন বৃদ্ধি করা হয়েছে। এ বিষয়ে যুক্তরাষ্ট্রের ব্যবসায়ীদের সুদৃষ্টি চেয়ে আমি মিলারের সঙ্গে কথা বলেছি। তিনি এ বিষয়ে অত্যন্ত পজিটিভ কথা বলেছেন’- যোগ করেন বাণিজ্যমন্ত্রী। ‘আমি মনে করি, মিলার অনেক পজিটিভ মানুষ। আমরা একসঙ্গে কাজ করলে বাংলাদেশ–যুক্তরাষ্ট্র বাণিজ্যে অনেক এগিয়ে যাবে।’

বাণিজ্যমন্ত্রী বলেন, দিল্লিতে যেসব বিনিয়োগকারী এসে ফেরত যান তাদের মিলার ঢাকায় নিয়ে আসতে চেয়েছেন। তিনি তাদের বলবেন, তোমরা বাংলাদেশে বিনিয়োগ কর।

এমইউএইচ/এমএআর/আরআইপি

 

আপনার মতামত লিখুন :