সাংবাদিকদের বাণিজ্য মন্ত্রণালয়ের উন্নয়ন সহযোগী হওয়ার আহ্বান

নিজস্ব প্রতিবেদক
নিজস্ব প্রতিবেদক নিজস্ব প্রতিবেদক
প্রকাশিত: ০৬:৪০ পিএম, ১৭ এপ্রিল ২০১৯

সাংবাদিকদের বাণিজ্য মন্ত্রণালয়ের উন্নয়ন সহযোগী হওয়ার আহ্বান জানিয়েছেন বাণিজ্য সচিব মো. মফিজুল ইসলাম। বুধবার (১৭ এপ্রিল) ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের ব্যবসা শিক্ষা অনুষদের ভার্চুয়াল ক্লাসরুমে ‘ট্রেড অ্যান্ড ডব্লিউটিও : এ স্পেশাল কোর্স ফর জার্নালিস্ট ফর প্রিন্ট মিডিয়া’ শীর্ষক তিন দিনব্যাপী এক প্রশিক্ষণ কর্মসূচির সমাপনী অনুষ্ঠানে তিনি এ আহ্বান জানান।

কোর্সটি যৌথভাবে আয়োজন করে ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের সেন্টার ফর মাইক্রোফিন্যান্স অ্যান্ড ডেভেলপমেন্ট এবং বাণিজ্য মন্ত্রণালয়ের ডব্লিউটিও সেল।

বাণিজ্য মন্ত্রণালয়ের ডব্লিউটিও সেলের মহাপরিচালক ও বাণিজ্য মন্ত্রণালয়ের অতিরিক্ত সচিব মুনির চৌধুরীর সভাপতিত্বে সমাপনী অনুষ্ঠানের উপস্থিত ছিলেন ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের ফিন্যান্স বিভাগের প্রফেসর ও সেন্টার ফর মাইক্রোফিন্যান্স অ্যান্ড ডেভেলপমেন্টের নির্বাহী পরিচালক জাহাঙ্গীর আলম চৌধুরী, ট্যারিফ কমিশনের সদস্য ড. মোস্তফা আবেদ খান এবং ডব্লিউটিও সেলের পরিচালক ও বাণিজ্য মন্ত্রণালয়ের যুগ্ম সচিব হাফিজুর রহমান।

প্রশিক্ষণে অংশগ্রহণকারী সাংবাদিকদের উদ্দেশে বাণিজ্য সচিব বলেন, ‘আমরা চাইব আপনারা বাণিজ্য মন্ত্রণালয়ের ডেভেলপমেন্ট পার্টনার হন। আপনারা বাণিজ্য মন্ত্রণালয়েরই অংশ হিসেবে কাজ করেন। কারণ আপনারা যেসব আর্টিকেল লেখেন সেগুলো নানাভাবে বাণিজ্য মন্ত্রণালয়কে সহায়তা করে।’

commerce-2

তিনি বলেন, ‘অর্থনৈতিক উন্নয়ন সামনের চ্যালেঞ্জগুলোকে ভালোভাবে মোকাবেলা করতে হবে। আমাদের উৎপাদনশীলতা আরও বাড়াতে হবে। কারণ পণ্য উৎপাদন হলেই সেল বাড়বে। সেল বাড়ালেই অর্থ আসবে।’

সচিব আরও বলেন, বিশ্বব্যাপী বাণিজ্য করতে হলে আরও প্রতিযোগিতার মুখোমুখি হতে হবে। অনেক বাধা আসবে তবে সেগুলো আলাপ-আলোচনা করে কাটিয়ে উঠতে হবে। বিদেশের বাজার দখল করতে পণ্যে বৈচিত্র্যতা আনতে হবে। বাজারে আমাদের অনেক প্রতিযোগী থাকবে। এসব প্রতিযোগীর সঙ্গে প্রতিযোগিতা করেই সামনের দিকে এগিয়ে যেতে হবে।

অনুষ্ঠানে সেন্টার ফর মাইক্রোফিন্যান্স অ্যান্ড ডেভেলপমেন্টের নির্বাহী পরিচালক জাহাঙ্গীর আলম চৌধুরী বলেন, ক্লাসে পড়ানোর সময় বাণিজ্যের বিষয়গুলো বিস্তারিত পড়ানোর সুযোগ থাকে না। কারণ পাঠ্যবই রচিত হয় ইউকে’র পাঠ্যসূচির আদলে। তাই ওইসব বইয়ে বাংলাদেশের মতো দেশের বাণিজ্যের বিয়ষগুলো উল্লেখ থাকে না। এ কারণে সরকারি-বেসরকারি পর্যায়ে যারা সরাসরি বাণিজ্যের সঙ্গে যুক্ত তাদের দিয়ে আমরা বিশ্ববিদ্যালয়ের শিক্ষকদেরও প্রশিক্ষণ দেই। এরই অংশ হিসেবে সাংবাদিকদের জন্যও এ প্রশিক্ষণের আয়োজন করা হয়েছে। এ ধরনের কর্মসূচি আগামীতে আরও নেয়া হবে।

এমইউএইচ/এমবিআর/এমকেএইচ