বিনিয়োগকারীদের পছন্দের শীর্ষে একমি পেস্টিসাইড

নিজস্ব প্রতিবেদক
নিজস্ব প্রতিবেদক নিজস্ব প্রতিবেদক
প্রকাশিত: ১২:২৩ পিএম, ২৭ নভেম্বর ২০২১

গেল সপ্তাহ বড় দরপতনের মধ্য দিয়ে পার করেছে দেশের শেয়ারবাজার। এই পতনের বাজারে সপ্তাহজুড়ে দাম বাড়ার ক্ষেত্রে দাপট দেখিয়েছে নতুন তালিকাভুক্ত একমি পেস্টিসাইড। গত সপ্তাহে বিনিয়োগকারীদের কাছে পছন্দের শীর্ষে ছিল কোম্পানিটির শেয়ার। ফলে প্রধান শেয়ারবাজার ঢাকা স্টক এক্সচেঞ্জে (ডিএসই) দাম বাড়ার শীর্ষ স্থানটি দখল করেছে এই প্রতিষ্ঠানটির শেয়ার।

গেল সপ্তাহে লেনদেন হওয়া পাঁচ কার্যদিবসের সবদিনই একমি পেস্টিসাইডের শেয়ার দাম বাড়ার সর্বোচ্চ সীমা স্পর্শ করে। ফলে সপ্তাহজুড়ে কোম্পানিটির শেয়ার দাম বেড়েছে ৬০ শতাংশ। টাকার অঙ্কে বেড়েছে ৯ টাকা ৬০ পয়সা। সপ্তাহের শেষ কার্যদিবস শেষে কোম্পানিটির শেয়ারের দাম দাঁড়িয়েছে ২৫ টাকা ৬০ পয়সা, যা আগের সপ্তাহের শেষ কার্যদিবসে ছিল ১৬ টাকা।

শেয়ারের এমন দাম বাড়া কোম্পানিটি সম্প্রতি চলমান হিসাব বছরের প্রথম প্রান্তিকের (চলতি বছরের জুলাই-সেপ্টেম্বর) আর্থিক প্রতিবেদন প্রকাশ করেছে। এই প্রতিবেদনের তথ্য অনুযায়ী, কোম্পানিটির মুনাফা আগের বছরের তুলনায় কমেছে। জুলাই থেকে সেপ্টেম্বর এই তিন মাসে কোম্পানিটি শেয়ার প্রতি মুনাফা করেছে ৪৭ পয়সা, যা আগের হিসাব বছরের একই সময়ে ছিল ৪৮ পয়সা।

শেয়ার দাম বাড়লেও বিনিয়োগকারীদের বড় অংশ কোম্পানিটির শেয়ার বিক্রি করতে চাননি। ফলে সপ্তাহজুড়ে লেনদেন হয়েছে মাত্র ১৪ লাখ ৪৯ হাজার টাকা। আর প্রতি কার্যদিবসে গড়ে লেনদেন হয়েছে দুই লাখ ৮৯ হাজার টাকা।

দাম বাড়ার শীর্ষ তালিকায় দ্বিতীয় স্থানে রয়েছে সেনা কল্যাণ ইন্স্যুরেন্স। গেল সপ্তাহজুড়ে এই কোম্পানিটির শেয়ারের দাম বেড়েছে ৫৯ দশমিক ৭৭ শতাংশ। এর পরের স্থানটিতে রয়েছে ওয়ান ব্যাংক। সপ্তাহজুড়ে এ কোম্পানিটির শেয়ার দাম বেড়েছে ২৮ দশমিক ৫৭ শতাংশ।

এছাড়া দাম বাড়ার শীর্ষ ১০ প্রতিষ্ঠানের তালিকায় থাকা সুহৃদ ইন্ডাস্ট্রিজের ১৪ দশমিক শূন্য ৯ শতাংশ, আমান ফিডের ১৪ দশমিক শূন্য ৯ শতাংশ, তসরিফা ইন্ডাস্ট্রিজের ১২ দশমিক ৭১ শতাংশ, দেশ গার্মেন্টেসের ১২ দশমিক ৫৫ শতাংশ, প্যারামাউন্ট টেক্সটাইলের ৯ দশমিক ৬৭ শতাংশ, প্যাসিফিক ডেনিমসের ৮ দশমিক ৪৭ শতাংশ এবং ইউনিক হোটেলের ৭ দশমিক ৭৪ শতাংশ দাম বেড়েছে।

এমএএস/কেএসআর/এএসএম

করোনা ভাইরাসের কারণে বদলে গেছে আমাদের জীবন। আনন্দ-বেদনায়, সংকটে, উৎকণ্ঠায় কাটছে সময়। আপনার সময় কাটছে কিভাবে? লিখতে পারেন জাগো নিউজে। আজই পাঠিয়ে দিন - [email protected]