যৌন-হয়রানি : ‘মি টু’ ঝড়ে উড়ে গেলেন মন্ত্রী আকবর

আন্তর্জাতিক ডেস্ক
আন্তর্জাতিক ডেস্ক আন্তর্জাতিক ডেস্ক
প্রকাশিত: ০৫:৫৪ পিএম, ১৭ অক্টোবর ২০১৮

যৌন হয়রানির অভিযোগে ভারতে শুরু হওয়া ‘#মি টু’ ঝড়ে পদত্যাগ করতে বাধ্য হলেন দেশটির পররাষ্ট্র প্রতিমন্ত্রী এমজে আকবর। বুধবার গণমাধ্যমে পাঠানো এক বিবৃতিতে তিনি এ পদত্যাগের ঘোষণা দেন।

বিবৃতিতে ভারতীয় এই মন্ত্রী বলেন, ‘যেহেতু আমি আদালতের কাছে ন্যায় বিচার চাওয়ার সিদ্ধান্ত নিয়েছি। সুতরাং আমার কাছে মনে হয়েছে, মন্ত্রণালয় থেকে পদত্যাগ এবং আমার বিরুদ্ধে আনা মিথ্যা অভিযোগের মোকাবেলা করাই এখন যৌক্তিক কাজ।’

‘এমন অবস্থায় পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ের পদ থেকে আমি পদত্যাগ করছি। দেশের সেবা করার সুযোগ করে দেয়ার জন্য আমি প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদি ও পররাষ্ট্রমন্ত্রী সুষমা স্বরাজের প্রতি গভীর কৃতজ্ঞতা প্রকাশ করছি।’

ইকোনমিক টাইমসের এক প্রতিবেদনে বলা হয়েছে, ১৯৯০ সালের দিকে ভারতের একাধিক গণমাধ্যমে সম্পাদকের দায়িত্ব পালন করেন এমজে আকবর। সেই সময় অন্তত ১৬ নারী সাংবাদিক তার কাছে যৌন হয়রানির শিকার হয়েছেন বলে সম্প্রতি অভিযোগ তোলেন।

রোববার ভারতের পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ের প্রতিমন্ত্রী এমজে আকবর তার বিরুদ্ধে আনা যৌন হয়রানির অভিযোগকে ভিত্তিহীন, কল্পনাপ্রসূত এবং বিব্রতকর বলে প্রত্যাখ্যান করেন। সোমবার সাংবাদিক প্রিয়া রমনীর বিরুদ্ধে মানহানির অভিযোগ এনে মামলা করেছেন সদ্যপদত্যাগকারী এই মন্ত্রী।

ভোগ ম্যাগাজিনে দেয়া এক স্বাক্ষাৎকারে সাবেক এই সম্পাদকের বিরুদ্ধে যৌন হয়রানির অভিযোগ এনেছিলেন প্রিয়া। চলতি মাসের শুরুর দিকে এমজে আকবর নাইজেরিয়া সফরে থাকাকালীন তার বিরুদ্ধে যৌন হয়রানির অভিযোগ এনে সামাজিক যোগাযোগমাধ্যমে #মি টু ঝড় তোলেন এই নারী সাংবাদিক।

এসআইএস/আরআইপি

আপনার মতামত লিখুন :