এবার মিরপুরে গৃহকর্মী নির্যাতন : গৃহকর্তা-গৃহকর্ত্রী আটক

নিজস্ব প্রতিবেদক
নিজস্ব প্রতিবেদক নিজস্ব প্রতিবেদক
প্রকাশিত: ০১:৪২ এএম, ২২ জুন ২০১৮

রাজধানীর রমনা থানাধীন ইস্কাটনে শাওন নামে এক শিশু গৃহকর্মী নির্যাতনের রেশ কাটতে না কাটতেই মিরপুরে এক মেয়ে গৃহকর্মীকে নির্যাতনের অভিযোগ উঠেছে।

মিরপুর মডেল থানাধীন মিরপুর-৬ এর ৯নং লেনের ৭নং বাসায় ওই গৃহকর্মীকে নির্যাতন চালিয়ে আসছিলেন গৃহকর্তা সাহাদাত হোসেন (৩৫) ও গৃহকর্ত্রী সাত্তা আকবর (৩১)।

অভিযোগের ভিত্তিতে মিরপুর মডেল থানা পুলিশ গৃহকর্তা ও গৃহকর্ত্রীকে আটক করে হেফাজতে নিয়েছে। সর্বশেষ খবর অনুযায়ী ঘটনার প্রাথমিক সত্যতা পাওয়ার পর মামলা দায়েরের প্রস্তুতি চলছে বলে জানিয়েছেন মিরপুর মডেল থানার পরিদর্শক (তদন্ত) ওয়াহিদুজ্জামান।

তিনি জাগো নিউজকে জানান, মমতা (১২) নামে ওই গৃহকর্মীকে প্রায়ই মারধর করা হতো। অাজও রাতেও মারধর করা হচ্ছিল এমন অভিযোগ তুলে এলাকাবাসী ওই ভবন ঘেরাও করে পুলিশে খবর দেয়। পুলিশ এলাকাবাসীর দেয়া খবরে গৃহকর্মী মমতাকে উদ্ধার ও জিজ্ঞাসাবাদের জন্য গৃহকর্তা সাহাদাত হোসেন ও গৃহকর্ত্রী সাত্তা আকবরকে থানায় নিয়ে আসা হয়।

পুলিশের জিজ্ঞাসাবাদে মমতা জানায়, তাকে প্রায়ই মারধর করা হয়। পর্যাপ্ত খাবার দেয় না। চুলের মুটি ধরে আজও বেধরক মারধর করা হয়েছে বলে অভিযোগ মমতার। মমতার শরীরে আঘাতের চিহ্ন দেখা গেছে।

পরিদর্শক ওয়াহিদুজ্জামান জানান, মমতার বাড়ি নোয়াখালীতে। বাবার নাম বুদ্ধি হাওলাদার। এর বেশি তথ্য সে দিতে পারেনি।

অভিযুক্ত গৃহকর্তা সাহাদাত হোসেন একটি বেসরকারি প্রতিষ্ঠানে আইটি বিভাগে কর্মরত ও স্ত্রী সাত্তা আকবর গৃহিণী।

ওয়াহিদুজ্জামান বলেন, আমরা প্রাথমিকভাবে অভিযোগের সত্যতা পাওয়ায় মামলা গ্রহণের প্রস্তুতি চলছে। নারী ও শিশু নির্যাতন দমন আইনে পুলিশ বাদীর প্রক্রিয়া চলছে বলে জানান তিনি।

জেইউ/বিএ