রাজনৈতিক দলের প্রতিনিধিদের প্রশিক্ষণ দেবে ইসি

জ্যেষ্ঠ প্রতিবেদক
জ্যেষ্ঠ প্রতিবেদক জ্যেষ্ঠ প্রতিবেদক
প্রকাশিত: ০১:৫০ পিএম, ১৩ অক্টোবর ২০১৮

আসন্ন একাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচন উপলক্ষে নিবন্ধিত রাজনৈতিক দলের প্রতিনিধি, প্রার্থী ও নির্বাচনী এজেন্টদের প্রশিক্ষণ দেবে নির্বাচন কমিশন (ইসি)। এছাড়া নির্বাচনের সঙ্গে জড়িত আইন-শৃঙ্খলা বাহিনীসহ পর্যবেক্ষকদেরও প্রশিক্ষণ দেয়া হবে। এর আগে কখনও পোলিং এজেন্টদের প্রশিক্ষণ দেয়া হয়নি। এবারই প্রথম তাদের প্রশিক্ষণ দেয়া হবে।

এ বিষয়ে নির্বাচনী প্রশিক্ষণ ইনস্টিটিউটের (ইটিআই) মহাপরিচালক মোস্তফা ফারুক জানান, আগামী সংসদ নির্বাচন উপলক্ষে বিভিন্ন পর্যায়ে ১২টি প্রশিক্ষণ পরিচালনার সিদ্ধান্ত নিয়েছে ইসি। পর্যায়ক্রমে এই প্রশিক্ষণ দেয়া হবে। এর আগে কোনো জাতীয় নির্বাচনে পোলিং এজেন্টদেরকে প্রশিক্ষণ দেয়া হয়নি। এবার আমরা তা দেবো। আমরা যখন রিটার্নিং কর্মকর্তাকে প্রশিক্ষণ দেবো, তখন মূলত উনার কী কাজ, সম্পৃক্ততা কী, তার সঙ্গে কোন কোন আইন জড়িত এসব জানানো হবে।

সংশ্লিষ্টরা জানিয়েছেন, ইসিতে নিবন্ধিত প্রত্যেকটি রাজনৈতিক দলের কাছে সাত জনের নাম চাওয়া হবে। এই ৭ জন মাঠপর্যায়ে নিজ দলের পোলিং এজেন্টদের প্রশিক্ষণ দেবেন। অক্টোবরের মধ্যে তফসিল ঘোষণার আগেই প্রশিক্ষণ দেয়া হবে।

আর তফসিল ঘোষণার পর মাঠপর্যায়েও প্রতি প্রার্থীর সাতজন করে প্রায় ৮ হাজার পোলিং এজেন্টকে প্রশিক্ষণ দেয়া হবে। প্রশিক্ষণ নিয়ে আবার মাঠপর্যায়ে তারা অন্যান্য পোলিং এজেন্টদের প্রশিক্ষণ দেবেন । তফসিল ঘোষণার পর রিটার্নিং কর্মকর্তা, সহকারি রিটার্নিং কর্মকর্তা, নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট, জুডিশিয়াল ম্যাজিস্ট্রেটসহ, আইনশৃঙ্খলা বাহিনীকেও প্রশিক্ষণ দেয়া হবে।

এর বাইরেও সারাদেশের প্রায় ৮ লাখ নির্বাচনী কর্মকর্তা অর্থাৎ প্রিজাইডিং অফিসার, সহকারি প্রিজাইডিং অফিসার ও পোলিং অফিসার হিসেবে যারা দায়িত্ব পালন করবেন তাদেরকে প্রশিক্ষণ দেয়া হবে। নির্বাচনের ৫ থেকে ১০দিন আগে তাদের প্রশিক্ষণ শেষ করা হবে।

ইসি সূত্রে জানা গেছে, একদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচনে ইভিএম নিয়ে প্রশিক্ষণ শুরু করেছে ইসি। ইতোমধ্যে এ বিষয়ে ১২টি ব্যাচে ৩০০ এর বেশি নিজস্ব কর্মকর্তাকে প্রশিক্ষণ দেয়া হয়েছে। ২৪ ব্যাচে এ প্রশিক্ষণ কার্যক্রম শেষ হবে।

এইচএস/এমএমজেড/এমএস

আপনার মতামত লিখুন :